লিটনকে নিয়ে বড় ভাইয়ের আবেগঘন স্ট্যাটাস

৯৭ প্রতিবেদক:

প্রকাশ : 2 সপ্তাহ আগে আপডেট: 1 সেকেন্ড আগে
লিটনকে নিয়ে বড় ভাইয়ের আবেগঘন স্ট্যাটাস

লিটনকে নিয়ে বড় ভাইয়ের আবেগঘন স্ট্যাটাস

লিটনকে নিয়ে বড় ভাইয়ের আবেগঘন স্ট্যাটাস

সময় টা ভালো যাচ্ছে না লিটন দাসের। ব্যাট হাতে মেলে ধরতে পারছেন না নিজেকে। চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে লিটনের অফফর্ম ভোগাচ্ছে দলকে। অথচ তিনি টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে বাংলাদেশের অন্যতম সেরা ব্যাটার।  

২০২৩ সালে  ৯ ম্যাচে ৩২৪ রান নিয়ে টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক ছিলেন লিটন দাস। তবে চলতি বিশ্বকাপে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৩৬ রানের ইনিংসটি ছাড়া কোনো বড় রান করতে পারেননি তিনি। চলতি বিশ্বকাপে লিটন রান করেছেন যথাক্রমে ৩৬, ৯,১,১০ এবং ১৬।  প্রতি ম্যাচেই রানের চেয়ে বল খেলেছেন বেশী।

শেষ ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ২৫ বলে ১৬ রানের ধীর গতির ইনিংস নিয়ে সমালোচনা হচ্ছে প্রচুর। অনেকে মনে করছেন ভারতের বিপক্ষে লিটনকে একাদশে রাখা উচিৎ নয়। নিজের অফফর্ম এবং দর্শকদের সমালোচনায় নিশ্চিতভাবেই খারাপ সময় পার করছেন তিনি। তবে এই দুঃসময়ে লিটনের পাশে দাড়িয়েছেন তার আপন জন, তার ভাই। 

শনিবার দুপুরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে লিটন দাসের ভাই বাপ্পী দাস লিটনের সাথে তার একটি ছবি জুড়ে দিয়ে দীর্ঘ একটি স্ট্যাটাস দেন। সেখানে তিনি জানান, লিটন একা নন বরং খারাপ সময়ে লিটনের পাশে আছেন তিনি। ম্যাচে রান না করলেও লিটনের জন্য তার আদর,ভালোবাসা কমবেনা

লিটন দাসের ভাইয়ের ফেসবুক স্ট্যাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো-

'কেন এমন হচ্ছে? দীর্ঘসময় ধরে এত খারাপ বিগত ৯ বছরে হয়নি, চেষ্টার কোনো কমতি দেখিনি,চেষ্টা করা ছাড়া আর কি বা করার আছে, ক্রিকেটের ভাষায় আগ্রাসী, স্বাভাবিক, রক্ষণাত্মক সব ধরনের চেষ্টা দেখেছি। কোন কিছুই সফলতা বয়ে আনছে না। আজ হয়নি তো কি হয়েছে কাল হবে, কাল হয়নি তো কি হয়েছে পরশু হবে এমন ভাবে  চিন্তা করে নিজেকে সান্ত্বনা দিয়ে চলেছি। সান্ত্বনা ও এখন বাস্তবতার চাপে হারিয়ে গেছে। ক্রিকেটে সফলতা হোক আর না হোক, সাধারণ জনগণ তোকে ভালোবাসুক  আর না বাসুক, একটা কথা সবসময় মনে রাখবি  পরিবার  সব সময় তোর পাশে আছে, এমন ১০০টা ম্যাচে রান না করলেও তোর আদর ভালোবাসা সম্মান একটুও কমবে না। তোকে উৎসাহ দেওয়ার জন্য আমার এই ফেসবুক পোস্ট না।শুধুমাত্র নিজের খারাপ সময়ে  নিজেকে যেন একা না ভাবিস, প্রধান উদ্দেশ্য হল এটাই। ভগবান তোকে সব সময় সুস্থ সবল রাখুক।'