আইসিসির চোখে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেরা ‘১০’ ক্রিকেটার

আইসিসির চোখে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেরা '১০' ক্রিকেটার

একজন ক্রিকেটারের বড় ক্রিকেটার হয়ে ওঠার পেছনে বড় ভূমিকা রাখে বড় মঞ্চে পারফর্ম করা। টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের জন্য সবচেয়ে বড় মঞ্চ নিশ্চিতভাবেই আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ।

গেল ছয় বারের আসরে বেশ কিছু ব্যক্তিগত পারফরম্যান্স হয়েছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে। ২০০৭ থেকে এখন অব্দি বিশ্বকাপে পারফর্ম করা ক্রিকেটাররাই খেলাটির সেরা পারফর্মার।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ২০২১ কে সামনে রেখে আইসিসি ১০ জন ক্রিকেটারের নাম জানিয়েছে যারা কিনা এই টুর্নামেন্টে নিজেদের পারফরম্যান্স দিয়ে নজর কেড়েছেন।

World T20: Shahid Afridi stars in Pakistan's comfortable win over Bangladesh

১. শহীদ আফ্রিদি (পাকিস্তান)- ৩৪ ম্যাচে ৫৪৬ রান, ৩৯ উইকেট

পাকিস্তানের শহীদ আফ্রিদি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ইতিহাসে সর্বোচ্চ উইকেট (৩৯) সংগ্রাহক। পাকিস্তানের সাবেক এই পোস্টার বয় ব্যাটে-বলে সমান অবদান রেখেছেন।

২০০৯ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে শিরোপা জিতেছিল পাকিস্তান। সেবার ফাইনালে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচসেরা হয়েছিলেন আফ্রিদি। ২০ রানে ১ উইকেট নেওয়া আফ্রিদি ৪০ বলে অপরাজিত ৫৪ রান করেছিলেন।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে তার চেয়ে বেশি ম্যাচ খেলেছেন কেবল তিলকারত্নে দিলশান (৩৫)। ব্যাট হাতে তিনি এখন অব্দি ১৪ তম সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক, ১৫৪.২৩ স্ট্রাইক রেটে।

Current Bangladesh team is our best so far: Shakib Al Hasan

২. সাকিব আল হাসান (বাংলাদেশ)- ২৫ ম্যাচে ৫৬৭ রান, ৩০ উইকেট

আইসিসির করা সেরা ১০ এর তালিকায় সাকিব আল হাসানই একমাত্র যিনি কিনা কখনো সেমি ফাইনালেই খেলেননি। দল ভালো না করলেও সাকিব আল হাসান নিজের পারফরম্যান্স দিয়ে নজর কেড়েছেন।

টুর্নামেন্টের প্রথম আসর খেলা সাকিব মাত্র ৮ ক্রিকেটারের তালিকায় আছেন যারা কিনা এবারও খেলবেন। বিশ্বকাপে সাকিব আছেন গ্রেট অলরাউন্ডার হিসাবে।

আফ্রিদির সঙ্গে সাকিব টুর্নামেন্টে অন্তত ৫০০ রান ও ৩০ উইকেট নেওয়া ক্রিকেটার।

Badree, the Windies' unexpected champion | cricket.com.au

৩. স্যামুয়েল বদ্রি (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)-১৫ ম্যাচে ২৪ উইকেট

তালিকায় অন্যদের মত অত নান্দনিক পরিসংখ্যান না থাকলেও ওয়েস্ট ইন্ডিজের স্পিনার স্যামুয়েল বদ্রি দারুণ অবদান রেখেছেন।

সুনীল নারাইনের সঙ্গে জুটি গড়ে বদ্রি দেখিয়েছেন টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে স্পিনাররা শুরুতে কতটা বিপজ্জনক হতে পারে।

টুর্নামেন্টের ইতিহাসে তার বোলিং গড় (১৩.৫৮) সেরা, ইকোনমি রেটে (৫.৫২) কেবল নারাইনের পেছনে।

