বাংলাদেশের পথের কাটা হয়ে আছেন বাভুমা

বাংলাদেশের পথের কাটা হয়ে আছেন বাভুমা
Vinkmag ad

ডারবানের কিংসমিডে আজ থেকে শুরু হয়েছে বাংলাদেশ ও দক্ষিণ আফ্রিকার মধ্যকার ১ম টেস্ট। এই টেস্টের খুটিনাটি আপডেট এই লাইভ রিপোর্টে। 

বাংলাদেশের পথের কাটা হয়ে আছেন বাভুমা:

তাসকিন আহমেদের বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়েছিলেন টেম্বা বাভুমা। তবে আউট হলেও আম্পায়ার আউট দেননি, বাংলাদেশও রিভিউ নেয়নি। এই ভুলের খেসারত দিতে হচ্ছে বাংলাদেশকে। ১ম দিন শেষে ফিফটি করে অপরাজিত টেম্বা বাভুমা।

১৮০ রানে ৪ উইকেট হারানোর পর কাইল ভেরেনের সঙ্গে অবিচ্ছেদ্য ৫৩ রানের জুটি গড়েছেন প্রোটিয়াদের সহ অধিনায়ক।

৪ উইকেটে ২৩৩ রান করে ১ম দিনের খেলা শেষ করেছে স্বাগতিকরা। অবশ্য আলোক স্বল্পতার কারণে খেলা হয়েছে কেবল ৭৬.৫ ওভার।

সংক্ষিপ্ত স্কোর (১ম দিন শেষে):

দক্ষিণ আফ্রিকা ২৩৩/৪ (৭৬.৫), এলগার ৬৭, এরউই ৪১, পিটারসেন ১৯, বাভুমা ৫৩*, রিকেলটন ২১, ভেরেনে ২৭*; এবাদত ১৭-৬-৫৮-১, খালেদ ১২.৫-০-৪৯-১, মিরাজ ২৬-৪-৫৭-১।

রিকেলটনকে ফেরালেন এবাদতঃ 

নিউজিল্যান্ডে মাউন্ট মঙ্গানুই টেস্টে বাংলাদেশকে জেতানোর নায়ক ছিলেন এবাদত হোসেন। কিংসমিডে অবশ্য এবাদতকে উইকেট পেতে অপেক্ষা করতে হয়েছে বেশ। প্রথম দুই সেশনে উইকেট না পাওয়া এবাদত ৩য় সেশনে এসে পান উইকেট। নিজের করা ১৫ তম ওভারের ২য় বলে অভিষিক্ত রায়ান রিকেলটনকে সাজঘরে ফেরান এবাদত। ৪১ বলে ২১ রান করা রিকেলটন পুল করতে যেয়ে টাইমিংয়ে গড়বর করে ফেলেন। সহজতম ক্যাচ ধরেন টাইগারদের টেস্ট অধিনায়ক মুমিনুল হক।

ম্যাচে দারুণভাবে ফিরল বাংলাদেশঃ

প্রথম সেশনে ২৫ ওভার বল করেও কোন উইকেট আদায় করতে পারেনি বাংলাদেশ। ২য় সেশনে এসে অবশ্য ৩ টি উইকেট তুলে নিয়ে ম্যাচে ফিরেছে বাংলাদেশ। লাঞ্চ ব্রেকের পর থেকে টি ব্রেকের আগ অব্দি ৭০ রান খরচে ৩ উইকেট নিয়েছে সফরকারীরা। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর (১ম দিন, ২য় সেশন শেষে):

দক্ষিণ আফ্রিকা ১৬৫/৩ (৫৩), এলগার ৬৭, এরউই ৪১, পিটারসেন ১৯, বাভুমা ২২*, রিকেলটন ১১*; খালেদ ৯-০-৩৩-১, মিরাজ ১৮-২-৪৩-১।

মিরাজের থ্রো তে সাজঘরে পিটারসেনঃ

ব্যাটের ফেস ওপেন করে অফসাইডের বাইরের বল খেলেছিলেন টেম্বা বাভুমা। তাসকিনের করা বলে সিঙ্গেল সহজেই হয়ে যাবার কথা। তবে মেহেদী হাসান মিরাজ এটাই কঠিন করে তুললেন। ডান দিকে ফুল স্ট্রেচড ডাইভ দিয়ে বল আটকালেন, নন স্ট্রাইকার কিগান পিটারসেন যতক্ষণে দৌড়ে স্ট্রাইক প্রান্তে পৌছান তার আগেই স্টাম্প ভেঙে দিলেন। ৩৬ বলে ১৯ রান করা পিটারসেন সাজঘরের পথ ধরতে বাধ্য হলেন।

দ্রুত ২ উইকেট তুলে নিল বাংলাদেশঃ

শরিফুল ইসলাম ফিট থাকলে একাদশেই থাকা হত না। সেই খালেদ আহমেদই বাংলাদেশ দলকে প্রথম সাফল্য এনে দিলেন। ইনিংসের ৩৪তম ওভারের ২য় বলে ফেরালেন প্রোটিয়া অধিনায়ক ডিন এলগারকে। খালেদের দেওয়া অতিরিক্ত বাউন্স সেভাবে মোকাবেলা করতে পারেননি এলগার। বল তার গ্লাভস ছুঁয়ে যায় লিটন দাসের কিপিং গ্লাভসে।

