হাজারতম ওয়ানডে স্মরণীয় করে রাখল ভারত

হাজারতম ওয়ানডে স্মরণীয় করে রাখল ভারত
Vinkmag ad

হাজারতম ওয়ানডে ম্যাচ স্মরণীয় করে রাখল ভারত। রোহিত শর্মার নেতৃত্বে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ৬ উইকেটে জিতল ভারত; তাও আবার ২২ ওভার হাতে রেখে। ৪ উইকেট শিকার করে উইন্ডিজকে আটকে দেওয়া যুজবেন্দ্র চাহাল পেলেন ম্যাচ সেরার পুরষ্কার।

আহমেদাবাদে এদিন ক্রিকেটের ইতিহাসে প্রথম দল হিসেবে হাজারতম ম্যাচটি খেলল ভারত। ঐতিহাসিক দিনটি স্মরণীয় করে রাখতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিয়েছেন দুই স্পিনার যুজবেন্দ্র চহাল এবং ওয়াশিংটন সুন্দর। এই দু’য়ের স্পিন ভেলকিতে ১৭৬ রানেই থেমে যায় সফরকারী দলের ইনিংস। জবাবে অধিনায়ক রোহিতের ফিফটির পর সুরিয়াকুমার ও অভিষিক্ত হুদার ব্যাটে সহজেই জয়ের বন্দরে পৌঁছায় ভারত।

আহমেদাবাদের নরেন্দ্র মোদী স্টেডিয়ামে টসে জিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে আগে ব্যাট করতে আমন্ত্রণ জানায় ভারত অধিনায়ক রোহিত শর্মা। অধিনায়কের সিদ্ধান্তের মান রাখলেন বোলাররা। ইনিংসের তৃতীয় ওভারেই ওপেনার শাই হোপকে বোল্ড করেন মোহাম্মদ সিরাজ। ১২তম ওভারে জোড়া উইকেট তুলে নেন ওয়াশিংটন সুন্দর। ব্র্যান্ডন কিং (১৩), ড্যারেন ব্র্যাভোকে (১৮) ফিরিয়ে দিয়ে ক্যারিবিয়ানদের বিপাকে ফেলে দেন সুন্দর।

এরপর যুজবেন্দ্র চাহালের স্পিন ঘূর্ণি। এক ওভারে নিকোলাস পুরান (১৮) ও কাইরন পোলার্ডকে (০) ফিরিয়ে দেন। এভাবে নিয়মিত উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তবে অষ্টম উইকেটে ফ্যাবিয়ান অ্যালেনকে সঙ্গে নিয়ে দলকে চাপের মুখ থেকে মোটামুটি একটা রানে পৌঁছে দেন জেসন হোল্ডার। এই দু’য়ের জুটিতে যোগ হয় ৭৮ রান।

অ্যালেন ব্যক্তিগত ২৭ রানে ফিরে গেলে অর্ধশত রান ছুঁয়েছেন হোল্ডার। তবে ব্যক্তিগত ৫৭ রানের মাথায় প্রসিধ কৃষ্ণা পান্টের হাতে ক্যাচ বানিয়ে ফেরান হোল্ডারকে।  তবে কাজে এল না হোল্ডারের লড়াই। নির্ধারিত ওভারের আগেই ১৭৬ রানে থামে সফরকারী দলের ইনিংস।

ভারতের হয়ে বল হাতে সর্বোচ্চ ৪টি উইকেট শিকার করেন যুজবেন্দ্র চাহাল। এছাড়া ৩টি উইকেট পেয়েছেন ওয়াশিংটন সুন্দর। ২টি উইকেট নেন প্রসিধ কৃষ্ণা এবং ১টি উইকেট পেয়েছেন মোহাম্মদ সিরাজ।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে শুরু থেকেই ছন্দে ছিলেন অধিনায়ক রোহিত শর্মা। ঈশান কিষাণের সঙ্গে রোহিতের ওপেনিং জুটিতেই আসে ৮৪ রান। রোহিত ৬০ রানের ইনিংস খেলে আলজারি জোসেফের শিকার হয়ে ফেরেন প্যাভিলিয়নে। ইনিংস সাজানো ছিল ১০টি চার ও ১টি ছয় দিয়ে। আলজারি জোসেফ ভারতের ৮৪ রানের মাথায় রোহিতকে ফেরান। তিনে নামা ভিরাট কোহলি মাত্র ৪ বল খেলেই উইকেট দিয়ে বসেন সেই জোসেফের বলেই।

এক ওভারে দুই ব্যাটসম্যানকে ফিরিয়ে উইন্ডিজ শিবিরে স্বস্তি এনে দেন পেসার আলজারি জোসেফ। এরপর বেশিক্ষণ ক্রিজে থাকতে পারেননি ঈশান কিশাণও। ব্যক্তিগত ২৮ রানে সাজঘরে ফেরেন তিনি। রিশাব পান্ট ১১ রানের মাথায় দুর্ভাগ্যবশত রান আউটের শিকার হন।

এরপর ভারতের ইনিংসের হাল ধরেন সুরিয়াকুমার যাদব এবং অভিষেক ম্যাচ খেলতে নামা দীপক হুদা। ঐতিহাসিক ম্যাচে ভারতের জার্সিতে অভিষেক হল দীপক হুদার। এবং এই জুটিই শেষ পর্যন্ত দলকে টেনে নিয়ে ৬ উইকেটের জয় নিশ্চিত করল; বাকি ছিল ২২ ওভার। অভিষেক ম্যাচে ২৬ রানে অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়লেন দীপক হুদা। সুরিয়াকুমার যাদব অপরাজিত ছিলেন ৩৪ রানে।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

গেইলকে দলের বোঝা মানলেও এখনো আশাবাদী ফরচুন বরিশাল

Read Next

বাবর আজমদের আরও এক পরাজয়

Total
1
Share