যাকে ইচ্ছে তাকে তাকে নিতে পারা দল নিয়ে উপভোগের খোঁজে তামিমরা

তামিম ইকবাল

বিপিএল ড্রাফটের আগের রাতেও নিশ্চিত ছিলো না একটি দলের মালিকানা। ঠিক তেমনি মাশরাফি বিন মর্তুজা, তামিম ইকবাল ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দলও ঠিক ছিলো না। সরাসরি চুক্তিতে তাদের কাউকেই যে দলে ভেড়ায়নি ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো। পরে অবশ্য জানা যায় রিয়াদের সাথে চুক্তি করেছে ঢাকা, আজ (২৭ ডিসেম্বর) ড্রাফট থেকে দলটি বেছে নেয় তামিম, মাশরাফিকেও। তামিম বলছেন তারা ৩ জন এক দলে খেলবেন এমন আশা করেননি, তবে এখন সেই সুযোগ তৈরি হয়েছে বলে টুর্নামেন্ট উপভোগ করতে মুখিয়ে আছেন।

ঢাকার মালিকানা পাওয়ার কথা ছিলো রুপা ও মার্ন গ্রুপের। কিন্তু নির্ধারিত সময়ে গ্যারান্টি মানি জমা দিতে না পারায় শেষ মুহূর্তে তাদের মালিকানা বাদ হয়। আর দলের নিয়ন্ত্রণ নেয় বোর্ড নিজেই, যদিও পরবর্তীতে স্পন্সর কিংবা মালিকানা হস্তান্তরের পথে হাঁটতে পারে বিসিবি।

আগের রাতে সরাসরি চুক্তিতে রিয়াদকে অন্তর্ভূক্ত করার পর আজ প্লেয়ার্স ড্রাফটে তারা কিনে নেয় তামিম ও মাশরাফিকে। এই ৩ জন ছাড়াও বেশ ভালো দলই গড়েছে ঢাকা, প্লেয়ার্স ড্রাফটে উপস্থিত ছিলেন রিয়াদ ও তামিম। তাদের সাথে ছিলেন নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন ও ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের ডেপুটি ম্যানেজার শাহরিয়ার নাফিস।

তামিম বলছেন বোর্ড শেষ মুহূর্তে দল নিজেদের হাতে নিলেও তামিমদের দিয়েছেন নিজেদের মতো দল গড়ার স্বাধীনতা।

এ নিয়ে তামিম বলেন, ‘আমি কিছু খেলোয়াড় সাজেস্ট করেছি, রিয়াদ ভাই কিছু সাজেস্ট করেছে, সুমন ভাই সাজেস্ট করেছে, যেগুলোকে আমরা নিয়েছি। কিন্তু সবার শেষ কথা বিসিবিকে ধন্যবাদ দিতে হয়। শেষ মুহূর্তে এসে উনারা টেক ওভার করেছে। আমাদের বলা হয়েছিল যাকে ইচ্ছে নিতে পারবো। সাধারণত এমন সময় হয় যে এত বাজেট, এর বেশি খরচ করা যাবে না। বিসিবি এই জায়গায় ব্রিলিয়্যান্ট ছিল। সব বোর্ড পরিচালক বলেছে যাকে ইচ্ছে নাও।’

রিয়াদ, মাশরাফির সাথে একই দলে খেলা প্রসঙ্গে তামিম যোগ করেন, ‘এরকম তো প্রত্যাশা করা যায় না আসলে। সাধারণ যেটা হয় আমরা তিনজন তিন টিমে থাকি। এবার সৌভাগ্যবশত হয়েছে, খুব খুশি। আমার মনে হয় ক্রিকেটে জেতা হারাটা তো সব না। ক্রিকেটে উপভোগ করাটা খুব গুরুত্বপূর্ণ।’

‘যদি উপভোগ না থাকে। বিশ্বের যে কাউকেই জিজ্ঞেস করেন যদি তারা উপভোগ না করে তারা খেলবে না। আমরা তিনজন একসঙ্গে থাকলে এমনিতেই উপভোগ করবো।’

‘চ্যাম্পিয়ন হবো কি হবো না এটা অনেক পরের কথা। আপনি সেরা টিমটা বানাতে পারেন, কিন্তু তারা ভালো করবে কি না সেটা প্রয়োজনীয় না। একটা খুব বেশি ভালো না টিমও ভালো করতে পারে। ডিফেন্ড করবে আমরা কীভাবে খেলি। এটার ওপর নির্ভর করে। টিম নিয়ে অনেক খুশি, কিন্তু আমাদের ভালো খেলতে হবে।’

ঢাকা স্কোয়াড- 

মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, ইসুরু উদানা, নাজিবউল্লাহ জাদরান, কায়েস আহমেদ, তামিম ইকবাল, রুবেল হোসেন, মাশরাফি বিন মর্তুজা, শুভাগত হোম, মোহাম্মদ শেহজাদ, ফজলে হক ফারুকি, নাইম শেখ, আরাফাত সানি, ইমরানুজ্জামান, শফিউল ইসলাম, জহুরুল ইসলাম, শামসুর রহমান, এবাদত হোসেন।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

তামিমের সাথে সম্পর্ক নিয়ে যা বলছেন মাহমুদউল্লাহ

Read Next

মূল ম্যাচের ভেন্যুর পাশেই প্রস্তুতি ম্যাচ, কন্ডিশন বুঝতে কাজে দিবে বলছেন আব্দুর রাজ্জাক

Total
1
Share