আম্পায়ারিং নিয়ে যত অভিযোগ হারমানপ্রীতের

আম্পায়ারিং নিয়ে যত অভিযোগ হারমানপ্রীতের
Vinkmag ad

আম্পায়ারিং নিয়ে অভিযোগের কোনো কমতি নেই ভারতীয় অধিনায়ক হারমানপ্রীতের। ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে এসে তো রীতিমতো বো’মা ফাটালেন তিনি। বললেন আগামীবার বাংলাদেশে আসলে আম্পায়ার ইস্যুতে আগেই চিন্তাভাবনা করে আসবেন। শুধু নিজের আউট নিয়েই হতাশ না হারমানপ্রীত। তার মতে, এদিন হয়েছে ‘শোচনীয় আম্পায়ারিং’। বেশ কিছু সিদ্ধান্ত তাদের বিপক্ষে গেছে।

বাংলাদেশ-ভারত সিরিজ নির্ধারণী শেষ ম্যাচ আজ যেন রূপ নিয়েছিল অলিখিত ফাইনালে। ম্যাচের পুরো সময় জুড়ে উত্তেজনা, আর শেষদিকে যা হলো তাতে রীতিমতো অবাকই হয়েছেন সবাই। তবে সব ছাপিয়ে যেন ভারতের একটাই অভিযোগ- আম্পায়ারিং।

হারমানপ্রীত কর আম্পায়ারিং ইস্যুতেই ঝা’ড়’লেন দুনিয়ার সব ক্ষোভ। ম্যাচ শেষে বললেন,  

‘আমি মনে করি অনেক কিছু শেখার ছিল এই ম্যাচ থেকে। ক্রিকেট ছাড়াও, যে মানের আম্পায়ারিং হয়েছে তাতে আমরা খুবই বিস্মিত। কিন্তু… আমরা সামনে যখন বাংলাদেশে আসবো, নিশ্চিত করে আসতে হবে এই ধরনের আম্পায়ারিংয়ের মুখোমুখি হতে হবে। ঠিক সেভাবেই আমাদেরকে খেলতে হবে।’

বাংলাদেশের ব্যাটারদের নিয়ে প্রশংসায় ভাসানোর ফাঁকেও যেন হারমানপ্রীতের  কণ্ঠে ওই একই সুর, বাজে আম্পায়ারিং।

‘তারা ভালো ব্যাটিং করেছে যেটা বলার অপেক্ষা রাখে না। পরিস্থিতি অনুযায়ী দারুণ ব্যাটিং করেছে। প্রচুর সিঙ্গেল রান নিয়েছে যেগুলো খুব গুরুত্বপূর্ণ ছিল। মাঝে আমরা কিছু রান দিয়ে দিয়েছি। যদিও পরবর্তীতে আমরা নিয়ন্ত্রণ নিতে পেরেছিলাম। যেটা আগে বললাম, শোচনীয় আম্পায়ারিং। আমরা আম্পায়ারের বেশ কিছু সিদ্ধান্ত নিয়ে খুবই হতাশ।’

ভারতের হাই কমিশনকে আমন্ত্রণ না জানানোয় হতাশই হয়েছেন কর, ‘হাই কমিশনও সেখানে আছে এবং আমি আশা করি আপনি তাকে এখানে আমন্ত্রণ জানাতে পারতেন, এবং এখানে আসার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।”

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

হারমানপ্রীতের কথায় বাংলাদেশকে অপমান, দল নিয়ে চলে আসেন নিগার

Read Next

ওল্ড ট্রাফোর্ডে বৃষ্টির ফাঁকে লাবুশেইনের সেঞ্চুরি

Total
0
Share