বোলারদের পর দাপট দেখাচ্ছেন খুলনার ব্যাটসম্যানরা

রবিউল ইসলাম রবি

৭২ ওভারে ৫ উইকেটে ১৬৯ রান করে ২য় দিনের খেলা শেষ করেছিলো রংপুর বিভাগীয় দল। তানবীর হায়দার ৪০ ও সোহরাওয়ার্দি শুভ ৩১ রান করে অপরাজিত ছিলেন। আজ দুজনই ফিফটি তুলে নিলেও রংপুর ২২৭ রানের বেশি করতে পারেনি। বল হাতে ৪ উইকেট নেন খুলনার অধিনায়ক আব্দুর রাজ্জাক। ২ টি করে উইকেট নেন আল আমিন হোসেন ও রুবেল হোসেন।

প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে দারুণ এক শুরু পায় খুলনা বিভাগীয় দল। দুই ওপেনার রবিউল ইসলাম রবি ও ইমরানুজ্জামান প্রথম উইকেটে ১৩৬ রান তোলেন স্কোরবোর্ডে। এর আগে ৭ টি লিস্ট-এ ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ইমরানুজ্জামানের এটিই প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে প্রথম ম্যাচ। অভিষেকেই ৭১ রানের ঝলমলে এক ইনিংস (১২৭ বলে, ১১ চারে) খেলেন যশোরের ডানহাতি এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান।

ইমরানুজ্জামান
ইমরানুজ্জামান

রবিউল হকের বলে তাঁকেই ক্যাচ দিয়ে ফেরার আগে ৭৬ রান করেন রবিউল ইসলাম রবি। চারে নেমে সুবিধা করে উঠতে পারেননি তুষার ইমরান। ৮ বলে ২ রান করে মাহমুদুল হাসানের বলে আউট হন প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে বাংলাদেশী ব্যাটসম্যান হিসাবে সর্বোচ্চ রানের মালিক তুষার ইমরান।

তুষার ইমরান আউট হবার পরে দিনের খেলা বাকি ছিলো আরো ৯.৩ ওভার। সেই সময়টা নির্বিঘ্নে পার করে দেন তিনে নামা ইমরুল কায়েস ও পাঁচে নামা সৌম্য সরকার। ৬৭ বলে ২ চারে ২৯ রান করে ইমরুল, ৪১ বলে ৮ রান করে সৌম্য অপরাজিত আছেন।

৩ উইকেটে ১৯২ রান তুলে তৃতীয় দিনের খেলা শেষ করেছে খুলনা। এখনো রংপুরের প্রথম ইনিংসের সংগ্রহের চেয়ে পিছিয়ে আছে ৩৫ রানে।

শিহাব আহসান খান

Read Previous

পাকিস্তান সফর ঝুলে আছে সরকারের সবুজ সংকেতের উপর

Read Next

দেশি কোচদের আশার বাণী শোনালেন আকরাম খান

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।