নাম প্রত্যাহার করলেও বিসিবি নির্বাচনের অংশ হচ্ছেন খালিদ হোসেন

বিসিবি নির্বাচনঃ সরে দাঁড়ালেন শওকত আজিজ রাসেল

আসন্ন বিসিবি নির্বাচনের বাকি নেই ২৪ ঘন্টাও। আগামীকাল (৬ অক্টোবর) সকাল ১০ টা থেকে বিসিবি কার্যালয়ে শুরু হবে ভোট গ্রহণ। প্রার্থীতা প্রত্যাহারের সময়সীমা শেষের পরে নাম সরিয়ে নেওয়া খালিদ হোসেনকে নিয়েই নির্বাচন হচ্ছে।

বিসিবির পরিচালক পদে লড়তে এবার মনোয়নপত্র কেনেন ৩২ জন। এর বাইরে ৭ জন পরিচালক নির্বাচিত হচ্ছেন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়। মনোয়নপত্র কেনাদের নাম প্রত্যাহারের শেষ সময় ছিল ৩০ সেপ্টেম্বর বেলা ১২ টা পর্যন্ত। যেখানে মাত্র একজন নিজের নাম সরিয়ে নেন, তিনি হলেন ক্লাব ক্যাটাগরি থেকে শওকত আজিজ রাসেল।

ফলে বাকি ৩১ প্রার্থীকে নিয়েই নির্বাচনী কার্যক্রম শুরু করে নির্বাচন কমিশন। কিন্তু হুট করে গত ৩ অক্টোবর নিজের নাম প্রত্যাহার করে কাউন্সিলরদের চিঠি দেন জেলা ও বিভাগীয় সংস্থা ক্যাটাগরি থেকে ঢাকা বিভাগের পরিচালক প্রার্থী খালিদ হোসেন (মাদারীপুর)।

কিন্তু ততদিনে নির্বাচনী কার্যক্রম শুরু হয়ে যাওয়া এবং নির্ধারিত সময়সীমা শেষ হওয়ায় নির্বাচনে তার উপস্থিতি নিয়ে প্রশ্ন। নির্বাচন কমিশন বলছে নির্বাচনে থাকতে চাওয়া না চাওয়া একান্ত তার ব্যক্তিগত ব্যাপার। যদিও তার নামে ব্যালট থাকছে যথারীতি, তিনিও আনুষ্ঠানিকভাবে নির্বাচনের অংশ।

এ প্রসঙ্গে আজ (৫ অক্টোবর) মিরপুরে সংবাদ মাধ্যমকে প্রিজাইডিং এসএম কবিরুল হাসান বলেন, ‘তারটা ব্যালটে চলে আসবে, কারণ উনি প্রত্যাহারের যে সময়সীমা ছিল তার পরে প্রত্যাহার করেছেন। যে কারণে তা ব্যালটে চলে আসবে। নির্বাচনে আসবে কি আসবেনা এটা একান্ত তার ব্যক্তিগত ব্যাপার।’

ক্যাটাগরি-১ এ ঢাকা বিভাগে ২ পদের জন্য লড়ার কথা ৪ জন- তানভীর আহমেদ টিটু (নারায়নগঞ্জ), এ.এম নাইমুর রহমান দুর্জয় এমপি (মানিকগঞ্জ), সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু (কিশোরগঞ্জ) ও মোহাম্মদ খালিদ হোসেন (মাদারীপুর)।

তবে মাদারীপুরের খালিদ সরে দাঁড়ানোয় সংখ্যাটা এখন তিন। অর্থাৎ ঢাকা বিভাগ থেকে দুইজন পরিচালক পদের জন্য নির্বাচন করছেন ৩ জন।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

ইমাদ-শাহীনদের অনুরোধ রাখল পিসিবি

Read Next

৮ অক্টোবর মাঠে নামছে বাংলাদেশ

Total
1
Share