‘বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কার এখন এশিয়া কাপ বয়কট করা উচিৎ’

রিজার্ভ ডে

চলমান এশিয়া কাপ নিয়ে মাঝপথে এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের নতুন সিদ্ধান্তে টুইটার জুড়ে ক্ষোভ প্রকাশ ক্রিকেট সংশ্লিষ্ট একাধিক মহলের। ভারত-পাকিস্তানের আগামী ম্যাচ নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত নিল এসিসি, ১০ সেপ্টেম্বরের ম্যাচে বৃষ্টির বা অন্য কোনও প্রাকৃতিক কারণে ব্যাহত হলে পরের দিন ১১ সেপ্টেম্বর খেলা হবে। আর বাকি দুই দেশ, শ্রীলঙ্কা-বাংলাদেশের প্রতি এ নিয়ে অবিচার কী করা হল না? তাই অনেকেরই মত, বাকিরা এই টুর্নামেন্ট বয়কট করুক।

সুপার ফোর পর্বে বাকি আছে আরও ৪ ম্যাচ, এরপর ১৭ সেপ্টেম্বর টুর্নামেন্টের ফাইনাল। কলম্বোর আর প্রেমাদাসা আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামেই অনুষ্ঠিত হবে এই সব ম্যাচ। সুপার ফোর পর্বে কেবল ভারত-পাকিস্তান ম্যাচে রাখা হয়েছে রিজার্ভ ডে। ফাইনাল ছাড়া এটিই একমাত্র ম্যাচ যেখানে রিজার্ভ ডে আছে। বাকি ম্যাচগুলো অর্থাৎ আরও বিশেষ করে বললে বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা কেন এই সুবিধা থেকে বঞ্চিত। 

এসিসি কারণ হিসেবে বলছে, গ্রুপ পর্বে বৃষ্টির জন্য ভারত-পাকিস্তানের ম্যাচ ভেস্তে গিয়েছিল। তাই এই দুই দেশের পরবর্তী হাই-ভোল্টেজ ম্যাচ নিয়ে সতর্ক অবস্থানে।

বৃষ্টির কালো মেঘ থাকছে বাংলাদেশের পরের ম্যাচের উপরও। আগামীকাল ৯ সেপ্টেম্বর শনিবার, শ্রীলঙ্কা-বাংলাদেশ ম্যাচের দিন কলম্বোয় সারাদিনই বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। দিনে বৃষ্টির সম্ভাবনা ৮০ শতাংশ, রাতে ৯০ শতাংশ। এই ম্যাচ ভেস্তে গেলে অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না। আর বাংলাদেশ প্রায় ছিটকেই যাবে ফাইনালের রেস থেকে। 

শুধুমাত্র ভারত-পাকিস্তান ম্যাচে রিজার্ভ ডে’র ঘোষণা নিয়ে ক্রিকেট সংশ্লিষ্ট অনেকেই ক্ষোভ ঝাড়ছেন, 

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

শ্রীলঙ্কার কোচের সামনে একাদশ নিয়ে তথ্য দিতে চাইলেন না হাথুরুসিংহে

Read Next

তাসকিন-শরিফুলদের দেখে মুগ্ধ হওয়া সিলভারউড আছেন সতর্কে

Total
0
Share