ফিজবিহীন দিল্লি ক্যাপিটালস হারিয়ে দিল মুম্বাইকে

ফিজবিহীন দিল্লি ক্যাপিটালস হারিয়ে দিল মুম্বাইকে
Vinkmag ad

ইশান কিশানের বিধ্বংসী ইনিংসের পরও মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সকে হারতে হল দিল্লি ক্যাপিটালসের কাছে। টপ অর্ডারের ব্যর্থতা সত্ত্বেও দিল্লিকে প্রথম ম্যাচ জিতিয়ে দিলেন ললিত যাদব ও আক্সার প্যাটেল। আর তাতেই ম্লান হয়ে গেলে ইশান কিশানের অপরাজিত ৮১ রান। স্পিন বিষে মুম্বাইকে নীল করা কুলদীপ যাদব জিতেছেন ম্যাচ সেরার পুরষ্কার।

ইশান কিশানের ব্যাটিং তান্ডবে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স পায় বড় সংগ্রহ। কিন্তু আক্সার-ললিতের ঝড়ে উড়ে গেল রোহিত শর্মার দল, ২০২২ আইপিএলে নিজেদের প্রথম ম্যাচেই রুদ্ধশ্বাস জয় দিল্লির। টাইগার পেসার মুস্তাফিজুর রহমান দিল্লি ক্যাপিটালসের প্রথম সেরা একাদশে জায়গা না পেলেও জিতেছে তাঁর দল।

এদিন টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন দিল্লি ক্যাপিটালসের অধিনায়ক রিশাব পান্ট। ওপেন করতে নেমে শুরুটা অনবদ্য করেছিল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের দুই ওপেনার রোহিত শর্মা ও ইশান কিশান। প্রথম থেকেই ঝড়ো ব্যাটিং করতে থাকেন রোহিত। ইশান কিশানের সঙ্গে অর্ধশতরানের পার্টনারশিপও করেন তিনি। নবম ওভারে দলের ৬৭ রানের মাথায় প্রথম উইকেট হারায় মুম্বাই। ৪১ রান করে কুলদীপ যাদবের প্রথম শিকার হন রোহিত শর্মা।

ব্যক্তিগত ৮ রানে আউট হন আনমলপ্রীত সিং। ভালো শুরু করেও বড় ইনিংস খেলতে ব্যর্থ হন তিলক ভার্মা (২২)। দ্রুতই ফিরে যান কাইরন পোলার্ড (৩)। টিম ডেভিডের ব্যাট থেকে আসে ১২ রান। একপ্রান্ত থেকে উইকেট পড়লেও অপরদিক থেকে নিজের ইনিংস চালিয়ে নিয়ে যান ইশান কিশান। খেলেছেন বেশ কিছু আক্রমণাত্মক শট।

শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৭৭ রান করে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ৮১ রান করে অপরাজিত থাকেন ইশান কিশান ও ৭ রানে অপরাজিত থাকেন সামস। ইশানের ৪৮ বলে অপরাজিত ৮১ রানের ইনিংসটা সাজানো ছিল ১১টি চার ও ২টি ছক্কায়।

দিল্লি ক্যাপিটালসের কুলদীপ যাদব ৪ ওভার বল করে মাত্র ১৮ রান দিয়ে নিলেন ৩ উইকেট।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে ৩০ থেকে ৩২ রানের মধ্যেই দিল্লি ক্যাপিটালস হারিয়ে ফেলে শুরুর তিন ব্যাটসম্যানকে। টিম সেইফার্টকে ব্যক্তিগত ২১ রানে বোল্ড করে মুম্বাইকে প্রথম সাফল্য এনে দেন মুরুগান অশ্বিন। তিনে নামা মানদ্বীপ সিংও তাঁরই শিকার। কোন রান করার আগেই মানদ্বীপ ফেরেন প্যাভিলিয়নে। অধিনায়ক রিশাব পান্ট (১) দ্রুতই ধরেন সাজঘরের পথ। অপর প্রান্তে দাঁড়িয়ে উইকেটের মিছিল দেখছিলেন ওপেনার পৃথ্বী শ।

ইনিংসের ১০তম ওভারে বাসিল থাম্পি তুলে নেন জোড়া উইকেট। ওভারের প্রথম বলেই বিদায় করেন ওপেনার পৃথ্বীকে (৩৮)। এর দুই বলের মাথায় নেই রোভম্যান পাওয়েলও (০)। দলীয় ৭২ রানে ৫ উইকেট হয়ে ফেলে একসময় চাপে পড়ে গিয়েছিল দিল্লি। সেখান থেকে ললিত যাদবের হাত ধরে ঘুরে দাঁড়ায় দিল্লি।

৩৮ বলে ৪৮ রানের চমৎকার ইনিংস খেললেন ললিত। ৪ চার ও ২ ছয় দিয়ে জয় ছিনিয়ে নিয়ে গেলেন তিনি। তাঁকে সঙ্গ দিলেন দুই অলরাউন্ডার। ১১ বলে ২২ করে যান শারদুল ঠাকুর। তারপর ১৭ বলে ৩৮ রানে অপরাজিত আক্সার প্যাটেল।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ (দ্বিতীয় ম্যাচ, আইপিএল ২০২২)

মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সঃ ১৭৭/৫ (২০ ওভার) রোহিত ৪১, ইশান ৮১*, আনমলপ্রীত ৮, তিলক ২২, পোলার্ড ৩, ডেভিড ১২, স‍্যামস ৭*; খলিল ৪-০-২৭-২, কমলেশ ২-০-২৯-০, কুলদীপ ৪-০-১৮-৩

দিল্লি ক‍্যাপিটালসঃ ১৭৯/৬ (১৮.২ ওভার) পৃথ্বী ৩৮, সেইফার্ট ২১, মানদ্বীপ ০, পান্ট ১, ললিত ৪৮*, রোভম‍্যান ০, শার্দুল ২২, আক্সার ৩৮*; থাম্পি ৪-০-৩৫-৩, মুরুগান ৪-০-১৪-২, মিলস ৩-০-২৬-১

ফলাফলঃ দিল্লি ক‍্যাপিটালস ৪ উইকেটে জয়ী

ম্যাচ সেরাঃ কুলদীপ যাদব (দিল্লি ক‍্যাপিটালস)।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

আম্পায়ারিং বিতর্কের ম্যাচে আবাহনীর ২০ রানের জয়

Read Next

যেকারণে ভবিষ্যত নিয়ে আশাবাদী জ্যোতি

Total
1
Share