মাহমুদউল্লাহ-দিপুর ব্যাটে ম্লান হলেন মিঠুন

মাহমুদউল্লাহ-দিপুর ব্যাটে ম্লান হলেন মিঠুন
Vinkmag ad

আগের দুই ম্যাচ হেরে বিসিবি সেন্ট্রাল জোন লড়াই থেকে অনেকটা ছিটকে যায়। কাগজে-কলমে যে হিসাবটুকু বাকি ছিল তার জন্য আজ বিসিবি নর্থ জোনের বিপক্ষে জিততেই হত। এমন ম্যাচে মোহাম্মদ মিঠুন ছাড়া কেউ দাঁড়াতেই পারেনি। তার সেঞ্চুরির পরও চ্যালেঞ্জিং সংগ্রহ পায়নি সেন্ট্রাল জোন। শাহাদাত হোসেন দিপুর সেঞ্চুরির সাথে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের ৯৬ রানের ইনিংসে সহজ জয় নর্থ জোনের। নিশ্চিত হয়েছে তাদের ফাইনালও।

বিকেএসপির ৩ নম্বর মাঠে আগে ব্যাট করে মিঠুনের অপরাজিত ১২১ রানে ৮ উইকেটে ২২৮ রানের সংগ্রহ সেন্ট্রাল জোনের। জবাবে দ্রুত ৩ উইকেট হারালেও মাহমুদউল্লাহ-দিপুর ১৮১ রানের জুটিতে সহজ হয়েছে জয়ের পথ। দিপু ১০১ ও মাহমুদউল্লাহ ৯৬ রান করে আউট হন।

বিসিবি সেন্ট্রাল জোন ৭২ রানেই হারায় ৫ উইকেট। সৌম্য সরকার (১১), নাজমুল হোসেন শান্ত (১৫), মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতরা (৯) হয়েছেন ব্যর্থ। যোগ্য সঙ্গ না পেলেও মিঠুন টেনে নেন সেন্ট্রাল জোনকে।

৬ষ্ঠ উইকেটে জাকের আলি অনিকের সাথে যোগ করেন ৬৮ রান। যেখানে জাকের আলির অবদান মাত্র ১৫। শেষদিকে ৯ম উইকেট জুটিতেও হাসান মাহমুদকে নিয়ে ৪৬ রানে অবিচ্ছেদ্য মিঠুন।

১১৪ বলে ১০ চার ৬ ছক্কায় মিঠুন অপরাজিত ছিলেন ১২১ রানে। ১২ বলে ৩ চারে হাসান অপরাজিত ১৮ রানে। যা দ্বিতীয় ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ।

২২৮ রানে আটকে দেওয়ার পথে বিসিবি নর্থ জোনের হয়ে সর্বোচ্চ দুইটি করে উইকেট মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, শফিকুল ইসলাম ও সৈকত আলির।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে ৪০ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে নর্থ জোনও। সেখান থেকেই মাহমুদউল্লাহ-দিপুর ১৮১ রানের জুটি। দলকে জয় থেকে মাত্র ৮ রান দূরে রেখে আউট হন মাহমুদউল্লাহ। শান্তর বলে স্টাম্পড হয়ে হতাশ হয়েছেন এই অভিজ্ঞ ব্যাটার, ৪ রানের জন্য যে মিস করলেন সেঞ্চুরি।

৯৮ বলে ৮ চার ৪ ছক্কায় ৯৬ রানের ইনিংসটি সাজান মাহমুদউল্লাহ। দলের জয় থেকে ২ রান দূরত্বে ফেরেন দিপুও। কিন্তু তার আগেই সেঞ্চুরি তুলে নেন এই ডানহাতি ব্যাটার। ১৫১ বলে ৭ চার ২ ছক্কায় তার নামের পাশে ১০১ রান।

পরের সহজ কাজটা করতে অসুবিধা হয়নি আকবর আলি (০*) ও শামীম পাটোয়ারির (১*)।

১৮ বল ও ৫ উইকেট হাতে রেখে পাওয়া জয়ে বিসিবি সাউথ জোনের সাথে ফাইনাল নিশ্চিত হয় বিসিবি নর্থ জোনেরও। আগামী ২৭ নভেম্বর মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে দিবা রাত্রির ফাইনালে মুখোমুখি হবে দুই দল।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

মুশফিকের বৃথা লড়াই, নাইম শেখের ম্যাচ জেতানো ইনিংস

Read Next

‘আঠারো বছর বয়সের নেই ভয়’

Total
1
Share