অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েই টুর্নামেন্ট শেষ করলো বাংলাদেশ

অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হয়েই টুর্নামেন্ট শেষ করলো বাংলাদেশ
Vinkmag ad

বাছাই পর্বের সেমি-ফাইনাল জিতেই নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলার টিকিট নিশ্চিত করেছিল বাংলাদেশ। এবার আয়ারল্যান্ডকে ৭ রানে হারিয়ে শিরোপা নিয়েই বাড়ি ফিরছে নিগার সুলতানা জ্যোতির দল। ফাইনালের স্নায়ু চাপ জয় করে ৬১ রানের দারুণ এক ইনিংস খেললেন টুর্নামেন্টে প্রথম ম্যাচ খেলতে নামা টাইগ্রেস ওপেনার ফারজানা হক পিংকি।

টুর্নামেন্ট শুরুর আগে কোভিড পজিটিভ হয়ে সেমি-ফাইনাল পর্যন্ত কোনো ম্যাচ খেলতে পারেননি ফারজানা। অথচ তার ব্যাটে চড়েই আবু ধাবির শেখ জায়েদ স্টেডিয়ামে আগে ব্যাট করে গতকাল (২৫ সেপ্টেম্বর) ৮ উইকেটে ১২০ রানের পুঁজি পায় বাংলাদেশ। জবাবে লড়াই জমিয়েও শেষ পর্যন্ত হারতে হয়েছে আয়ারল্যান্ডকে, থেমেছে ৯ উইকেটে ১১৩ রানে।

টস জিতে আগে ব্যাট করা বাংলাদেশ দলের উদ্বোধনী জুটিতে আসে ২৩ রান। ওপেনার মুর্শিদা খাতুনের (৬) পর টুর্নামেন্টে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা টাইগ্রেস অধিনায়ক জ্যোতিও (৬) বেশিক্ষণ টিকেননি এ দিন।

রুমানা আহমেদকে নিয়ে তৃতীয় উইকেট জুটিতে আরেক ওপেনার ফারজানা যোগ করেন ৪৯ রান। তবে ৫ রানের ব্যবধানে ফিরেছেন দুজনেই। ৫৫ বলে ৭ চারে ৬১ রানের ইনিংসটি সাজান ফারজানা। অন্যদিকে ২০ বলে ২ চারে রুমানার ব্যাটে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২১ রান।

তাদের বিদায়ের পর বাংলাদেশ ইনিংস পায়নি গতি। ৮ উইকেটে ১২০ রানে আটকে যেতে হয়। আইরিশদের হয়ে সর্বোচ্চ ৩ উইকেট লউরা ডিলানির।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে শুরু থেকেই বিপাকে আইরিশ নারীরা। সানজিদা আক্তার মেঘলা, নাহিদা আক্তার, সোহেলী আক্তার, রুমানা আহমদদের তোপে ৭৬ রানেই ৮ উইকেট হারায় তারা। তবে নবম উইকেত জুটিতে ৩৪ রান যোগ করে আরলেনে ক্যালি (২৪ বলে ২৮*) ও কারা মুরে (১৩ বলে ১০) ম্যাচ প্রায় জমিয়েই দিচ্ছিলেন।

শেষ ওভারে প্রয়োজন পড়ে ১৫ রান। তবে নাহিদা আক্তারের করা অভার থেকে আসেনি ৭ রানের বেশি। উল্টো তুলে নেন মুরের উইকেট।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

আরব-আমিরাতের বিপক্ষে বাংলাদেশের কষ্টার্জিত জয়

Read Next

সুরিয়া-কোহলির ব্যাটে চড়ে সিরিজ জিতল ভারত

Total
1
Share