এক দিনে দুই হ্যাটট্রিক দেখল এনসিএল

featured photo updated 5

২৩তম বঙ্গবন্ধু জাতীয় ক্রিকেট লিগের (এনসিএল) টায়ার-২ এর ম্যাচে চট্টগ্রামে বল হাতে ঝলক দেখালেন বরিশালের মোহাম্মদ আশরাফুল, হ্যাটট্রিক সহ শিকার করেন পাঁচ উইকেট। কক্সবাজারে মোহাম্মদ শরিফউল্লাহর বাজিমাত; হ্যাটট্রিক সহ তাঁরও শিকার পাঁচ উইকেট। এনসিএল দেখল এক দিনে দুই হ্যাটট্রিক!

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে প্রথম দিনই চট্টগ্রাম বিভাগের বিপক্ষে আগে ব্যাট করে ১৪৬ রানে গুটিয়ে যায় বরিশাল বিভাগ। জবাবে আশরাফুল ও মনিরের বোলিং তোপের সামনে পড়ে মাত্র ৮৭ রানেই শেষ হয়ে যায় চট্টগ্রামের ইনিংস। আশরাফুলের পাঁচ উইকেট শিকারের দিন মনির হোসেনও নেন পাঁচ উইকেট।

টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ইনিংসের প্রথম ওভারেই উইকেট হারান ওপেনার মইনুল ইসলাম (০)। ফের ব্যর্থ মোহাম্মদ আশরাফুল; মাত্র ৪ রানে রেখে আশরাফুলকে বিদায় করেন নাইম হাসান। অধিনায়ক ফজলে মাহমুদ রাব্বির ব্যাট থেকে আসে ১২ রান।

এক পর্যায়ে ৩২ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলা বরিশালকে টেনে তুলে স্বস্তি ফেরান রাফসান আল মাহমুদ ও মইন খান। এই দুই মিডল অর্ডারের ব্যাট থেকে আসে শতরানের জুটি। তবে ব্যক্তিগত ৪৫ রানে মইন আউট হলে ভাঙে জুটি। মইনের ফিফটি না হলেও অর্ধশত পূর্ণ করেন রাফসান আল মাহমুদ।

৬০ রানের ইনিংস খেলে রাফসান প্যাভিলিয়নে ফিরলে শেষ হয়ে যায় বরিশালের বড় সংগ্রহের আশা। ১৪৬ রানে প্রথম ইনিংসে থামে বরিশাল।

বল হাতে সফল হাসান মুরাদ; ২৬ রান খরচায় নেন ৫ উইকেট। এছাড়া নাইম হাসান দখলে নেন ৪টি উইকেট।

জবাবে মোহাম্মদ আশরাফুল ও মনির হোসেনের স্পিন বিষে নীল চট্টগ্রামের ব্যাটসম্যানরা। দুই অঙ্কের ঘরে পৌঁছাতে পারেন কেবল ৪ ব্যাটসম্যান। দুই ওপেনার পারভেজ হোসেন ইমন ১৭ ও সাদিকুর রহমান আউট হন ১১ রানে। এছাড়া শাহাদত হোসেন দিপু ১৪ ও ইরফান শুক্কুরের ব্যাট থেকে আসে ২০ রান।

ইনিংসের শুরুতেই আশরাফুলের বোলিং ঝলক। ৮তম ওভারের শেষ তিন বলে তিন উইকেট নিয়ে হ্যাটট্রিক করেন আশরাফুল। এছাড়া চট্টগ্রামের প্রথম চার ব্যাটসম্যানেরর চারটিই পকেটে নেন আশরাফুল।

আশরাফুলের পাশাপাশি মনির হোসেনের বোলিং নৈপুন্য। তার দখলে শেষের পাঁচ ব্যাটসম্যান। শেষে মেহেদী হাসান রানার উইকেট নিয়ে পাঁচ উইকেট পূর্ণ করেন মোহাম্মদ আশরাফুল। মাত্র ৮৭ রানে অলআউট হয়ে যায় চট্টগ্রাম।

মাত্র ১৫ রান খরচায় ৫ উইকেট নেন মনির হোসেন। এছাড়া মোহাম্মদ আশরাফুল দখলে নেন ৫৩ রান খরচায় ৫ উইকেট।

৫৯ রানে এগিয়ে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করবে বরিশাল বিভাগ।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ (বরিশাল-চট্টগ্রাম)

বরিশালঃ ১৪৬/১০ (৫৮.৩ ওভার) আশরাফুল ৪, রাফসান ৬০, মইন ৪৫, রাব্বি ১২; মুরাদ ৫/২৬, নাইম ৪/৪৫, রানা ১/৩৯

চট্টগ্রামঃ ৮৭/১০ (২৯.৩ ওভার) ইমন ১৭, সাদিকুর ১১, দিপু ১৪, ইরফান ২০; মনির ৫/১৫, আশরাফুল ৫/৫৩

অপর ম্যাচে কক্সবাজার অ্যাকাডেমি গ্রাউন্ডে টস জিতে ঢাকা মেট্রোর বিপক্ষে আগে ব্যাট করে ২৫২ রানে থামে রাজশাহীর প্রথম ইনিংস। ওপেনার জহুরুল ইসলাম (২) রান না পেলেও তিনে নামা নাজমুল হোসেন শান্তর সঙ্গে জুটি গড়ে দলকে এগিয়ে নিয়ে যান ওপেনার তানজিদ হাসান তামিম।

ফিফটির দেখা পান দুজনই। তবে তানজিদ তামিম আউট হন ৭৭ রানের ইনিংস খেলে। শান্তর ব্যাট থেকে আসে ৬৭ রান। মাঝে জুনায়েদ সিদ্দিকির ব্যাটে আসে ৩৯ রান। শেষদিকে প্রিতম কুমার ৩৮ রান করলে ২৫০ রানে গন্ডি পার করে রাজশাহী।

৮৩তম ওভারে ৩ বলে ৩ উইকেট নিয়ে হ্যাটট্রিক করেন ঢাকা মেট্রোর মোহাম্মদ শরিফউল্লাহ। সঙ্গে পাঁচ উইকেট পূর্ণ হয় শরিফউল্লাহর। এছাড়া রাকিবুল হাসানের দখলে যায় ৩ উইকেট।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ (রাজশাহী-ঢাকা মেট্রো)

রাজশাহীঃ ২৫২/১০ (৮২.৫ ওভার) তামিম ৭৭, শান্ত ৬৭, জুনায়েদ ৩৯, প্রিতম ৩৮; রাকিবুল ৩/৬৪, রনি ১/২৮, শরিফউল্লাহ ৫/৭০, আল-আমিন ১/৩৬

ঢাকা মেট্রোঃ ৩/০ (৫ ওভার) সাদমান ২*, রাকিন ১*।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

নাইম-মুশফিকের ব্যাটে টাইগারদের লড়াকু সংগ্রহ

Read Next

ক্যাচ মিসের মাশুল দিয়ে হারল বাংলাদেশ

Total
23
Share