জাকিরের দৃঢ়তায় কক্সবাজারে ম্যাচ বাঁচাল বাংলাদেশ ‘এ’ দল

জাকিরের দৃঢ়তায় কক্সবাজারে ম্যাচ বাঁচাল বাংলাদেশ 'এ' দল
Vinkmag ad

চারদিনের ম্যাচে কক্সবাজারে প্রথম ইনিংসে ১১২ রানে গুটিয়ে গিয়েছিল বাংলাদেশ ‘এ’ দল। জবাবে প্রথম ইনিংসে ৫ উইকেটে ৪৬৫ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করে ভারত ‘এ’ দল। কত বড় ব্যবধানে স্বাগতিকরা হারবে সেটিই ছিল প্রশ্ন। তবে জাকির হাসানের দৃঢ়তায় সেই ম্যাচ বাঁচিয়ে ফেলেছে মোহাম্মদ মিঠুনের দল।

৩৫৩ রান পিছিয়ে থেকে ২য় ইনিংসে ব্যাট করতে নামে বাংলাদেশ ‘এ’ দল।

৬৩ ওভারে ১ উইকেটে ১৭২ রান নিয়ে ৩য় দিনের খেলা শেষ করেছিল বাংলাদেশ ‘এ’ দল, পিছিয়ে ছিল ১৮১ রানে। ৮১ রান করে অপরাজিত ছিলেন জাকির হাসান, ৫৬ রান করে নাজমুল হোসেন শান্ত।

আজ চতুর্থ দিনে এসে সেঞ্চুরি তুলে নেন জাকির হাসান। তবে তিন অঙ্ক স্পর্শ করতে পারেননি নাজমুল হোসেন শান্ত। ১৮৭ বলে ১০ চারে ৭৭ রান করে আউট হন তিনি। মুকেশ কুমারের বলে লেগ বিফোর উইকেটের ফাঁদে পড়েন শান্ত।

তবে লাঞ্চ বিরতির আগে আর কোন উইকেট হারায়নি স্বাগতিকরা। মুমিনুল হকের সঙ্গে ১৫ রানের অবিচ্ছেদ্য জুটি গড়ে লাঞ্চ বিরতিতে যায় মোহাম্মদ মিঠুনের দল।

লাঞ্চ বিরতির পর সাজঘরে ফেরেন মুমিনুল হক। ৩৭ বলে ১৩ রান করে জয়ন্ত যাদবের বলে বোল্ড হন তিনি। এরপর অধিনায়ক মোহাম্মদ মিঠুন করতে পারেননি ১০ রানের বেশি।

মোহাম্মদ মিঠুন যখন আউট হন দিনের খেলা শেষ হতে তখনও ৪৯ ওভার বাকি। সেই অবস্থায় জাকির হাসান ও জাকের আলি অনিকের ৫ম উইকেট জুটি স্থায়ী হয় ২২.৩ ওভার। ১৬ রান করলেও ৯০ বল মোকাবেলা করেন জাকের আলি।

প্রথম ইনিংসে দলের পক্ষে সর্বোচ্চ রান করলেও এদিন রানের খাতাই খুলতে পারেননি মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। এরপর তাইজুল ইসলাম, নাইম হাসানদের নিয়ে ম্যাচ বাচানোর লড়াই চালিয়ে যাচ্ছিলেন জাকির।

তবে ছন্দপত ঘটে ১৪৭ তম ওভারের শেষ বলে। সৌরভ কুমারের বলে বোল্ড হন তিনি। ৪০২ বলে ১৬ চার ও ৩ ছক্কায় ১৭৩ রান জাকিরের ব্যাটে।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by cricket97 (@cricket97bd)

১৫১ ওভার শেষে ৯ উইকেটে বাংলাদেশ ‘এ’ দলের রান যখন ৩৪১ তখন আলোক স্বল্পতায় ম্যাচ শেষ ঘোষণা করেন দুই আম্পায়ার। ম্যাচ হয় ড্র।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

আইপিএল থেকে ব্রাভোর অবসর, থাকছেন চেন্নাইয়েই

Read Next

ভারতের বিপক্ষে টাইগারদের নেতৃত্বে লিটন দাস

Total
3
Share