ম্যানকাডের আইন পরিবর্তন হওয়ায় খুশি শচীন টেন্ডুলকার

হেলমেট ইস্যুতে আইসিসির দৃষ্টি আকর্ষণ করলেন শচীন
Vinkmag ad

‘সত্যিই খুশি যে এটি (ম্যানকাড) পরিবর্তন করা হয়েছে’ – শচীন টেন্ডুলকার। ম্যানকাডকে আইন-৪১ ‘আনফেয়ার প্লে’ থেকে সরিয়ে করা হল নন-স্ট্রাইকার অ্যান্ডে রানআউট (আইন-৩৮); এমসিসির এমন সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন ভারতীয় ক্রিকেট কিংবদন্তি।

ক্রিকেটের প্রচলিত নিয়মে বড়সড় রদবদল করছে মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাব। ম্যানকাডিংকে বৈধ বলে ঘোষণা করে দিয়েছে। ফলে রান আউট করার সম্পূর্ণ স্বাধীনতা আছে বোলারের। ম্যানকাডিংকে আনফেয়ার প্লে-এর (আইন-৪১) থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে এবং রানআউটে (আইন-৩৮) অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।

ক্রিকেট আইনের তত্ত্বাবধায়ক এমসিসির এই সিদ্ধান্তে বিভক্ত হয়ে পড়েছে ক্রিকেট বিশ্ব। যদিও ভারতীয় ব্যাটিং গ্রেট শচীন টেন্ডুলকার এমসিসির সিদ্ধান্তের প্রশংসা করেছেন। টুইটারে এক ভিডিও বার্তা পোস্ট করে শচীন জানান,

‘এই ধরনের নির্দিষ্ট আউটকে ‘ম্যানকাড’ বলায় আমি সবসময় অস্বস্তিতে ছিলাম। এমসিসি কমিটি ক্রিকেটে নতুন নিয়ম চালু করেছে এবং আমি তাঁদের যথেষ্ট সমর্থন করি। আমি সত্যিই খুশি যে এটি রান আউটে পরিবর্তন করা হয়েছে। এটা সবসময় আমার মতে রান আউট করা উচিত ছিল। সুতরাং, এটি আমাদের সকলের জন্য একটি সুখবর। আমি এতে মোটেও স্বাচ্ছন্দ্য ছিলাম না, তবে এটি আর হবে না।’

নতুন এই নিয়ম অনুসারে, বোলার বল করার আগে যদি নন-স্ট্রাইকার ব্যাটার তাঁর ক্রিজের বাইরে থাকেন এবং বোলার নন-স্ট্রাইক অ্যান্ডের উইকেটে বলটি আঘাত করেন, তাহলে নন-স্ট্রাইকার ব্যাটসম্যানকে রানআউট ঘোষণা করা হবে।

এখন এই নিয়মের বৈধতার ফলে কোন ধরনের বিরোধের সুযোগ যেমন থাকবে না, তেমনি নন-স্ট্রাইকার ব্যাটারও সজাগ থাকবেন।

ক্রিকেটের আইন প্রণয়নকারী সংস্থা মর্যাদাপূর্ণ মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাব (এমসিসি) আরও বেশ কিছু নতুন নিয়ম এনেছে। পরিবর্তিত এই নিয়মগুলো কার্যকর হবে চলতি বছরের ১লা অক্টোবর থেকে।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

রাওয়ালপিন্ডি টেস্ট নিয়ে বিব্রত রমিজ রাজা

Read Next

রাওয়ালপিন্ডি টেস্টে ইমামের ব্যাটে দুই সেঞ্চুরি, তবুও তাঁর পেছনে ছুটছে সমালোচনা

Total
19
Share