শাইনপুকুরকে অল্পতে আটকে দিয়ে সিটি ক্লাবের টানা দ্বিতীয় জয়

শাইনপুকুরকে অল্পতে আটকে দিয়ে সিটি ক্লাবের টানা দ্বিতীয় জয়
Vinkmag ad

বঙ্গবন্ধু ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগ (ডিপিএল) ২০২১-২২ এ শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাবকে ৪ উইকেটে হারাল সিটি ক্লাব। শাইনপুকুরের করা ১৭৫ রান সিটি ক্লাব টপকায় ৫৬ বল বাকি থাকতেই। ১০ ওভারে মাত্র ১৮ রান খরচায় ৩ উইকেট শিকার করা বাঁহাতি স্পিনার রাজিবুল ইসলাম জিতলেন ম্যাচ সেরার পুরষ্কার।

বিকেএসপির চার নম্বর মাঠে বুধবার শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাব আগে ব্যাট করে স্কোরবোর্ডে ১৭৫ রান জমা করতেই হারিয়ে ফেলে সবকয়টি উইকেট। তবে টস জিতে ব‍্যাট করতে নেমে শুরুটা বেশ দুর্দান্তই করেছিল শাইনপুকুর। অভিষেক মিত্রর সঙ্গে রাকিন আহমেদের উদ্বোধনী জুটি ৩৫ রানের। ব্যক্তিগত ১৯ রানে অভিষেকের বিদায়ে ভাঙে জুটি।

তিনে নামা তাসামুল হক (৮) প্যাভিলিয়নে ফেরেন দ্রুত। জিম্বাবুয়ের সিকান্দার রাজাও বড় ইনিংস খেলতে ব্যর্থ। নামের পাশে দুই রান যোগ করতেই রাজিবুল ইসলামের হাতে হয়েছেন বোল্ড। ৩৫ রান করা ওপেনার রাকিন আহমেদকেও ফিরিয়েছেন রাজিবুল।

এরপর উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মাহিদুল ইসলাম অঙ্কন (১) ও রাহাতুল ফেরদৌস (৫) দ্রুত বিদায় নিলে বিপদ আরও বাড়ে শাইনপুকুরের। স্কোরবোর্ডের অবস্থা তখন ৬ উইকেটে ৭৭। সেখান থেকে আর ঘুরে দাঁড়ানোর কোন সুযোগই পায়নি তাঁরা।

তবে অধিনায়ক সাজ্জাদুল হকের সর্বোচ্চ ৩৭ রান, নাইম হাসানের ২৩ আর আলাউদ্দিন বাবুর ২৪ রানের ইনিংসের সৌজন্যে শাইনপুকুরের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১৭৫ রানে।

বল হাতে সিটি ক্লাবের রাজিবুল ইসলাম ১০ ওভারে মাত্র ১৮ রান দিয়ে তিনটি উইকেট। তার স্পিন ঘূর্ণিতেই এদিন কাবু হয়ে যায় শাইনপুকুরের ব্যাটিং লাইন। এছাড়া দুটি করে উইকেট নেন শাহরিয়ার আলম ও আমিনুর রহমান।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে শুরুতেই তৌফিক খানের (১) উইকেট হারায় সিটি ক্লাব। ইনিংসের চতুর্থ ওভারে হাসান মুরাদের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েন এই ওপেনার। তিনে নামা জাকিরুল হককে সঙ্গে নিয়ে ৫৬ রানের জুটি গড়ে দলকে স্বস্তি এনে দেন শাহরিয়ার কমল। তবে ৭ চার ও ১ ছক্কায় ৩৯ বলে ৪৬ রান করা জাকিরুলের বিদায়ে ভাঙে জুটি।

মইনুল ইসলাম (৩) দ্রুত সাজঘরে ফেরেন নাইম হাসানের শিকার হয়ে। এরপর আশিক উল আলমের সঙ্গে শাহরিয়ার কমল গড়েন আরও একটি জুটি। তবে ব্যক্তিগত ৫৫ রানে ওপেনার শাহরিয়ারকে এলবিডব্লিউতে বিদায় করে ৬১ রানের জুটি ভাঙেন তাসমুল হক। পরের বলেই তাসামুলের দ্বিতীয় শিকার; মইনুল ইসলাম সোহেল ফিরেন শূন্য হাতে।

সিটির অধিনায়ক জাওয়াদ রুয়েন ২২ বলে ২২ রানের ইনিংসে দলকে এগিয়ে নিয়ে যান লক্ষ্যের কাছে। জয়ের জন্য বাকি কাজটা উসমান খালিদকে নিয়ে সারেন আশিক উল আলম। ৫৯ বলে ৪ বাউন্ডারির সাহায্যে আশিক অপরাজিত থাকেন ৪৪ রানে। আর তাতেই সিটি ক্লাবের নিশ্চিত হয়ে যায় টানা দ্বিতীয় জয়।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ (৩৯তম ম্যাচ, ডিপিএল ২০২২)

শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাবঃ ১৭৫/১০ (৪৭.২ ওভার) অভিষেক ১৯, রাকিন ৩৫, তাসামুল ৮, রাজা ২, মাহিদুল ১, রাহাতুল ৫, সাজ্জাদুল ৩৭, নাইম ২৩, আলাউদ্দিন ২৪, রিপন ৫*, মুরাদ ৫; আমিনুর ৬.২-১-২৭-২, খালিদ ১০-১-৫৭-১, রাজিবুল ১০-২-১৮-৩, শাহরিয়ার ৯-২-২৮-২, রুয়েন ৫-০-১৩-১, মইনুল ৪-০-১৪-১

সিটি ক্লাবঃ ১৭৯/৬ (৪০.৪ ওভার) তৌফিক ১, শাহরিয়ার ৫৫, জাকিরুল ৪৬, মইনুল ৩, আশিক ৪৪*, মইনুল সোহেল ০, রুয়েন ২২, খালিদ ১*; নাঈম ১০-১-৪২-১, মুরাদ ১০-০-৪৪-১, রাহাতুল ৭.৪-০-৩৮-১, তাসামুল ৫-০-২১-৩

ফলাফলঃ সিটি ক্লাব ৪ উইকেটে জয়ী

ম‍্যাচ সেরাঃ রাজিবুল ইসলাম (সিটি ক্লাব)।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

অন্যদের ১৮০-৯০ লাগলেও বাংলাদেশের ১৭০-৭৫ যথেষ্ট বলছেন মাশরাফি

Read Next

তাসকিনের ভেতর সঠিক ইঞ্জিন আছে বলছেন ডোনাল্ড

Total
18
Share