রজার-রাফার মন খারাপের মুহূর্ত ছুঁয়েছে কোহলিকে

20220924 144221
Vinkmag ad

আজ মন ভাল নেই খেলদুনিয়ার। শেষ হয়েছে রজার ফেদেরারের অধ্যায়। শেষ ম্যাচে কেঁদে কোর্ট ছাড়লেন; রজারের বিদায়বেলায় পাশে বসে আবেগে চোখের অশ্রু ঝরালেন রাফায়েল নাদালও। যা ক্রীড়া ইতিহাসের অন্যতম সেরা মন খারাপের মুহূর্ত। গোটা বিশ্বে ছড়িয়ে থাকা টেনিস ভক্তদের মন ছুঁয়েছে। তাদের মধ্যেই একজন ভিরাট কোহলি।

টেনিসের ইতিহাসে বিচিত্র চরিত্র এ দু’জন। যে কোনও অ্যাথলিটের জন্য তারা আদর্শ। লন্ডনের ও’টু অ্যারেনার হার্ড কোর্টে শেষবারের মতো ফেদেরারের পার্টনার রাফায়েল নাদাল। নাদালকে পাশে নিয়ে লেভার কাপে রজার ফেদেরারের অবসরের ক্ষণ। ফেদেরারের সঙ্গে আবেগ সামলাতে পারেননি প্রতিদ্বন্দ্বী নাদালও। কাঁদলেন, প্রতিপক্ষ ও বন্ধুর বিদায়বেলায় এক হয়ে গেলেন। রজারের বিদায়লগ্ন যেন সবাইকে মিলিয়ে দিল।

“চাতক চোখের দৃষ্টিকোন বেয়ে
অঝোরে অশ্রু ঝরে –
তুমিও কি কাঁদো?”

ফেদেরার আর নাদালের সেই অশ্রুসিক্ত, আবেগপ্রবণ মুহূর্তের একটি ছবি টুইটারে পোস্ট করে ভিরাট কোহলি লিখেন,

‘কে ভেবেছিল প্রতিদ্বন্দ্বীরা একে অপরের প্রতি এরকম অনুভব করতে পারে। এটাই খেলাধুলার সৌন্দর্য। এটা আমার কাছে সবচেয়ে সুন্দর স্পোর্টসের ছবি। যখন আপনার সঙ্গী আপনার জন্য কাঁদে, আপনি জানেন আপনার ঈশ্বরের দেওয়া প্রতিভা দিয়ে কিছু করতে পেরেছেন। এই দু’জনের প্রতি শ্রদ্ধা ছাড়া আর কিছুই নয়।’

রজার ফেদেরারের অবসরের সঙ্গেই টেনিসের এক ঐতিহাসিক যুগের অবসান। ক্যারিয়ারে ২০ বার গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী এই তারকা ইতিহাসের তৃতীয় টেনিস খেলোয়াড়। ৬টি অস্ট্রেলিয়ান ওপেন, ১টি ফরাসি ওপেন, ৮টি উইম্বলনডন ও ৫টি যুক্তরাষ্ট্র ওপেন তার নামের পাশে। কিংবদন্তিদের বিদায় এমন রাজসিকই।

কোর্টে অদ্ভুত দ্রুততা এবং শক্তিশালী টেনিসে মন দিয়ে সারা বিশ্বের ক্রীড়া অনুরাগীদের মন জয় করেছে৷ তাঁর এই ঐতিহাসিক ক্যারিয়ার স্মৃতির সঙ্গে বেঁচে থাকবে। সমস্ত অসাধারণ স্মৃতির জন্য রজার ফেদেরারকে ধন্যবাদ। কিংবদন্তিদের বিদায় হয়না… মেঘলা শীতে নতুন রৌদ্রের আশা।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

এবার বিশ্বকে নিজেদের জাত চেনাতে চায় বাংলাদেশ

Read Next

তাসকিন-মৃত্যুঞ্জয়-তামিমের ছবি দিয়ে বাংলা টাইগার্সের আভাস

Total
3
Share