লেগ স্পিনার না খেলালে জিতেও পয়েন্ট হারাবে দলগুলো

খালেদ মাহমুদ সুজন

একজন লেগ স্পিনারের প্রয়োজন বাংলাদেশ ক্রিকেটে কতটুকু অনুভব করে কর্তারা তা নিয়ে সংশয়ের শেষ নেই। নানা সময়ে নানা বুলি, বাধ্যবাধকতা তৈরি করা হলেও দিনশেষে ফলাফল শূন্য। কোথাও পর্যাপ্ত সুযোগ মেলেনা লেগ স্পিনারদের। এবার বয়সভিত্তিকে সেটি করে দেখানোর আশা দেখালেন বিসিবির সদ্য নির্বাচিত পরিচালক খালেদ মাহমুদ সুজন।

খালেদ মাহমুদ আগের মেয়াদে কাজ করেছেন গেম ডেভেলপমেন্ট বিভাগে। তার হাত ধরেই এসেছে যুব বিশ্বকাপ শিরোপা অর্জন। এর বাইরেও বয়সভিত্তিকেও রেখেছেন কাজের ছাপ। এবার আরেক দফা পরিচালক নির্বাচিত হয়ে একই বিভাগের দায়িত্ব সামলানোর কথা তার।

এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে দায়িত্ব ভাগাভাগি না হলেও গত ২ দিন ধরেই তাকে ব্যস্ত থাকতে দেখা গেছে গেম ডেভেলপমেন্টের কাজ নিয়ে। বিভাগীয় দলগুলোর কোচদের সাথে বৈঠকে দিচ্ছেন পরামর্শ, তুলে ধরেছেন পরিকল্পনা।

লেগ স্পিনার বের করে আনতে বয়সভিত্তিকে বাধ্যবাধকতা আনার কথা ভাবছেন বলে জানান সুজন। যদিও এর আগে জাতীয় লিগ, বিপিএলের মত টুর্নামেন্টেও বাধ্যবাধকতা আনার পরেও খেলানো হয়নি লেগ স্পিনার।

এমনকি জয়-পরাজয় মূল্যহীন এমন বিসিবির আয়োজনে ম্যাচেও লেগ স্পিনাররা ছিলেন উপেক্ষিত। যার সর্বশেষ উদাহরণ চট্টগ্রামে এইচপি ক্যাম্প। দুই লেগ স্পিনার মিলে ৬ ম্যাচে সুযোগ পেয়েছেন মাত্র ১ ম্যাচ।

আজ (১০ অক্টোবর) মিরপুরে কোচদের সাথে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে খালেদ মাহমুদ সুজন লেগ স্পিনার বের করার পুরোনো আশ্বাস দিলেন নতুন করে।

তিনি বলেন, ‘আমরা তো রীতিমতো পরিকল্পনা বদলাই , পরিকল্পনা ডেভেলপ করি, কোনটা আমাদের জন্য বাস্তবায়ন করা সহজ। বাস্তবায়ন করাটা সবচেয়ে বড়, পরিকল্পনা তো অনেক করা যায় বাস্তবায়ন করা খুবই কঠিন। আমরা চিন্তা করেছি যে আমরা তো অনূর্ধ্ব-১৮ তে গিয়ে ওআইসিএলটা খেলি, কিন্তু আমরা অনূর্ধ্ব-১৪/১৬ তে এখন থেকে ২-৩ দিনের ম্যাচগুলা খেলার চেষ্টা করবো। যেটা আমরা ওআইসিএল করি সেটা আমরা অনূর্ধ্ব-১৬ তে তিন দিন এবং ১৪তে দুইদিনের করবো।’

‘একটা বাধ্যবাধতা করবো আমরা দরকার পড়লে এসব খেলা সুপারসাব দিবো শুধু একটা লেগ স্পিনারের জন্য। যেন একটা লেগস্পিনার খেলাতে বাধ্য এবং সে ২০ ওভার করবে প্রতি ইনিংসে। তা না করলে ওই দল জিতলেও পয়েন্ট পাবে না। মানে আমরা একটার এ রকম, আমি ডেভেলপমেন্টে এটাই বুঝানোর চেষ্টা করি কোচদেরকে।’

‘এটাতে দুর্বল শক্ত কিংবা কে জিতলো কে হারলো তা নয়, এটা ডেভেলপিং প্লেয়ার্স। তো এটাই আমি তাদেরকে আজকেও মনে করিয়েছি। এবং আমি ওটাই চাই এবং ওটাতে ইম্প্লিমেন্ট করার চেষ্টা করতছি।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

তামিমকে নিয়েই চট্টগ্রামের এনসিএল দল, তবে…

Read Next

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রাইজমানি প্রায় ৪৮ কোটি টাকা

Total
14
Share