কামিন্স-রাসেল ঝড়ের পরেও জিতল চেন্নাই

কামিন্স-রাসেল ঝড়ের পরেও জিতল চেন্নাই

ফাফ ডু প্লেসিসের সেঞ্চুরি ছুঁইছুঁই ইনিংস এবং দীপক চাহারের দাপুটে বোলিংয়ে টানা ৩য় জয় পেল চেন্নাই সুপার কিংস। সাকিব বিহীন কোলকাতা নাইট রাইডার্সকে (কেকেআর) তারা হারিয়েছে ১৮ রানে। একইসাথে এটি কোলকাতার টানা ৩য় পরাজয়। বিফলে গেছে প্যাট কামিন্স ও আন্দ্রে রাসেলের জোড়া ঝড়ো ফিফটি।

সাকিব আল হাসান এবং হরভজন সিংয়ের পরিবর্তে কেকেআর দলে সুযোগ পান সুনীল নারাইন এবং কমলেশ নাগারকোটি। অন্যদিকে ডোয়াইন ব্রাভোর পরিবর্তে দলে যোগ দেন লুঙ্গি এনগিডি।

টসে জিতে চেন্নাইকে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন কোলকাতা নাইট রাইডার্সের অধিনায়ক এউইন মরগান। তার আমন্ত্রণকে সাধুবাদ জানিয়ে শুরু থেকে দাপুটে ব্যাটিং করতে থাকেন চেন্নাই সুপার কিংসের দুই ওপেনার রুতুরাজ গায়কোয়াড় এবং ফাফ ডু প্লেসিস। টুর্নামেন্টে নিজেদের ৪র্থ ম্যাচে এসে রানের দেখা পেলেন রুতুরাজ। চমৎকার ব্যাটিংয়ে ৪২ বলে ৬৪ রানের পাশাপাশি উদ্বোধনী জুটিতে ডু প্লেসিসের সাথে ১১৫ রানের জুটি গড়ে চেন্নাইকে বড় সংগ্রহের ভীত গড়ে দেন।

তবে রুতুরাজকে ছাড়িয়ে চেন্নাইকে ২০০ রানের কোটা অতিক্রম করানোর বড় কৃতিত্ব ম্যাচ সেরা ডু প্লেসিসের। এক প্রান্ত আগলে ধরে একের পর এক দর্শনীয় শট খেলতে থাকেন। তবে সেঞ্চুরির দেখা পাননি, শেষ পর্যন্ত ৯৫ রানে অপরাজিত থাকেন। এছাড়াও দ্রুততার সাথে মইন আলি ২৫ এবং মাহেন্দ্র সিং ধোনি ১৭ রান করেন। চেন্নাই নির্ধারিত ২০ ওভারে মাত্র ৩ উইকেট হারিয়ে ২২০ রানের বিশাল স্কোর গড়ে।

কেকেআরের পক্ষে বরুণ চক্রবর্তী, সুনীল নারাইন এবং আন্দ্রে রাসেল ১টি করে উইকেট নেন।

২২১ রানের পাহাড় সমান টার্গেট নিয়ে খেলতে নেমে চেন্নাইয়ের দীপক চাহারের সুইংয়ে কাবু হয়ে যায় কেকেআরের উপরের সারির ব্যাটসম্যানরা। পাওয়ারপ্লেতে ৫ উইকেট হারিয়ে বসে তারা। এর মধ্যে দীপক চাহার নেন ৪টি এবং লুঙ্গি এনগিডি নেন ১টি।

৩১ রানে ৫ উইকেট হারানো কেকেআরকে পথ দেখান মারকুটে ব্যাটসম্যান আন্দ্রে রাসেল এবং কেকেআরের সাবেক অধিনায়ক দীনেশ কার্তিক। ২২ বলে ৫৪ রানের বিধ্বংসী ইনিংস খেলার পথে কার্তিকের সাথে ৮১ রানের জুটিও গড়েন রাসেল।

রাসেলের বিদায়ের পরও কার্তিক রানের চাকা গতিশীল রাখেন। তবে দলীয় ১৪৬ রানে কার্তিক (৪০) বিদায় নিলে ৭ম উইকেটের পতন হয় কেকেআরের। এরপর দলের দায়িত্ব একাই নিজের কাধে নেন বোলিংয়ে কিছু করতে না পারা প্যাট কামিন্স।

স্যাম কারেনের ১ ওভারে ২৮ রান নিয়ে ম্যাচে উত্তেজনা জমিয়ে দেন কামিন্স। মাত্র ২৩ বলে হাফ সেঞ্চুরি পূরণ করলেও দলকে শেষ পর্যন্ত জয়ের বন্দরে পৌছাতে পারেননি তিনি। ২০২ রানে অলআউট হয়ে যায় কেকেআর। কামিন্স ৬৫ রানে অপরাজিত থাকেন।

চেন্নাইয়ের পক্ষে দীপক চাহার ৪টি এবং এনগিডি ৩টি উইকেট নেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

চেন্নাই সুপার কিংসঃ ২২০/৩ (২০), রুতুরাজ ৬৪, ডু প্লেসিস ৯৫*, মইন আলি ২৫, ধোনি ১৭, জাদেজা ৬*; বরুণ ৪-০-২৭-১, কামিন্স ৪-০-৫৮-০, নারিন ৪-০-৩৪-১, কৃষ্ণা ৪-০-৪৯-০, রাসেল ২-০-২৭-১, নাগারকোটি ২-০-২৫-০

কোলকাতা নাইট রাইডার্সঃ ২০২/১০ (১৯.১), রানা ৯, গিল ০, ত্রিপাঠি ৮, মরগান ৭, নারিন ৪, কার্তিক ৪০, রাসেল ৫৪, কামিন্স ৬৫*, নাগারকোটি ০, বরুণ ০, কৃষ্ণা ০; দীপক ৪-০-২৯-৪, স্যাম কারেন ৪-০-৫৮-১, এনগিডি ৪-০-২৮-৩, জাদেজা ৪-০-৩৩-০, শার্দুল ৩.১-০-৪৮-০

ফলাফলঃ চেন্নাই সুপার কিংস ১৮ রানে জয়ী

ম্যাচ সেরাঃ ফাফ ডু প্লেসিস (চেন্নাই সুপার কিংস)।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

মানসিকভাবে শান্ত থাকাটাই শান্তর সাফল্যের রহস্য

Read Next

ম্যাচ হারের পর জরিমানা গুনলেন মরগান

Total
7
Share