কলিংউড, বাংলাদেশকে মনে করিয়ে টপে এখন টপলি

কলিংউড, বাংলাদেশকে মনে করিয়ে টপে এখন টপলি
Vinkmag ad

২০০৫ সালের ২১ জুন, নটিংহামে বাংলাদেশের বিপক্ষে ব্যাট হাতে দাপুটে সেঞ্চুরি করা পল কলিংউড বল হাতে নিয়েছিলেন ৬ উইকেট। মোহাম্মদ আশরাফুলের ৫২ বলে ৯৪ রান করার দিনে কলিংউডের বোলিং ফিগার ১০-১-৩১-৬! ১৭ বছর আগের সেই স্মৃতি আবার ফিরিয়ে আনলেন রিস টপলি।

গতকালের আগে পল কলিংউডের ৩১ রানে ৬ উইকেটই ইংল্যান্ডের ওয়ানডে ইতিহাসের সেরা বোলিং ফিগার ছিল। লর্ডসে ভারতের বিপক্ষে ২৪ রান খরচে ৬ উইকেট নিয়ে কলিংউডকে পেছনে ফেলে টপে এখন টপলি।

আগে ব্যাট করে ২৪৬ রানের বেশি করতে পারেনি ইংল্যান্ড। ভারতের জন্য এই রানই পর্বতসম করে তোলেন টপলি। ৯.৫ ওভার বল করে ২ ওভারে কোন রানই দেননি। মোট ২৪ রান হজম করে উইকেট নিয়েছেন ৬ টি।

৬ উইকেট আবার সব বাঘা বাঘা ব্যাটারদের। শুরুটা করেন রোহিত শর্মাকে লেগ বিফোর উইকেটের ফাঁদে ফেলে। শিখর ধাওয়ান আউট হন উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে।

ভিরাট কোহলি ফেরার পর যখন সুরিয়াকুমার যাদব ও হার্দিক পান্ডিয়ার জুটি জমতে শুরু করছে তখন টপলি বোল্ড করেন সুরিয়াকে। এরপর মোহাম্মদ শামিকে স্টোকসের ক্যাচ বানিয়ে, যুজবেন্দ্র চাহালকে বোল্ড করে ও প্রসিধ কৃষ্ণাকে বাটলারের ক্যাচ বানিয়ে ফেরান।

রিস টপলি ইংল্যান্ডের পক্ষে ওয়ানডেতে ৫ এর বেশি উইকেট নেওয়া ৩য় বোলার। টপলি ও কলিংউড ছাড়াও ক্রিস ওকসের আছে ৬ উইকেট নেবার অভিজ্ঞতা, সেটাও আবার দুইবার।

ওয়ানডেতে ইংল্যান্ডের পক্ষে সেরা বোলিং ফিগার-

রিস টপলি- ৯.৫-২-২৪-৬, বিপক্ষ ভারত, ২০২২
পল কলিংউড- ১০-১-৩১-৬, বিপক্ষ বাংলাদেশ, ২০০৫
ক্রিস ওকস- ১০-০-৪৫-৬, বিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া, ২০১১
ক্রিস ওকস- ৮-০-৪৭-৬, বিপক্ষ শ্রীলঙ্কা, ২০১৪
মার্ক ইলহাম- ১০-৩-১৫-৫, বিপক্ষ জিম্বাবুয়ে, ২০০০।

২৮ বছর বয়সী রিস টপলি এখন অব্দি ওয়ানডে ফরম্যাটে খেলেছেন ১৭ টি ম্যাচ, উইকেট নিয়েছেন ২৮ টি। ১২ টি-টোয়েন্টি খেলা এই বাঁহাতি ফাস্ট মিডিয়াম বোলার নিয়েছেন ১২ উইকেট।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

মিলনের সর্বনাশে ডুফির পৌষমাস

Read Next

কোহলিকে নিয়ে করা টুইট নিয়ে যা বললেন বাবর

Total
1
Share