দক্ষিণ আফ্রিকার সিরিজ বাঁচানো ম্যাচে সিমি সিংয়ের রেকর্ড

দক্ষিণ আফ্রিকার সিরিজ বাঁচানো ম্যাচে সিমি সিংয়ের রেকর্ড

তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথমটি বৃষ্টিতে ভেসে গেছে, দ্বিতীয়টিতে ইতিহাস গড়ে জিতেছে আয়ারল্যান্ড। ফলে শেষ ম্যাচটি দক্ষিণ আফ্রিকার লজ্জা এড়ানোর ম্যাচে রূপ নেয়। যে ম্যাচে দুই ওপেনার ইয়ানেমান মালান ও কুইন্টন ডি ককের তান্ডবে উড়েই গেল আইরিশরা। সিমি সিংয়ের রেকর্ড গড়া সেঞ্চুরিটিই কেবল স্বান্তনা।

ডাবলিনের দ্য ভিলেজে টস জিতে আগে ব্যাট করা দক্ষিণ আফ্রিকা ডি কক-মালানের জোড়া সেঞ্চুরিতে ৪ উইকেটে তোলে ৩৪৬ রান। ডি ককের ব্যাটে ১২০ রান, মালান অপরাজিত ছিলেন ১৭৭ রানে।

জবাবে আইরিশরা থেমেছে ২৭৬ রানে। ৮ নম্বরে নেমে ওয়ানডে ইতিহাসের সর্বোচ্চ ইনিংস খেলেছেন সিমি সিং। তার ১০০ ছাড়া কুর্টিস ক্যাম্ফারের ব্যাট থেকে আসে ৫৪ রান। প্রোটিয়ারা জিতেছে ৭০ রানে।

দক্ষিণ আফ্রিকান দুই ওপেনার ডি কক-মালান ৩৬.১ ওভার স্থায়ী উদ্বোধনী জুটিতে তোলে ২২৫ রান। দুজনেই ছুঁয়েছেন তিন অঙ্ক। যেখানে বেশি আক্রমণাত্মক ছিলেন প্রথম দুই ম্যাচ বিশ্রামে থাকা ডি কক। ৪৩ বলে ফিফটি ছুঁয়ে সেঞ্চুরিতে পৌঁছেছেন ৮৩ বলে। শেষ পর্যন্ত আউট হওয়ার আগে ৯১ বলে ১১ চার ৫ ছক্কায় তার নামের পাশে ১২০ রান।

ডি কক ফিরলে মালান অপরাজিত ছিলেন ইনিংসের শেষ অব্দি। ৬৬ বলে ফিফটি তুলে সেঞ্চুরি ছুঁয়েছেন ১২৬ বলে। দক্ষিণ আফ্রিকা হয়ে ওয়ানডেতে এক ইনিংসে সর্বোচ্চ বল খেলেছেন মালান। ১৬৯ বলে ১৬ চার ৬ ছক্কায় অপরাজিত ছিলেন ১৭৭ রানে। তিন নম্বরে নামা র‍্যাসি ভ্যান ডার ডুসেনের সাথে জুটি গড়েন ৮১ রানে, ডুসেনের অবদান ৩০। ৪ উইকেটে প্রোটিয়াদের স্কোরবোর্ডে ৩৪৬ রান।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে ৯২ রানেই ৬ উইকেট হারায় স্বাগতিক আয়ারল্যান্ড। আউট হওয়া প্রথম ৬ ব্যাটসম্যানের একজনও করতে পারেননি ৩০ রান। ৭ম উইকেট জুটিতে কুর্টিস ক্যাম্ফার ও সিমি সিংয়ের ১০৪ রানের জুটি।

৫৪ বলে ৫ চার ১ ছক্কায় ক্যাম্ফার বিদায় নেন ৫৪ রান করে। এরপর অন্যপ্রান্তে আসা যাওয়ার মিছিল চললেও সিমি সিং ছিলেন অপরাজিত। ২৭৬ রানেই অল আউট হয়েছে আইরিশরা। তবে সিমি অপরাজিত ছিলেন ৯১ বলে ১৪ চারে ঠিক ১০০ রানে।

ওয়ানডে ইতিহাসে এটিই ৮ নম্বরে নামা কোনো ব্যাটসম্যানের প্রথম সেঞ্চুরি। এই পজিশনে আগের সর্বোচ্চ ছিল যৌথভাবে ইংল্যান্ডের ক্রিস ওকসের ও স্যাম কারেনের। দুজনেই অপরাজিত ছিলেন ৯৫ রানে।

দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে সর্বোচ্চ ৩ উইকেট তাব্রাইজ শামসি ও আন্দিলে ফেলুকওয়ায়ো। দুইটি নেন কেশব মহারাজ।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

রানবন্যার ম্যাচে ইংল্যান্ডকে হারাল পাকিস্তান

Read Next

ব্যাটিং ও ফিল্ডিংয়ে অজিদের হারাল ওয়েস্ট ইন্ডিজ

Total
1
Share