পেস আক্রমণে প্রতিযোগিতা, অনেক ভাল লাগছে রুবেলের

দ্বিতীয় স্পেলে ফিরেই রুবেলের সাফল্য

সাম্প্রতিক সময়ে জাতীয় দলে অনিয়মিত হয়ে পড়া পেসার রুবেল হোসেন চলতি বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপে বল হাতে বেশ দুর্দান্ত। ৪ ম্যাচে ৪.১৮ ইকোনোমিতে উইকেট শিকার করেছেন ১০টি। নতুন পুরাতন দুই বলেই রুবেলের সাফল্য পাওয়াটা বাড়তি নজর কেড়েছে। শুধু রুবেল নয়, টুর্নামেন্ট জুড়ে পেসাররা দেখিয়েছেন আধিপত্য। ফলে জাতীয় দলে প্রতিদ্বন্দ্বিতা যে বাড়তে যাচ্ছে তার আভাস পাওয়া যাচ্ছে অনায়াসেই।

২৫ অক্টোবর ফাইনালে নাজমুল একাদশের মুখোমুখি হবে রুবেল হোসেনের মাহমুদউল্লাহ একাদশ। তার আগে ২৪ অক্টোবর অনুশীলন শেষে রুবেল কথা বলেছেন নিজের বোলিং নিয়ে। অন্য পেসারদের সফলতাও ইতিবাচকভাবে দেখছেন জাতীয় দলের অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটার।

নিজের বোলিং নিয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে এক ভিডিও বার্তায় রুবেল বলেন, ‘আমি নিজের বোলিং নিয়ে সন্তুষ্ট। কারণ আমি যেভাবে বোলিং করতে চাচ্ছি, আমার এবং দলের পরিকল্পনা অনুযায়ী আমার কাছে মনে হয় আমি সেভাবে বোলিং করছি বিশেষ করে নতুন বলে। আমার কাছে মনে হয় সবকিছু ঠিক আছে। তাই আলহামদুলিল্লাহ আমি অনেক খুশি।’

বাকি পেসারদের ভালো করার ফলে জাতীয় দলে একটি সুস্থ প্রতিযোগিতা হবে বলে মনে করেন ৩০ বছর বয়সী রুবেল। বাংলাদেশের জার্সিতে ২৭ টেস্ট, ১০১ ওয়ানডে ও ২৭ টি-টোয়েন্টি খেলা ডানহাতি এই পেসার যোগ করেন,

‘আমার কাছে মনে হয় এটা অনেক ভালো লক্ষ্মণ। কারণ প্রত্যেকটা পেস বোলার, মানে প্রত্যেক ক্রিকেটারই এই মহামারীর সময় অনেক কষ্ট করেছে। আমার কাছে মনে হয় সেটার ফল এখন পেস বোলাররা ভালোভাবে পাচ্ছে।’

‘আর প্রতিযোগিতা থাকা ভালো। এটা বাংলাদেশ দলের জন্য অনেক ভালো কারণ প্রতিযোগিতা থাকলে একজন পেস বোলার যখন জাতীয় দলে খেলবে তখন দেখবে যে তার ব্যাপআপ দিতে আরো ভালো পেস বোলার রয়েছে তখন তার পারফরম্যান্স এবং সবকিছুই একটি ভিন্ন হবে। আমিও অনেক উপভোগ করি, প্রতিযোগিতা থাকলে আমার কাছে অনেক ভালো লাগে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

রুটের চোখে কোহলি এক পরিপূর্ণ ‘প্যাকেজ’

Read Next

পাশার দান উল্টে দিয়ে জিতল পাঞ্জাব

Total
2
Share
error: Content is protected !!