বাবর আজমদের আরও এক পরাজয়

মুনরো-আজম ঝড়ের পর শাদাবের '৫', জিতল ইসলামাবাদ
Vinkmag ad

অধিনায়ক শাদাব খানের অলরাউন্ড নৈপুণ্যে দারুণ জয় পেয়েছে ইসলামাবাদ ইউনাইটেড। বাবর আজমের করাচি কিংসকে তারা হারিয়েছে ৪২ রানের ব্যবধানে।

হারতে হারতে জয়ের কথা বেমালুম ভুলে গেছেন বাবর। এদিন দলের সাথে নিজেও ব্যাটিংয়ে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছেন। ৫ ম্যাচের সবকটিতে হেরেছে তার দল করাচি কিংস। বিপরীতে ইসলামাবাদ ৫ ম্যাচে ৬ পয়েন্ট নিয়ে এখন ২য় স্থানে আছে।

টসে জিতে এদিন ব্যাটিং নেন শাদাব খান। ইসলামাবাদের ব্যাটসম্যানদের অবশ্য এদিন বড় ইনিংস খেলতে দেখা যায়নি। তবে শুরুর ৪ ব্যাটসম্যানের ত্রিশোর্ধ্ব ইনিংসের সুবাদে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৭৭ রানের চমৎকার স্কোর গড়ে তারা। সর্বোচ্চ ৩৯ রান ওপেনার পল স্টার্লিংয়ের। শাদাব ৩৪ ও কলিন মুনরো ৩৩ রান করেন।

করাচির পক্ষে ক্রিস জর্ডান ২ উইকেট নেন।

১৭৮ রানের লক্ষ্যে করাচি খেলতে নেমে মোহাম্মদ নবি ছাড়া আর কোন ব্যাটসম্যান নিজেদের স্বকীয়তা প্রদর্শন করতে পারেননি। শাদাব খানের স্পিন ও ৩ পেসারের সমন্বিত প্রয়াসে করাচির ব্যাটসম্যানরা ঘায়েল হতে থাকে। শেষ পর্যন্ত ৯ উইকেটে ১৩৫ রানে থামে করাচির ইনিংস। নবি সর্বোচ্চ ৪৭ রানে অপরাজিত থাকেন। এছাড়া শাহিবজাদা ফারহান করেন ২৫ রান।

ইসলামাবাদের পক্ষে শাদাব ৪ উইকেট নেন।

ম্যাচ সেরার পুরস্কার পান শাদাব খান।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

ইসলামাবাদ ইউনাইটেডঃ ১৭৭/৬ (২০), স্টার্লিং ৩৯, হেলস ৩০, মুনরো ৩৩, শাদাব ৩৪, আসিফ ১০, আজম ১৬, ফাহিম ৭*; ইমাদ ৩-০-২২-১, উসমান ৪-০-২৮-১, উমাইদ ৪-০-২৮-১, জর্ডান ৪-০-৩৬-২, নবি ৩-০-৩৩-১

করাচি কিংসঃ ১৩৫/৯ (২০), শারজিল ৬, বাবর ৮, ফারহান ২৫, ককবেইন ২, ইমাদ ৯, গ্রেগরি ১৫, নবি ৪৭*, জর্ডান ৫, তাহা ০, উমাইদ ১০, উসমান ৮*; ওয়াকাস ৪-০-২৮-১, ওয়াসিম ৪-০-৪১-১, হাসান ৪-০-২৬-১, শাদাব ৪-০-১৫-৪

ফলাফলঃ ইসলামাবাদ ইউনাইটেড ৪২ রানে জয়ী

ম্যাচ সেরাঃ শাদাব খান (ইসলামাবাদ ইউনাইটেড)।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

হাজারতম ওয়ানডে স্মরণীয় করে রাখল ভারত

Read Next

আইসিসির সেরা একাদশে জায়গা পাওয়া রিপনের আদর্শ স্টেইন-সাকিব

Total
3
Share