এই কদিনেই ডোনাল্ডকে মুগ্ধ করে ফেলেছে তাসকিন, শরিফুলরা

আগে থেকেই চেনা শরিফুলের 'রিস্ট পজিশনে' নজর ডোনাল্ডের
Vinkmag ad

খেলোয়াড়ি জীবনে দক্ষিণ আফ্রিকার অন্যতম তারকা পেসার ছিলেন, পার করছেন সমৃদ্ধ কোচিং ক্যারিয়ারও। বর্তমানে বাংলাদেশ দলের পেস বোলিং কোচের দায়িত্ব পালন করছেন অ্যালান ডোনাল্ড। নিজের দেশেই প্রথম অ্যাসাইনমেন্ট, ওয়ানডে সিরিজে তাসকিন, শরিফুলরা করেছে বাজিমাত। তাদের শেখার আগ্রহ অবাক করছে ডোনাল্ডকে।

চলতি বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ পর্যন্ত দায়িত্ব পেয়েছেন ডোনাল্ড। যার শুরুটা হলো নিজ দেশ দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে। দিন কয়েক কাজ করেছেন, আর তাতেই শিষ্যদের আগ্রহ, অ্যাটিটিউড, অ্যাপ্রোচে মুগ্ধ এই প্রোটিয়া কিংবদন্তী।

ওয়ানডে সিরিজে বল হাতে টাইগার পেসারদের সাফল্যে কিছুটা হলেও অবদানও যে রেখেছেন ডোনাল্ড। খুব বেশি টেকনিক্যাল দিক নিয়ে কাজ করার সুযোগ হয়তো পাননি। কিন্তু এমন কন্ডিশনে কীভাবে বল করে সফল হওয়া যায় সেসব নিশ্চয়ই শেয়ার করেছেন নতুন শিষ্যদের সাথে।

ঐতিহাসিক ওয়ানডে সিরিজ জয় শেষে টাইগাররা অপেক্ষায় টেস্ট সিরিজে নামার। ৩১ মার্চ দেশটির ঐতিহ্যবাহী ডারবানের কিংসমিডে মাঠে গড়াবে প্রথম টেস্ট। তার আগে আজ (২৮ মার্চ) দক্ষিণ আফ্রিকায় উপস্থিত বাংলাদেশী সাংবাদিকদের সাথে কথা বলেন অ্যালান ডোনাল্ড।

শিষ্যদের শেখার আগ্রহ ও মানসিকতায় মুগ্ধ ডোনাল্ড বলেন, ‘তাদের অ্যাপ্রোচ দেখে আমি অবাক ও খুশি হয়েছি। তাসকিন, শরিফুল, খালেদদের অ্যাটিটিউড প্রথম দেখাতেই অনেক ভালো লেগেছে। তারা ম্যাচে সেরাটা দিতে চায়। তারা অনেক মন দিয়ে আমার কথা শোনে। আশা করি দক্ষিণ আফ্রিকার কন্ডিশন ভালোভাবে তারা কাজে লাগাবে। ওয়ানডে সিরিজে আগ্রাসী ছিল ওরা, পরিকল্পনা ভালোভাবে বাস্তবায়ন করেছে।’

তাসকিন, শরিফুল, এবাদতরা নিউজিল্যান্ডের মাটিতে বাংলাদেশকে এনে দেন ঐতিহাসিক টেস্ট জয়। এরপর দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তাদের মাটিতেই ওয়ানডে সিরিজ জয় আত্মবিশ্বাসী করছে ডোনাল্ডকে। এই প্রটিয়া কিংবদন্তী মনে করেন সেসবের ধারাবাহিকতায় দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজেও ভালো করতে পারে বাংলাদেশ।

‘আমি অনেক আত্মবিশ্বাসী। আমি সবসময় মানসিক দিকটাকে গুরুত্ব দেই। ক্রিকেট হল অ্যাটিটিউড ও মানসিকতার খেলা। অনেক পরিকল্পনাই আপনি করতে পারবেন। কিন্তু মাইন্ডসেট ও অ্যাপ্রোচ ঠিকঠাক কাজ না করলে পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে পারবেন না। এই পেসাররা যেভাবে তাদের কাজ করছে তা দারুণ। দক্ষিণ আফ্রিকায় এসে বাংলাদেশ দক্ষিণ আফ্রিকার শক্তিশালী দলকে হারিয়েছে, এটা অনেক কিছু। তারা নিউজিল্যান্ডেও করে দেখিয়েছে। এখানেও তা হতে পারে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

ধোনির সিদ্ধান্তকে যেকারণে যৌক্তিক বলছেন ডি ভিলিয়ার্স

Read Next

শতবছরের পুরোনো মাঠে টাইগারদের প্রথম, পেসের সাথে ধরতে পারে স্পিনও

Total
8
Share