AB de Villiers walks back | Photo | World T20 | ESPNcricinfo.com

৪. এবি ডি ভিলিয়ার্স (দক্ষিণ আফ্রিকা)- ৩০ ম্যাচে ৭১৭ রান, ৩০ ক্যাচ

দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটের তিন ফরম্যাটেই সমান অবদান রাখা এবি ডি ভিলিয়ার্স টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও নিজের সক্ষমতার প্রমাণ দিয়েছেন।

টুর্নামেন্টের ৫ম সর্বোচ্চ রানের মালিক ডি ভিলিয়ার্স, সেরা পাঁচে তার (১৪৩.৪০) চেয়ে বেশি স্ট্রাইক রেট আছে কেবল ক্রিস গেইলের (১৪৬.৭৩)।

গ্লাভস হাতে ৭ ক্যাচ নেওয়ার সাথে ২ টি স্টাম্পিং করেছেন তিনি। গ্লাভস ছাড়াও ফিল্ডার হিসাবে ধরেছেন ২৩ ক্যাচ, যা টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ (২য় অবস্থানে থাকা ফিল্ডারের চেয়ে ৭ বেশি)।

Mahendra Singh Dhoni, Tillakaratne Dilshan - Mahendra Singh Dhoni and Tillakaratne Dilshan Photos - Zimbio

৫. তিলকারত্নে দিলশান (শ্রীলঙ্কা)- ৩৫ ম্যাচে ৮৯৭ রান

এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপই প্রথম যেখানে তিলকারত্নে দিলশান খেলবেন না। এই টুর্নামেন্টের ইতিহাসে সর্বোচ্চ ম্যাচ (৩৫) খেলা ক্রিকেটার তিনিই।

টুর্নামেন্টের তৃতীয় সর্বোচ্চ রানের মালিক দিলশান, ২০০৯ বিশ্বকাপে ‘দিলস্কুপ’ শটের জন্ম দিয়েছিলেন তিনি।

সেবার টুর্নামেন্টে অনবদ্য ছিলেন তিনি। প্লেয়ার অব দ্য টুর্নামেন্ট হয়েছিলেন ৩১৭ রান করে। সেমি ফাইনালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অপরাজিত ৯৬ রানের ইনিংস খেলেছিলেন। ফাইনালে শ্রীলঙ্কা জেতেনি তার বড় একটা কারণ ছিল তার কোন রান না করতে পারা।

Chris Gayle lights up first-ever ICC T20 World Cup match

৬. ক্রিস গেইল (ওয়েস্ট ইন্ডিজ)- ২৮ ম্যাচে ৯২০ রান

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় নাম নিঃসন্দেহে ইউনিভার্স বস ক্রিস গেইল। দুবার শিরোপা জেতা গেইলের চোখ এবারও নিশ্চিতভাবেই থাকবে শিরোপার দিকে।

যদিও দলের শিরোপা জেতার দুই ম্যাচে (ফাইনাল) ব্যাট হাতে অবদান রাখতে পারেননি গেইল। এক ম্যাচে করেছেন ৩, আরেকটিতে ৪।

বাকি ২৬ ম্যাচে অবশ্য ৯১৩ রান এসেছে তার ব্যাট থেকে। শ্রীলঙ্কার মাহেলা জয়াবর্ধেনের (১০১৬) ই কেবল এই টুর্নামেন্টে গেইলের চেয়ে বেশি রান আছে। এবারের আসরেই গেইল এক হাজারি ক্লাবের অংশ হতে চাইবেন।

দানবীয় ব্যাটিংয়ের জন্য পরিচিত ক্রিস গেইল টুর্নামেন্টে হাঁকিয়েছেন ৬০ টি ছক্কা। যা দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা যুবরাজ সিং (৩৩) এর চেয়ে ২৭ টি বেশি। টুর্নামেন্টে ২ টি সেঞ্চুরি করা একমাত্র ব্যাটসম্যান গেইল।