পরবর্তী ওভারের ১ম বলে সাজঘরে ফেরেন সারেল এরউইও। ৪১ রান করা এরউই মেহেদী হাসান মিরাজের অফসাইডের বাইরে করা বল খেলতে যেয়ে বল টেনে আনেন স্টাম্পে। ৪ রান ও ৬ বলের ব্যবধানে দুই সেট ওপেনার হারাল দক্ষিণ আফ্রিকা।

বাংলাদেশের হতাশাময় এক সেশনঃ 

তিন পেসার একাদশে রেখে টসে জিতে আগে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল বাংলাদেশ দল। তবে প্রথম সেশনে এই তিন পেসার (তাসকিন আহমেদ, এবাদত হোসেন ও সৈয়দ খালেদ আহমেদ) তো বটেই, হাত ঘুরিয়ে সাফল্য পাননি অফ স্পিনার মেহেদী হাসান মিরাজও। 

বাংলাদেশের হতাশা উপহার দিয়ে দলকে এগিয়ে নিচ্ছেন প্রোটিয়া অধিনায়ক। ইতোমধ্যে তুলে নিয়েছেন টেস্ট ক্যারিয়ারের ২০ তম ফিফটি, ছুটছেন ১৪ তম শতকের দিকে।

৭৫ তম টেস্ট খেলতে নামা এলগার রান তুলছেন ৭৫+ স্ট্রাইক রেটে। তাকে দারুণ সঙ্গ দিচ্ছেন সারেল এরউই। এরউই অবশ্য ফিরতে পারতেন লাঞ্চ ব্রেকের আগেই। মেহেদী হাসান মিরাজের বলে ক্যাচ উঠলেও তা মিস করেন উইকেটের পেছনে থাকা লিটন দাস। 

২৫ ওভারে বিনা উইকেটে ৯৫ রান তুলেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর (১ম দিন, ১ম সেশন শেষে):

দক্ষিণ আফ্রিকা ৯৫/০ (২৫), এলগার ৬০*, এরউই ৩২*; তাসকিন ৯-১-৩১-০, এবাদত ৭-১-৩৯-০, খালেদ ৫-০-১৫-০, মিরাজ ৪-০-৯-০।

যেকারণে কিংসমিডে খেলা শুরু হতে দেরিঃ

বাংলাদেশ সময় দুপুর ২টায় খেলা শুরু হবার কথা থাকলেও তা শুরু হয়নি। দুই দলের ক্রিকেটাররা মাঠে নেমে গেলেও পরে সাইটস্ক্রিন সমস্যার কারণে মাঠ ত্যাগও করে। যা স্বাগতিকদের জন্য বিড়ম্বনারও। 

৩৫ মিনিট পরে শুরু হয় ম্যাচ। তাসকিন আহমেদের করা প্রথম বলেই ৪ আদায় করে নেন  দক্ষিণ আফ্রিকা কাপ্তান ডিন এলগার। 

যেকারণে নেই তামিম ও শরিফুলঃ

 

টস আপডেট- 

টসে জিতে আগে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মুমিনুল হক। 

একাদশ আপডেট- 

বাংলাদেশ একাদশে নেই তামিম ইকবাল ও শরিফুল ইসলাম। মাহমুদুল হাসান জয়ের সঙ্গে ওপেন করবেন সাদমান ইসলাম অনিক। এবাদত হোসেন ও তাসকিন আহমেদের সঙ্গে পেস আক্রমণে সৈয়দ খালেদ আহমেদ। 

বাংলাদেশ একাদশ-

মুমিনুল হক সৌরভ (অধিনায়ক), সাদমান ইসলাম অনিক, মাহমুদুল হাসান জয়, নাজমুল হোসেন শান্ত, মুশফিকুর রহিম, লিটন কুমার দাস (উইকেটরক্ষক), ইয়াসির আলি চৌধুরী রাব্বি, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাসকিন আহমেদ, সৈয়দ খালেদ আহমেদ, এবাদত হোসেন চৌধুরী।

দক্ষিণ আফ্রিকা একাদশে আছে দুই অভিষিক্ত। রায়ান রিকেলটন ও লিজাড উইলিয়ামসের হচ্ছে টেস্ট অভিষেক। 

দক্ষিণ আফ্রিকা একাদশ-

ডিন এলগার (অধিনায়ক), টেম্বা বাভুমা (সহ অধিনায়ক), সারেল এরউই, সিমন হারমার, কেশব মহারাজ, উইয়ান মুলডার, ডুয়ানে অলিভিয়ার, কিগান পিটারসেন, রায়ান রিকেলটন, কাইল ভেরেনে (উইকেটরক্ষক), লিজাড উইলিয়ামস।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

পদত্যাগ করলেন বাংলাদেশকে বিশ্বকাপ জেতানো কোচ নাভিদ নেওয়াজ

Read Next

যেকারণে বাংলাদেশ একাদশে নেই তামিম ও শরিফুল

Total
6
Share