৪ ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ নেদারল্যান্ডস পেসার কিংমা

৪ ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ নেদারল্যান্ডস পেসার কিংমা
Vinkmag ad

নেদারল্যান্ডসের ফাস্ট বোলার ভিভিয়ান কিংমা চার ওয়ানডে/টি-টোয়েন্টি ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন। আইসিসির কোড অব কন্ডাক্ট (লেভেল ৩) ভঙ্গ করে এই নিষেধাজ্ঞার কবলে পড়েছেন তিনি।

মঙ্গলবার দোহায় আইসিসি মেন্স ক্রিকেট ওয়ার্ল্ড কাপ সুপার লিগে আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচে আইসিসির কোড অব কন্ডাক্ট ভাঙেন ভিভিয়ান কিংমা।

কোড অব কন্ডাক্টের অনুচ্ছেদ নম্বর ২.১৪ ভঙ্গ করেন কিংমা। যেখানে স্পষ্ট বলা আছে আইসিসির স্বীকৃত টেস্ট বা ওয়ানডে বা টি-টোয়েন্টি ম্যাচে বলের কন্ডিশন বদলানোর চেষ্টা (বল টেম্পারিং) করা যাবে না।

বল টেম্পারিংয়ের কারণে কেবল ম্যাচ নিষেধাজ্ঞা ই পাচ্ছেন না কিংমা। তার ডিসিপ্লিনারি রেকর্ডে যুক্ত হয়েছে ৫ ডিমেরিট পয়েন্ট। ২৪ মাস সময়ে এটি কিংমার প্রথম নিয়ম ভঙ্গ করার অভিযোগ।

ঘটনাটি ঘটে আফগানিস্তানের ইনিংসের ৩১ তম ওভারে। যেখানে ভিভিয়ান কিংমা নিজের নখ দিয়ে বলের অবস্থা পরিবর্তন করেন।

অনফিল্ড আম্পায়ার আহমেদ শাহ পাক্তিন ও আহমেদ শাহ দুরানি, তৃতীয় আম্পায়ার বিসমিল্লা জান শিনওয়ারি ও চতুর্থ আম্পায়ার ইজাতউল্লাহ শাফি কিংমার বিরুদ্ধে অভিযোগ আনেন। যা আমলে নিয়ে শাস্তি দেন ম্যাচ রেফারি ওয়েন্ডেল লা বুরি।

অভিযোগ স্বীকার করে শাস্তি মেনে নিয়েছেন কিংমা। তাই এই ঘটনার জেরে শুনানির দরকার পড়েনি। ওয়ানডে বা টি-টোয়েন্টি যে ফরম্যাটেই নেদারল্যান্ডস পরবর্তীতে খেলবে সেখানে ৪ ম্যাচ মাঠের বাইরেই থাকতে হবে কিংমাকে।

আইসিসি কোড অব কন্ডাক্ট (লেভেল ৩) ভঙ্গ করার শাস্তি ৪ থেকে ১২ সাসপেনশন পয়েন্ট, সাথে ৫ বা ৬ ডিমেরিট পয়েন্ট।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

টি-টোয়েন্টি র‍্যাংকিংয়ে রয়-কিংদের উন্নতি

Read Next

অবসরের ঘোষণা দিলেন দিলরুয়ান পেরেরা

Total
28
Share