সাবেক টাইগার কোচরাই নিউজিল্যান্ডকে পথ বাতলে দিচ্ছেন

টাইগার কোচরাই নিউজিল্যান্ডকে পথ বাতলে দিচ্ছেন

অনেকটা হুট করেই নিউজিল্যান্ড জাতীয় দলের কোচ হয়ে বাংলাদেশে এসেছেন গ্লেন পকন্যাল। মূলত দলটির প্রধান কোচ গ্যারি স্টিড বাংলাদেশ ও পাকিস্তান সফরে বিশ্রামে থাকাতেই পকন্যালের কাঁধে গুরু দায়িত্ব। তবে প্রথমবার বাংলাদেশে আসলেও কন্ডিশন ও টাইগারদের সম্পর্কে ধারণা পেতে পকন্যাল সাহায্য নিয়েছেন বাংলাদেশের সাবেক দুই কোচের।

২০০৭ থেকে ২০১১ সময়কালে বাংলাদেশ জাতীয় দলের প্রধান কোচ হিসেবে কাজ করেছেন অস্ট্রেলিয়ান জেমি সিডন্স। অন্যদিকে ২০১৬ সালে ব্যাটিং কোচ হিসেবে তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিমদের সাথে কাজ করেছেন শ্রীলঙ্কান থিলান সামারাবিরা।

সিডন্সের সাথে আগে থেকে কাজ করার সুবাদে টাইগারদের সম্পর্কে জেনে নিতে পেরেছেন গ্লেন পকন্যাল। এদিকে সামারাবিরাকে ব্যাটিং পরামর্শক হিসেবে নিয়োগ দিয়েই বাংলাদেশে নিয়ে আসে কিউইরা, কাজ করবেন পাকিস্তান সফরেও। ফলে তার কাছ থেকেও তথ্য পাচ্ছেন কিউই ভারপ্রাপ্ত প্রধান কোচ।

জেমি সিডন্স প্রসঙ্গে আজ (২৮ আগস্ট) সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘জেমির সঙ্গে তিন বছর কাজ করেছি। তার এই কন্ডিশনের সঙ্গে ধারণা আছে। থিলানেরও অভিজ্ঞতা আছে। আমি যেটা করেছি, তাদের থেকে তথ্য নিয়ে ক্রিকেটারদের যতটুকু জানানো দরকার সেটা জানিয়েছি। দিনশেষে আমাদেরকে অপ্রত্যাশিত কিছুর জন্যই অপেক্ষা থাকতে হবে। উইকেট এবং কন্ডিশন পরিবর্তনশীল। সময়ের সঙ্গে এগুলোর পরিবর্তন হয়।’

অন্যদিকে থিলান সামারাবিরার সাথে কাজ নিয়ে পকন্যাল যোগ করেন, ‘থিলান অসাধারণ কাজ করছে। বাংলাদেশ দলে কাজ করায় তার অভিজ্ঞা আছে। এছাড়া খেলোয়াড় হিসেবে এ ধরনের কন্ডিশনে খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে। স্পিন আক্রমণের বিপক্ষে কিভাবে খেলতে হবে সেই কাজটা সেই দেখভাল করছে। সামনের যে ম্যাচগুলি আছে সেগুলো খুব গুরুত্বপূর্ণ হবে ছেলেদের জন্য।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

সাকিবের চোখে অলটাইম ওয়ানডে একাদশ

Read Next

জিম্বাবুয়ে ক্রিকেটে নতুন দায়িত্বে চিগুম্বুরা ও জার্ভিস

Total
5
Share