মাহমুদউল্লাহর চোখে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ‘প্লেয়ার্স টু ওয়াচ আউট ফর’

ইনিংস বিরতিতেই ম্যাচ জয়ের রণকৌশল সাজায় বাংলাদেশ

আসন্ন আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের চূড়ান্ত সূচি প্রকাশ হয়েছে। ওমানে বাংলাদেশের বাছাই পর্বের ম্যাচগুলো অনুষ্ঠিত হলেও মূল পর্বের ম্যাচ মাঠে গড়াবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। সুপার টুয়েলভে খেলতে বাছাই পর্ব উতরাতে হবে বাংলাদেশকে, টাইগার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ বলছেন বৈশ্বিক এই আসরে বাংলাদেশের বেশ কয়েকজন ক্রিকেটারদের দিকে নজর রাখতে হবে বিশবাসীকে।

১৭ অক্টোবর শুরু হয়ে ১৪ নভেম্বর পর্যন্ত চলবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। ১৭-২১ অক্টোবর মাঠে গড়াবে বাছাই পর্বের ম্যাচগুলো। প্রথম দিনেই বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ স্কটল্যান্ড, ১৯ ও ২১ অক্টোবর টাইগাররা মাথে নামবে ওমান ও পাপুয়া নিউগিনির।

সূচি প্রকাশের পর আইসিসির মিডিয়া বিভাগকে দেওয়া এক ভিডিও বার্তায় বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ কথা বলেছেন। সেখানে তিনি জানান বাংলাদেশ থেকে সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মুস্তাফিজুর রহমানের সাথে বেশ কয়েকজন তরুণের দিকেও নজর রাখতে হবে।

তিনি বলেন, ‘যদি আমাকে কয়েকটি প্লেয়ারের নাম বলতে হয় আমি প্রথমেই বলবো সাকিবের (সাকিব আল হাসান) নাম। সে নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার, আমাদের দলে মোস্ট ভ্যালুয়েবল প্লেয়ার। এছাড়া মুশফিক (মুশফিকুর রহিম) ও মুস্তাফিজ (মুস্তাফিজুর রহমান) আছে।’

‘আফিফ (আফিফ হোসেন ধ্রুব), শামীম (শামীম হোসেন), সোহান (নুরুল হাসান সোহান) এর মত বেশ কিছু ইয়াংস্টার আছে যারা নিজেদের জন্য ও দলের জন্য ভালো করছে। এই ইয়াংস্টারদের দিকে চোখ রাখতে হবে বলে মনে করি।’

বাছাই পর্ব উতরিয়ে মূল পর্ব খেলতে হবে বাংলাদেশকে। ফলে কোনো ম্যাচকেই ছোট করে দেখার উপায় নাই বলছেন টাইগার দলপতি।

মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ বলেন, ‘আমি মনে করি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মত টুর্নামেন্টে প্রতিটি ম্যাচই সমানভাবে গুরুত্বপূর্ণ। আপনি যেই প্রতিপক্ষের সাথেই খেলেন না কেনো প্রতিটি ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ। আপনাকে শুরুর বল থেকেই সেরাটা খেলতে হবে। মাইন্ড ফ্রেম ঠিক রেখে আপনি টিম প্রসেসে ফোকাস রাখলে সব ম্যাচ জিততে পারবেন।’

বিশ্বকাপের আগে বাংলাদেশ শেষ সিরিজ খেলবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে। ঘরের মাঠের এই সিরিজে ৫ টি টি-টোয়েন্টি খেলবে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দল। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৪-১ ব্যবধানে সিরিজ জয়ের পর নিউজিল্যান্ডের সাথে ভালো করতে পারলে আত্মবিশ্বাস তুঙ্গে থাকবে বিশ্বাস রিয়াদের।

তিনি বলেন, ‘আমি মনে করি সব দলের জন্য এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্ট। বিশেষ করে আমাদের জন্য এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে আমরা কিছু সিরিজ খেলছি। আমরা যদি ভালো করতে পারি এবং আত্মবিশ্বাস অর্জন করতে পারি বিশ্বকাপ শুরুর আগে এই সিরিজগুলো জিতে তাহলে তা আমাদের দলের জন্য বড় বুস্ট হবে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

এসেছে কিউইদের পর্যবেক্ষক দল, ২০ আগস্ট আসবেন ২ খেলোয়াড়

Read Next

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে রিয়াদের বাজি বোলারদের নিয়ে

Total
12
Share