যেভাবে চেয়েছেন সেভাবেই হয়েছে, পাকিস্তান বধের পর বলছেন জ্যোতি

যেভাবে চেয়েছেন সেভাবেই হয়েছে, পাকিস্তান বধের পর বলছেন জ্যোতি

পাকিস্তান নারী দলের বিপক্ষে রোমাঞ্চকর এক জয়ে নারী ওয়ানডে বিশ্বকাপ বাছাই পর্ব শুরু করেছে বাংলাদেশ নারী দল। রুমানা আহমেদের অসাধারণ এক ফিফটিতে হারতে বসা ম্যাচও বাগিয়ে নিয়েছে টাইগ্রেসরা। ম্যাচ শেষে অধিনায়ক নিগার সুলতানা জ্যোতি জানালেন ঠিক এভাবেই টুর্নামেন্ট শুরু করতে চেয়েছেন। নৈপথ্যে রেখেছেন দিন কয়েক আগে জিম্বাবুয়েকে ঘরের মাঠে ৩-০ ব্যবধানে সিরিজ হারানোকে।

যেকোনো গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্টের আগেই জয়ের অভ্যাস খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বিশ্বকাপ বাছায় পর্ব জিম্বাবুয়েতে বলে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) দুই সপ্তাহ আগেই নারীদের সেখানে পাঠায়।

অনুশীলন ক্যাম্পের পাশাপাশি স্বাগতিক জিম্বাবুয়ে নারী দলের বিপক্ষে ৩ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ আয়োজন করে। যেখানে পাত্তাই পায়নি স্বাগতিকরা, সালমা খাতুন, জাহানারা আলমরা ৩ ম্যাচেই জিতেছে বড় ব্যবধানে।

যার ফলই বলা যায় আজকের পাকিস্তান ম্যাচ। যদিও ব্যাটিং, বোলিং দুই ইনিংসেই টাইগ্রেসরা খেই হারিয়ে আবার পথ খুঁজে নিয়েছে।

শুরুতে ৪৯ রানেই পাকিস্তানের ৫ উইকেট তুলে নেয়। কিন্তু পরে আলগা বোলিংয়ে নিদা দার ও আলিয়া রিয়াজের ১৩৭ রানের জুটিতে ২০০ পার করে পাকিস্তান।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে শুরুতে ধীর গতির ব্যাটিং , মাঝে ব্যাটারদের ধস, ১৬০ রানেই নেই ৭ উইকেট। শেষ ১০ ওভারে প্রয়োজন পড়ে ৮৯!

এমন ম্যাচই রুমানার ৪৪ বলে অপরাজিত ৫০ ও সালমা খাতুনের ১৩ বলে অপরাজিত ১৮ রানে ৩ উইকেটে জিতে নেয় বাংলাদেশ নারী দল।

ম্যাচ শেষে অধিনায়ক নিগার সুলতানা জ্যোতি জানান এমন ভালো শুরুই চেয়েছিলেন।

তিনি বলেন, ‘অবশ্যই এটা সবসময়ই গুরুত্বপূর্ণ, জয় দিয়ে গ্রুপ পর্ব শুরু করা। আমরা আজ সেরকম ভালো একটা জয়ই পেয়েছি। আশা করছি টুর্নামেন্ট জুড়ে এই পারফরম্যান্স টেনে নিতে পারবো। আমাদের একটা ভালো শুরু দরকার ছিলো, আমরা সেটা খুব ভালোভাবেই করতে পেরেছি।’

এমন সাফল্যের নৈপথ্যে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজ জয়কে সামনে আনেন জ্যোতি, ‘জয়ের অভ্যাস খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এখানে আমরা প্রায় দুই সপ্তাহ ধরে আছি এবং অনুশীলন করছি। এর বাইরে দেশেও আমরা কঠোর পরিশ্রম করেছি এখানে ভালো করার জন্য। প্রকৃতপক্ষে আমাদের ব্যাটার ও বোলাররা দারুণ পারফরম্যান্স করেছে।’

তবে নিজেদের উন্নতির জায়গাও সহজে চিহ্নিত করেছে বাংলাদেশ দলপতি, ‘আপনি দেখেছেন শুরুতে আমাদের বোলাররা দ্রুতই ৫ উইকেট তুলে নেয়। কিন্তু এরপরই তারা একটা দুর্দান্ত জুটি গড়ে ফেলে। আমরা আসলে এ জায়গাটাতে কাজ করতে চাই।’

উল্লেখ্য, নারী ওয়ানডে বিশ্বকাপ বাছাইয়ে বাংলাদেশ খেলছে ‘বি’ গ্রুপে। যেখানে পাকিস্তান ছাড়াও তাদের প্রতিপক্ষ থাইল্যান্ড, যুক্তরাষ্ট্র ও স্বাগতিক জিম্বাবুয়ে। পাকিস্তান বধের পর প্রতিপক্ষ বিবেচনায় বলাই যায় বিশ্বকাপের স্বপ্নের সিঁড়িতে বাংলাদেশ এক ধাপ এগিয়ে গেলো।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

রুমানা ঝলকে পাকিস্তানকে হারিয়ে বিশ্বকাপের পথে বাংলাদেশ

Read Next

ফজলে মাহমুদের সেঞ্চুরি হাঁকানোর দিনে মাহমুদুলের আক্ষেপ

Total
7
Share