বল টেম্পারিংয়ের অভিযোগ উঠল ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে

বল টেম্পারিংয়ের অভিযোগ উঠল ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে

বল টেম্পারিং ক্রিকেটে খুবই বিতর্কিত এক বিষয়। ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটার ও সমর্থকদের ধারণা, চলমান লর্ডস টেস্টে বল বিকৃতি করেছে ইংলিশরা। স্পাইক দিয়ে মাঠে বল ঘষতে দেখা যায় ইংল্যান্ড ক্রিকেটারদের। আর তাতেই ইংলিশ দুই ক্রিকেটার ররি বার্নস ও মার্ক উডের বিরুদ্ধেও উঠল বল টেম্পারিংয়ের অভিযোগ। কড়া সমালোচনায় ভিরেন্দর শেবাগ সহ ক্রিকেট সংশ্লিষ্ট অনেকেই।

ঘটনা, লর্ডস টেস্টের চতুর্থ দিন মধ্যাহ্ন বিরতির পর ইংল্যান্ডের দুই ক্রিকেটার ররি বার্নস ও মার্ক উডকে টেলিভিশন পর্দায় দেখা যায় বুটের স্পাইক দিয়ে বল নড়াচড়া করছেন। টেলিভিশন ক্যামেরায় ধরা পড়া এমন দৃশ্য মুহূর্তেই ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে।

ইংলিশদের সমালোচনা করে ভিরেন্দর শেবাগ টুইট বার্তায় লিখেছেন,

‘এটা কী হচ্ছে! ইংল্যান্ডের বল ট্যাম্পারিং নাকি কোভিডের জন্য সতর্কতা হিসাবে এমন করা হচ্ছে!’

আকাশ চোপড়া লিখেছেন,

‘বল বিকৃত?’

তবে ইংলিশ পেসার স্টুয়ার্ট ব্রড সতীর্থদের পাশেই দাঁড়িয়ে, এক ভারতীয় সমর্থকের টুইটের জবাব দিলেন,

‘আমার মনে হয় উডি (মার্ক উড) বার্নসির পায়ের ফাঁক দিয়ে বল পড়ে গেল। যা খুবই স্বাভাবিক একটা ঘটনা। ভুলবশত ও শটটা মিস করে এবং বলটা ওখানে চলে যায় (বার্নসের জুতোর তলায়)। স্ক্রিনশট না দেখে ভিডিওটা দেখো, খুব সহজেই সত্যিটা দেখতে পারবে।’

আরেক টুইটের জবাবে ব্রড লিখেন,

‘বলের কোন ক্ষতি হয়েছে কিনা তার ওপর পুরো প্রক্রিয়াটা নির্ভর করে। বল স্ট্যান্ডে গেলেও একই নিয়ম প্রযোজ্য। যদি বলের কিছু না হয়, তব বদলের দরকার কী?’

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

লর্ডসে শেষ দিনে রোমাঞ্চের অপেক্ষা

Read Next

শেষের রোমাঞ্চে পাকিস্তানকে হারাল উইন্ডিজ

Total
1
Share