Hiring Mahela Jayawardene is smart England thinking - Chris Tremlett's Cricket Comment - CityAM : CityAM

৭. মাহেলা জয়াবর্ধনে (শ্রীলঙ্কা)- ৩১ ম্যাচে ১০১৬ রান

আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ইতিহাসের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক মাহেলা জয়াবর্ধনে। একমাত্র ক্রিকেটার যার কিনা ১০০০ এর বেশি রান আছে।

২০০৭ থেকে ২০১৪ অব্দি সব টুর্নামেন্টেই খেলা জয়াবর্ধনে নিজের খেলা শেষ টুর্নামেন্টে দলকে জিতিয়েছেন শিরোপা। ফাইনালে ২৪ রান আসে তার ব্যাট থেকে।

২০১০ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে টানা ৩ ম্যাচে ৮১, ১০০ ও ৯৮ রান করে শ্রীলঙ্কাকে সেমি ফাইনালে উঠিয়েছিলেন তিনি।

Virat Kohli lets out a cry after hitting the winning runs | Photo | World T20 | ESPNcricinfo.com

৮. ভিরাট কোহলি (ভারত)- ১৬ ম্যাচে ৭৭৭ রান

এই তালিকায় যারা কখনো শিরোপা জয়ী দলে খেলেননি তাদের মধ্যে আছেন ভিরাট কোহলি। ভারতের অধিনায়ক মাত্র ১৬ ম্যাচ খেলে করেছেন ৭৭৭ রান, গড়টা চোখ কপালে তুলে দেবার মত- ৮৬.৩৩।

প্রায় অর্ধেক ম্যাচেই ফিফটি তুলে নেওয়া টুর্নামেন্টের সবচেয়ে ধারাবাহিক ক্রিকেটার। শেষ দুই আসরেই টুর্নামেন্ট সেরা হয়েছিলেন তিনি। দুই আসরেই ১০০ এর বেশি গড়ে রান করেছেন।

Sri Lanka won the first-ever T20 World Cup On 6th April 2014

৯. লাসিথ মালিঙ্গা (শ্রীলঙ্কা)- ৩১ ম্যাচে ৩৮ উইকেট

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ উইকেটের মালিক লাসিথ মালিঙ্গা। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে তার চেয়ে বেশি উইকেট আছে কেবল শহীদ আফ্রিদির।

ইয়র্কারে সিদ্ধহস্ত এই ফরম্যাটের সেরা ডেথ বোলার মালিঙ্গা। ২০১৪ সালের আসরে শিরোপা জিতেছিল শ্রীলঙ্কা, দলটির অধিনায়ক ছিলেন মালিঙ্গা।।

Kevin Pietersen, Niall Horan - Kevin Pietersen Photos - Zimbio

১০. কেভিন পিটারসেন (ইংল্যান্ড)- ১৫ ম্যাচে ৫৮০ রান

মাত্র ১৫ ম্যাচ খেললেও নিজের জাত চেনাতে সময় নেননি কেভিন পিটারসেন। ২০১০ সালে ইংল্যান্ডের শিরোপা জেতার আসরে পিটারসেন ছিলেন অনবদ্য, হয়েছিলেন টুর্নামেন্ট সেরা।

অন্তত ১০ ইনিংস ব্যাট করেছেন এমন ক্রিকেটারদের মধ্যে কেবল ভিরাট কোহলি ও মাইক হাসির ব্যাটিং গড় কেভিন পিটারসেনের (৪৪.৬১) চেয়ে বেশি।

টুর্নামেন্টে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকের সেরা দশে পিটারসেনের ১৪৮.৩৩ ই সর্বোচ্চ।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

ভারতের কোচ হতে চাইছেন টম মুডি

Read Next

টাইগারদের বিশ্বকাপ জার্সি পাওয়া যাবে আড়ংয়ে

Total
17
Share