নখ কামড়ানো উত্তেজনা ছড়ানো ম্যাচ জিতবেন আশা করেননি ইমরুল

নখ কামড়ানো উত্তেজনা ছড়ানো ম্যাচ জিতবেন আশা করেননি ইমরুল
Vinkmag ad

রোমাঞ্চকর ফাইনালে ফরচুন বরিশালকে মাত্র ১ রানে হারিয়ে বিপিএলে তৃতীয় শিরোপা ঘরে তুলল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। নখ কামড়ানো উত্তেজনা ছড়িয়ে শেষ হাসি হাসা দলটির অধিনায়ক ইমরুল কায়েস যেনো ম্যাচ শেষেও বিশ্বাস করতে পারছিলেন না।

টস জিতে আগে ব্যাট করতে নেমে সুনীল নারাইনের বিধ্বংসী ইনিংসের পরেও মাঝে খেই হারিয়ে ৯ উইকেটে ১৫১ রানের বেশি করতে পারেনি কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। জবাবে ফরচুন বরিশালের জন্য লক্ষ্যটা মামুলি বানিয়ে দেন ৩ নম্বরে নেমে ৩৪ বলে ৫৮ রান করা সৈকত আলি।

শেষ ২৪ বলে ২৭, শেষ ১৮ বলে ১৮ প্রয়োজন ছিল ফরচুন বরিশালের। অথচ ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় এই ম্যাচই হারতে হয়েছে ১ রানে। শেষ ওভারে প্রয়োজন ছিল ১০, নাটকীয়তায় মোড়ানো ঐ ওভারের প্রতি বলেই ছড়িয়েছে উত্তেজনা।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by cricket97 (@cricket97bd)

নেতৃত্ব দিয়ে কুমিল্লাকে দ্বিতীয়বার শিরোপা জেতানো ইমরুল পুরষ্কার বিতরণীতে জানান নিজেও আশা করেননি শেষ পর্যন্ত দল জিতবে।

ইমরুল বলেন, ‘এটা একটি দুর্দান্ত ম্যাচ ছিল, আমি কখনো আশাই করিনি জিততে পারবো, তবে সৃষ্টিকর্তাকে ধন্যবাদ। আমরা অনেক ভালো করেছি কিন্তু আমাদের মাঝে কিছু ভুল ছিল।’

নারাইনের অমন ইনিংসের পরও ৯৫ রানে ৬ উইকেট হারানো এবং শেষদিকে মইন আলি ও আবু হায়দার রনির জুটির ফিফটিতে লড়াকু সংগ্রহ কুমিল্লার স্কোরবোর্ডে। রনি-মইনের সাথে ইমরুল প্রশংসা করেছেন প্রতিপক্ষকে দারুণ শুরু এনে দেওয়া সৈকত আলিরও।

কুমিল্লা অধিনায়ক যোগ করেন, ‘মইন ও রনি শেষটা ভালো করেছে। সৈকত দুর্দান্ত শুরু করেছে, আমাদের বোলাররা মাঝের ওভারগুলোতে বেশ ভালো করেছে। এই ধরণের ফাইনাল জিততে হলে সাহসী ও মাথা ঠান্ডা রাখতে হয়। সেটি করা গেলেই আপনি সফল হবেন।’

‘সুনীল (নারাইন) ও ফাফ (ডু প্লেসিস) ফিল্ডিংয়ে বেশ সাহায্য করেছে, এটা পুরোটাই দলীয় কাজ। বোলাররা আসলেই দুর্দান্ত পারফরম্যান্স দেখিয়েছে, বিশেষ করে সুনীল ও তানভীর ইসলাম। দুই দলই বেশ কিছু ভুল করেছে ব্যাটিং ও বোলিংয়ের সময়।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

সাকিব ইস্যুতে ফরচুন বরিশালকে শোকজ করেছে বিসিবি

Read Next

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের ডিকশনারিতে ‘পান্ডব’ বলে কিছু নেই

Total
5
Share