ইংল্যান্ড গিয়ে নিজের সম্পর্কে ধারণা বদলেছে সাইফউদ্দিনের

ইংল্যান্ড যেয়ে নিজের সম্পর্কে ধারণা বদলেছে সাইফউদ্দিনের
Vinkmag ad

চোট ও মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন যেন হয়ে পড়েছেন সমার্থক শব্দ। চোটের কারণে সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচের সাথে দূরত্ব প্রায় ৮ মাস! ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর দিয়ে ফিরতে যাচ্ছেন এই অলরাউন্ডার। চোটকে বাস্তবতা হিসেবে মেনে নিয়েছেন ঠিকই, তবে অন্যদের চেয়ে নিজেকে খানিক দুর্ভাগাও ভাবছেন তিনি। এমনকি নিজের কোনো সমস্যা আছে কিনা সে নিয়েও ছিলেন দ্বিধায়।

২০১৭ সালে অভিষেক হওয়া সাইফউদ্দিন এখনো পর্যন্ত খেলেছেন সমান ২৯ টি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি। বার বার চোটে না পড়লে সংখ্যাটা নিশ্চিতভাবেই বাড়তো। গত বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মাঝপথে পিঠের চোট নিয়ে দেশে ফেরেন।

এরপর শুরু ফিরে আসার লড়াই, তাতে কেটে গেল ৮ মাস। খেলতে পারেননি বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগেও (বিপিএল)। সর্বশেষ ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগ (ডিপিএল) দিয়ে অবশ্য ফেরেন মাঠের ক্রিকেটে। তার আগে বিসিবির অধীনে ইংল্যান্ডে গিয়ে চিকিৎসা করান।

ইংল্যান্ড গিয়েই নিজের সম্পর্কে ধারণা বদলায় সাইফউদ্দিনের। চোট নিয়ে ভয়ে থাকলেও স্ক্যানে ধরা পড়েনি খারাপ কিছু। আর তাতেই ফিরে পান আত্মবিশ্বাস। এই অলরাউন্ডার আছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি দলে।

আজ (১২ জুন) মিরপুরে সংবাদ মাধ্যমের সাথে আলাপে চোট নিয়ে তিনি বলেন, ‘প্র্যাকটিস, রিহ্যাব, জিম সব কিছুই করছি। একই প্রক্রিয়া অনুসরণ করছি। হয়ত স্কিল ট্রেনিং এখনও সেভাবে শুরু করিনি, ১৫ তারিখের পর শুরু করব। আপাতত ফিটনেস, রিহ্যাব, জিম চালিয়ে যাচ্ছি।’

‘এতোদিন কিছুটা দ্বিধায় ছিলাম যে আমার ভেতর কিছু আছে কিনা। কিন্তু যেহেতু ইংল্যান্ডে গেলাম বিসিবির অধীনে, স্ক্যান করানোর জন্য। তো স্ক্যানে দেখা যায় আমার কিছু হয়নি। তাই কিছুটা আত্মবিশ্বাস নিয়ে বোলিং করছি এখন।’

‘কিন্তু জানি না কতদিন সুস্থ থাকতে পারব। চেষ্টা করছি যে যতদিন খেলতে পারি বা সামনে বিশ্বকাপ আছে। ২০২৩ বিশ্বকাপ আছে, তো আমার পারফরম্যান্সের পাশাপাশি সুস্থ থাকাটা খুব গুরুত্বপূর্ণ আমার জন্য।’

নিয়মিত চোটে পড়ে অভ্যস্ত সাইফউদ্দিন বলছেন জীবনের বাস্তবতা তাকে শিখিয়েছে বিরতি আসবেই।

উদাহরণ দিয়ে ২৫ বছর বয়সী অলরাউন্ডার যোগ করেন, ‘প্রতিটা মানুষের জীবনেই বিরতি থাকে। ঢাকাতে যদি গাড়ি চালান একই গতিতে গাড়ি চালাতে পারবেন না। ব্রেক দিতেই হবে। যারা অনেক ভাগ্যবান, তারা চোট ছাড়া অনেক দিন খেলে যেতে পারে।’

‘বেশিরভাগ পেস বোলারেরই এমন থাকে। জানি না আবার কয়দিন খেলতে পারব। পারফরম্যান্স ও চোটের ব্যাপার আছে। চেষ্টা করছি, কী হবে তা কারও হাতে নেই। কিছুটা দুর্ভাগা (নিজে) তো বটেই। হয়ত আর পাঁচজন পেস বোলারের চেয়ে আমি কিছুটা দুর্ভাগা। কিন্তু এটা জীবনেরই অংশ। এটা মেনে নিয়েই চলতে হবে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

নেদারল্যান্ডসের ওয়ানডে দলে চমক, ফিরলেন টম কুপার

Read Next

ওয়েস্ট ইন্ডিজের উইকেটের ধারণা পেতে সাইফউদ্দিনের ভরসা ইউটিউব

Total
12
Share