বার্লের আবেগপ্রবণ বার্তা ভাইরাল, খুঁজে পেলেন স্পন্সর

c97 4 12

জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটারদের কঠিন সংগ্রামের কাহিনী সামনে আসে অলরাউন্ডার রায়ান বার্লের টুইটে। ছেঁড়া জুতোয় আঠা লাগিয়েই খেলা চালাচ্ছেন বার্ল। এরপর এদিনই আনুষ্ঠানিকভাবে পিউমা জানিয়ে দেয়, আঠা দূরে সরিরে ফেলার সময় এসেছে। কারণ বার্লকে যে পিউমা স্পন্সর করবে। স্পোর্টস ব্র্যান্ড পিউমা জানিয়েছে, তাঁরা রায়ান বার্লের স্পন্সর হবে। বার্ল গর্বিত এমন মুহূর্তে, সমর্থকদের প্রতি কৃতজ্ঞ।

রায়ান বার্লের টুইটে দেখা গিয়েছে কিছু ছেঁড়া জুতোর ছবি। যেগুলি নিজেদেরই সেলাই করতে হচ্ছে জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটারদের! রায়ান বার্ল টুইটে সেই ছবি পোস্ট করে জানতে চেয়েছেন, কোনও স্পন্সর পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে কিনা। যাতে এভাবে ছেঁড়া জুতোকে প্রতিটি সিরিজের আগে আঠা লাগিয়ে বা সেলাই করে মাঠে নামতে না হয়।

‘একটা স্পন্সর পাওয়ার কোনো সুযোগ আছে কি, যাতে প্রতি সিরিজের পর জুতাগুলো আঠা দিয়ে লাগাতে না হয় আমাদের?’

বার্লের পোস্ট মুহূর্তের মধ্যেই ভাইরাল হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। টুইটারে অনেক সমর্থক জানায়, তারা স্পন্সর করতে না পারলেও আর্থিক সাহায্য করতে পারেন। তবে রায়ানের কাছে সব থেকে খুশির খবরটি আসে, তাঁর টুইটের একদিনের মধ্যেই। বিশ্বের এক নামী ক্রীড়া সরঞ্জাম প্রস্তুতকারক সংস্থা পিউমা সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেয়।

রায়ান বার্লের মন খারাপ করা টুইট মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায়। ক্রিকেট বিশ্বে আলোচনা হয়ে ওঠে। তারপরেই পিউমার পক্ষ হতে জানানো হয়, রায়ান বার্লের জন্য তাঁরা স্পন্সরশিপ করবে।

‘আঠা ফেলে দেওয়ার সময় এসেছে, বার্ল। আপনার এ ব্যাপারটা আমরা দেখছি।’

পিউমার এই টুইটের জবাবে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে বার্ল লিখেছেন,

‘পিউমার সঙ্গী হতে তর সইছে না আমার। সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়ার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ।’

‘গর্বের সঙ্গে জানাচ্ছি আমি পিউমাতে যোগ দিচ্ছি। গত ২৪ ঘণ্টায় সমর্থকেরা যেভাবে সাহায্য করেছেন, এতেই এটা সম্ভব হলো। আপনাদের সবার কাছে কৃতজ্ঞ থাকব আমি। পিউমাকে ধন্যবাদ।’

বিগত কয়েক বছর ধরেই জিম্বাবুয়ে ধুঁকছে। পারফরম্যান্সের গ্রাফ ক্রমেই নামছে। ফিরেও তাকাচ্ছে না স্পন্সররা। এছাড়াও আর্থিক দুর্নীতি এবং চূড়ান্ত অব্যাবস্থারও শিকার সেদেশের ক্রিকেট।

২০১৭ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক ঘটে রায়ান বার্লের। তারপর জাতীয় দলের জার্সিতে তিন টেস্ট, ১৮টি ওয়ানডে এবং ২৫টি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন। তিন ফরম্যাটে তাঁর রানসংখ্যা ৬৬০। এছাড়া বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে তিনি খেলেছেন চট্টগ্রাম ভাইকিংস ও চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের জার্সিতে।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

আনন্দিত তামিমরা জানেন নিজেদের কাজ এখনো বাকি

Read Next

ভয় পাইয়ে দেয়া হাসারাঙ্গাকে নিয়ে যা ভেবেছিল বাংলাদেশ

Total
4
Share