পারিশ্রমিক ইস্যুতে বিতর্ক, তাসকিন বলছেন জয় ভাই অমায়িক মানুষ

পারিশ্রমিক ইস্যুতে বিতর্ক, তাসকিন বলছেন জয় ভাই অমায়িক মানুষ
Vinkmag ad

বিপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি সিলেট সানরাইজার্সে সরাসরি চুক্তিতে অন্তর্ভূক্ত হন তাসকিন আহমেদ। টুর্নামেন্ট চলাকালীন গতকাল (৩১ জানুয়ারি) সংবাদ মাধ্যমের শিরোনাম তাসকিন, নিয়মের বাইরে পুরো পারিশ্রমিক চেয়ে না খেলার হুমকিও নাকি দিয়েছেন মালিকপক্ষকে।

যদিও বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের মধ্যস্থতায় সমঝোতা হয়েছে। তবে তাসকিন নিজে বলছেন মালিকপক্ষের সাথে কোনো বিবাদ হয়নি, যা হয়েছে তা যোগাযোগের ঘাটতিতে। এমনকি সিলেট সানরাইজার্সের মালিক শেখ কুদরত-ই ইবতিহাজ জয়কে অমায়িক মানুষ বলেও উল্লেখ করেন জাতীয় দলের অন্যতম তারকা এই পেসার।

আজ (১ ফেব্রুয়ারি) মিরপুরে সলীয় অনুশীলন শেষে সংবাদ মাধ্যমের সাথে আলাপে তাসকিন বলেন, ‘আসলে সত্যি কথা হলো বায়ো-বাবল তো অনেক সময় মালিকরা টিম হোটেলে থাকেনা। আর জয় ভাই খুবই অমায়িক মানুষ। তার সাথে আমাদের সবারই বোঝাপড়া অনেক ভালো। কেবল একটা মিসকমিউনিকেশন। আমি কয়েক বার ফোন করেছিলাম, ভাইয়া কোনোভাবে মিস করেছে। তখন আসলে দেরি হয়ে গিয়েছিলো। আমার আসলে জানার কৌতুহল ছিলো…।

‘আমি ভেবেছি আমি যেহেতু সরাসরি চুক্তি করেছি, আমার পেমেন্টটা টুর্নামেন্টের আগে ক্লিয়ার হবে। তো আসলে আমি কয়েকবার ফোন করায় আর উনিও ব্যস্ত থাকায়, রিপ্লাই দিতে দেরি হওয়ায়…। পরে আবার আমাদের সাথে ফোন করে কথা হয়েছে, প্রসিডিউর অনুসারেই আমার পেমেন্ট ও সব কিছু ক্লিয়ার হবে। এটা আসলে আমি জানতাম না, পরে কথা হয়েছে। সব ঠিক আছে, আমাদের মাঝে কোনো বিবেদ বা কিছুই হয়নি।’

নিয়ম অনুসারে টুর্নামেন্ট শুরু আগে ৬০ শতাংশ ও দুই কিস্তিতে টুর্নামেন্ট চলাকালীন বাকি ৪০ শতাংশ পারিশ্রমিক পরিশোধ হওয়ার কথা। সেখানে তাসকিন সিলেট সানরাইজার্সের কাছ থেকে ইতোমধ্যে পেয়ে গেছেন ৭০ শতাংশ। তাসকিন ভেবেছিলেন যেহেতু সে সরাসরি চুক্তিবদ্ধ সেহেতু পারিশ্রিমিকের পুরোটা টুর্নামেন্ট শুরু আগেই পাবেন। আর এ কারণেই কিছুটা ভুল বোঝাবুঝি, যা বর্তমানে পরিষ্কার হয়েছেন এই গতি তারকা।

তিনি বলেন, ‘আসলে আমার সাথে তেমন কিছুই হয়নি। আমার সাথে জয় ভাইয়ের কোনো ক্ল্যাশ বা এরকম কিছু হয়নি। এটা আসলে একটা মিস কমিউনিকেশন ছিলো। আমাদের কথা ছিলো ক্লিয়ার হওয়ার কথা। আমি আসলে ভেবেছিলাম আমার পারিশ্রমিকটা খেলা শেষ হওয়ার আগেই পুরোটা ক্লিয়ার হবে। আসলে একটা প্রসিডিউর আছে, সে প্রসিডিউর অনুযায়ী ক্লিয়ার হবে।’

‘এখানেই একটা মিস কমিউনিকেশন হয়েছে, এটা ক্ল্যাশের বিষয় না। এটা নিউজেরও বিষয় না, আমি মনে করি। জয় ভাইয়ের সাথে আমার কথা হয়েছে এবং বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল থেকেও বলা আছে টাকাটা আমি প্রসিডিউর অনুসারে পাবো। এটা জানার জন্যই আসলে ফোন করা হয়েছে। আমার সাথে আমাদের দলের মালিক বা অন্য কারও সাথে কোনো ক্ল্যাশ নাই।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

রিয়াদের অধিনায়কোচিত ইনিংসে ঢাকার বড় জয়

Read Next

বিশ্বকাপে জাহানারাকে পেয়ে উচ্ছ্বসিত নিগার সুলতানা

Total
10
Share