লেগ স্পিনার ইস্যুতে পাপনকে দেওয়া কথা রাখছে না কেউই

জুবায়ের হোসেন লিখন আমিনুল ইসলাম বিপ্লব রিশাদ হোসেন
Vinkmag ad

একজন লেগ স্পিনার দলে কতটা বোলিং বৈচিত্র তৈরি করতে পারে তা টুকটাক ক্রিকেটের খোঁজ খবর রাখাদেরও ভালোই জানা। তবে অদ্ভুত এক অজানা কারণে বাংলাদেশ ক্রিকেটে লেগ স্পিনারদের অবহেলা নতুন কিছু নয়। স্কোয়াডে অন্তর্ভূক্ত করা হলেও খেলানো হয়না ম্যাচে। দফায় দফায় অবশ্য আশার বাণী শুনিয়েছেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। অথচ চলমান বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগেও (বিসিএল) তার বাস্তবায়ন দেখা যাচ্ছে না, এসবের উত্তর নেই পাপনের কাছেও।

লেগ স্পিনার খুঁজে বের করতে এবং তাদের পর্যাপ্ত সুযোগ দিতে বিসিবি বেশ কয়েকবারই কিছু উদ্যোগের কথা শুনিয়েছিলো। ২০১৯ সালে তো জাতীয় ক্রিকেট লিগে (এনসিএল) একজন লেগ স্পিনার খেলানো বাধ্যতামূলকও করেছিলো। এমনকি লেগ স্পিনার না খেলানোয় ঢাকা ও রংপুর বিভাগের কোচকে বরখাস্তও করা হয়েছিলো।

কিন্তু সময়ের স্রোতে সেসব হারিয়ে গেছে নিমিষেই। পরের আসরগুলোতে নিয়ম কানুনই উঠে গিয়েছিলো। লঙ্গার ভার্সনের এনসিএল হোক কিংবা বিসিএল লেগ স্পিনাররা থেকে যাচ্ছেন আড়ালেই। দলে ভেড়ানো হলেও একাদশে তাদের জায়গা পাওয়া হয়ে পড়েছে সোনার হরিণ।

বেশি দূরে নয় এবারের বিসিএলে বিসিবিরই আছে দুইটি দল। যেখানে ফলাফল বোর্ডের জন্য কোনো বিষয়ই হওয়ার কথা নয়। সেই দুই দলের একটি বিসিবি সাউথ জোনে নেই কোনো লেগ স্পিনার, বিসিবি নর্থ জোনে অবশ্য আছেন তানবীর হায়দার ও আমিনুল ইসলাম বিপ্লব। দুজনে প্রথম রাউন্ডে খেললেও নেই দ্বিতীয় রাউন্ডে।

প্রথম রাউন্ডে ওয়ালট সেন্ট্রাল জোনের বিপক্ষে একমাত্র ইনিংসে পুরো দল বল করেছে ১৩০.১ ওভার তবে তানবীর-বিপ্লব সাকূল্যে বল করেছেন মাত্র ১৫ ওভার (বিপ্লব ১১, তানবীর ৪)। তবে অন্য দুই দল ওয়ালটন সেন্ট্রাল জোন ও ইসলামী ব্যাংক ইস্ট জোনের স্কোয়াডেই নেই কোনো স্বীকৃত লেগ স্পিনার।

অথচ জুবায়ের হোসেন লিখন, মিনহাজুল ইসলাম আফ্রিদি, রিশাদ হোসেনদের নিয়ে স্বপ্নের সীমা ছড়িয়ে ছিলো অনেক দূর। বিসিএলের আগে সর্বশেষ এনসিএলেও খেলা হয়নি এই ৩ লেগির। বয়স ভিত্তিক ক্রিকেটে লেগ স্পিনার গড়ে তোলার মঞ্চ ভাবা হলেও সেখানেও নেই লেগ স্পিনারদের প্রাধান্য। যুব বিশ্বকাপের গত আসরের মতো এবারের আসরেও নেই কোনো লেগ স্পিনার।

আজ (২২ ডিসেম্বর) মিরপুরে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনকে আরেক দফা লেগ স্পিনার নিয়ে প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হয়। তবে এবার তার মুখে নেই যথাযথ কোনো উত্তর। যদিও বিশেষ আয়োজন করার আশা দেখিয়েছেন আরেক বার।

তিনি বলেন,

‘এই জিনিসটা গত তিন-চার বছর ধরে বলে আসছি। বিসিএলেও খেলায় না। বিপিএলেও খেলায় না কোনো খেলাতেই খেলায় না। কোনোভাবেই এটা সমর্থনযোগ্য নয়। একটা সময় ছিল আমাদের লেগ স্পিনার ছিল না কিন্তু এখন আছে। তাদেরকে যদি অন্তর্ভূক্ত করতে (জাতীয় দলে) হয় তাদেরকে ম্যাচ খেলতে দিতে হবে। খেলতে খেলতেই তারা ভালো হবে, এটা হলো স্বীকৃত পদ্ধতি। আমরা শুধু লেগ স্পিনার না আরও কয়েকটা জায়গায় বিশেষ আয়োজনের কথা ভাবছি।’

‘কিন্তু আমাকে বলা হয়েছিল খেলানো হবে। এটা আপনাদের কাছে এখন শুনলাম যে খেলানো হয় নাই (বিসিএলে)। তবে এটুকু আপনাদের বলতে পারি খেলবে..এইবারই হবে কিনা জানিনা তবে খুব শিগগিরই তাদের খেলানো হবে।’

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

বণ্টন না হওয়া পদে আকরামের পদত্যাগ, যা বলছেন পাপন

Read Next

সাকিবের কণ্ঠে কামব্যাকের আভাস, ব্যাটসম্যানদের দিলেন টোটকা

Total
11
Share