দুই কিংবদন্তি লেগ-স্পিনারকে সম্মান জানাতে ‘বেনো-কাদির ট্রফি’

দুই কিংবদন্তি লেগ-স্পিনারকে সম্মান জানাতে ‘বেনো-কাদির ট্রফি’
Vinkmag ad

২৪ বছরের মধ্যে পাকিস্তানে অস্ট্রেলিয়ার প্রথম টেস্ট সিরিজ উদযাপন করতে, পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড এবং ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া ‘বেনো-কাদির ট্রফি’ চালু করার ঘোষণা দিয়েছে। এটি একটি চিরস্থায়ী ট্রফি হবে এবং পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের মধ্যে খেলা প্রতিটি টেস্ট সিরিজের শেষে উপস্থাপন করা হবে।

অজি সাবেক অধিনায়ক ও লেগ-স্পিনার রিচি বেনো এবং পাকিস্তানের কিংবদন্তি লেগ স্পিনার আবদুল কাদির খানের নামে ‘বেনো-কাদির ট্রফি’ নামকরণ করা হয়েছে। পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজম এবং অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক প্যাট কামিন্স আজ বুধবার পিন্ডি ক্রিকেট স্টেডিয়ামে শুক্রবার থেকে শুরু হওয়া প্রথম টেস্টের আগে বেনো-কাদির ট্রফি উন্মোচন করেছেন।

রিচি বেনো এবং কাদির ছিলেন বিভিন্ন যুগের দুই দক্ষ, বিশিষ্ট এবং অত্যন্ত সম্মানিত ক্রিকেটার। যারা সম্মান, গৌরব এবং স্বতন্ত্রতার সাথে ক্রিকেট খেলাটিকে বিশ্বে পরিবেশন করেছিলেন।

রিচি বেনো ১৯৫৯ সালে পাকিস্তানে দলের প্রথম পূর্ণ সফরে অস্ট্রেলিয়ার নেতৃত্ব দেন এবং ২-০ তে সিরিজ জিতেছিল অজিরা। অন্যদিকে কাদির অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ১১টি টেস্ট খেলেছিলেন। যেখানে তিনি ১৯৮২ এবং ১৯৮৮ সালে দুটি টেস্ট সিরিজে ৩৩ উইকেট সহ মোট ৪৫ উইকেট নিয়েছিলেন।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ৬৩ টেস্টে খেলে খেলে ২৪৮টি টেস্ট উইকেট ও ২২০১ রান করার কৃতিত্ব আছে সিডনির নিউ সাউথ ওয়েলসের কিংবদন্তি রিচি বেনোর। তাঁর নেতৃত্ব খেলে অস্ট্রেলিয়া কোনও টেস্ট সিরিজ হারেনি। ২৮টি ম্যাচে তিনি দেশকে নেতৃত্ব দেন।  অধিনায়কত্ব জীবনে রিচি বেনো হেরেছেন কেবল ৪ ম্যাচ।

অপরদিকে লাহোরে জন্ম নেওয়া আব্দুল কাদির ১৯৭৭-১৯৯০ সাল পর্যন্ত ৬৭ টেস্ট ম্যাচ খেলে নিয়েছেন ২৩৬ উইকেট। আর ১০৪টি আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ম্যাচে তার উইকেট ১৩২টি।

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নিক হকলি বলেছেন,

‘এই টেস্ট সিরিজটি একটি উত্তেজনাপূর্ণ এবং ঐতিহাসিক উপলক্ষ যেখানে অস্ট্রেলিয়া ২৪ বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো পাকিস্তান সফর করছে। সেই প্রেক্ষাপটের পরিপ্রেক্ষিতে, এটিই উপযুক্ত সময় যে আমরা দুই সত্যিকারের কিংবদন্তি রিচি বেনো এবং আবদুল কাদিরকে সম্মান জানাতে পারি, একটি ট্রফি উদ্বোধনের মাধ্যমে দুই দল সেই কিংবদন্তি নামগুলি নিয়ে খেলবে।’

পিসিবির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ফয়সাল হাসনাইন এই প্রসঙ্গে জানান,

‘এই দুর্দান্ত খেলার দুই পরম কিংবদন্তি এবং আইকন – রিচি বেনো এবং আবদুল কাদিরের নামে ট্রফি চালু করে পাকিস্তানে পাকিস্তান-অস্ট্রেলিয়া টেস্ট প্রতিদ্বন্দ্বিতার পুনরুজ্জীবন উদযাপন করার জন্য এর চেয়ে ভাল উপায় আর হতে পারে না। এই দুই ভদ্রলোক সব যুগ এবং যুগের স্বাদে রয়ে গেছেন কারণ সাধারণভাবে ক্রিকেটে এবং বিশেষ করে রিস্ট-স্পিন বোলিংয়ে তাদের অবদান অপরিসীম।’

‘বেনো-কাদির ট্রফির সূচনা পাকিস্তান-অস্ট্রেলিয়া টেস্ট সিরিজে আরও মশলা যোগ করবে, যেটি ঐতিহাসিকভাবে বেশ প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ এবং কঠিন লড়াই হতে চলছে। আমি আত্মবিশ্বাসী যে উভয় পক্ষের খেলোয়াড়রা এই উদ্যোগ থেকে আরও অনুপ্রেরণা নেবে এবং ট্রফিতে হাত দেওয়ার জন্য প্রথম হতে চাইবে। ইতিমধ্যে, পাকিস্তানের ক্রিকেট ভক্তরা উদ্বোধনী বেনো-কাদির ট্রফি জয়ের জন্য মাঠের লড়াই দেখার সুযোগের অপেক্ষায় রয়েছে।’

পাকিস্তান-অস্ট্রেলিয়ার টেস্ট সিরিজের সূচি-

৪-৮ মার্চ- ১ম টেস্ট, রাওয়ালপিন্ডি
১২-১৬ মার্চ- ২য় টেস্ট, করাচি
২১-২৫ মার্চ- ৩য় টেস্ট, লাহোর। 

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

আগামীকালই হচ্ছে মুনিম শাহরিয়ারের অভিষেক!

Read Next

জায়গা নিয়ে সংশয় নেই রিয়াদের, পাল্টা প্রশ্ন ছুঁড়ে দিলেন সাংবাদিককে

Total
1
Share