বিতর্কিত ডেড বল, নিজেকে নির্দোষ দাবি নওয়াজের

c371af6d 7d47 4cb8 b773 b33afcff0ced

রোমাঞ্চ ছড়ানো ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে তৃতীয় টি-টোয়েন্টি হেরেছে বাংলাদেশ। যেখানে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের করা শেষ বলে মোহাম্মদ নওয়াজের স্টাম্প ছেড়ে দেওয়া কান্ড বিতর্কের সৃষ্টি করেছে। নওয়াজ নিজে অবশ্য বলছেন অপকৌশল নয়, গার্ড ঠিক করতে গিয়েই বল ডেলিভারি হওয়া খেয়াল করেননি।

শেষ ওভারে পাকিস্তানের প্রয়োজন ছিলো ৮ রান। পুরো ইনিংসে বল না করা রিয়াদই আসেন আক্রমণে। ওভারের প্রথম বলে ডট দিয়ে দ্বিতীয় বলেই তুলে নেন সরফরাজ আহমেদকে (১২ বলে ৬)।

পরের বলে সেট ব্যাটার হায়দার আলিকেও (৩৮ বলে ৪৫) লং অনে ক্যাচে পরিণত করেন টাইগার দলপতি। নতুন ব্যাটার ইফতিখার আহমেদ চতুর্থ বলে ছক্কা হাঁকান, আউট হন পরের বলেই।

শেষ বলে প্রয়োজন ২, রিয়াদ বল ছুঁড়েও ফেলেন, পিচ হওয়ার পরই স্টান্স ছেড়ে বের হন নওয়াজ। বল ততক্ষণে স্টাম্পে, নিয়মানুসারে আউটই হওয়ার কথা।

কিন্তু আম্পায়ার বল ডেড ঘোষণা করেন। বল পিচ হওয়ার পর এমন কান্ডে বিতর্ক থেকেই যায়। স্পষ্ট অপকৌশলের আশ্রয় নেন নওয়াজ। এ নিয়ে কোনো বাগ বিতন্ডায় যাননি রিয়াদ। মেনে নেন সিদ্ধান্ত , পরের বলেই চার মেরে দলের ৫ উইকেটের জয় নিশ্চিত করেন নওয়াজ।

তবে নওয়াজ ম্যাচ শেষে নিজেকে নির্দোষ দাবি করছেন, ‘আমি আমার গার্ড নিচ্ছিলাম আর বোলারের দিকে খেয়াল করিনি, আর এমন অবস্থাতেই সে বল ডেলিভারি করে দিলো। যখন আমি তাকিয়েছি ততক্ষণে বল অর্ধেক পথ অতিক্রম করে ফেলেছে এবং আমি সাথে সাথে সরে যাই।’

এদিকে শেষ বলে ২ রান প্রয়োজন হলেও নওয়াজ ও নন স্ট্রাইক প্রান্তে থাকা খুশদিল শাহের সাথে কি কথা হচ্ছিলো সেটাও জানান নওয়াজ।

নওয়াজ যোগ করেন, ‘আমি নন স্ট্রাইকার প্রান্তের ব্যাটারের সাথে আলাপ করেছি যে আমাদের সিঙ্গেল নেওয়ার দিকে মনযোগ দেওয়া উচিৎ যাতে ম্যাচটা অন্তত টাই হয়। কিন্তু আমার নিজের মনে ঘুরছিলো অন্য কিছু, গ্যাপ পেলে সেটাকে বাউন্ডারিতে পরিণত করতে চাচ্ছিলাম।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

২৯ বছর পর আইসিসির ইভেন্ট পাকিস্তানে

Read Next

বৃষ্টিতে ভেস্তে গেল গল টেস্টের তৃতীয় দিন

Total
1
Share