ত্রিপাঠির উইকেট উপভোগ করা চাহার পড়তে পেরেছেন রানার মন

ত্রিপাঠির উইকেট উপভোগ করা চাহার পড়তে পেরেছেন রানার মন

টুর্নামেন্টে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে গতকাল (১৩ এপ্রিল) জয়ের পথে হেঁটেও মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের কাছে ১০ রানে হারতে হয়েছে কোলকাতা নাইট রাইডার্সকে। যেখানে বল হাতে অসামান্য ভূমিকা রেখেছেন মুম্বাইয়ের লেগ স্পিনার রাহুল চাহার। কোলকাতার টপ অর্ডারকে বশে এনে তুলে নিয়েছেন ৪ উইকেট, পরে যা কাজে লাগিয়েছে ক্রুনাল পান্ডিয়া, জাসপ্রীত বুমরাহ ও ট্রেন্ট বোল্ট।

ম্যাচ সেরার পুরষ্কার জেতা রাহুল চাহার বলছেন লেগ স্পিনের সাথে বাড়তি গতি দিতে পারাটাই তার শক্তির জায়গা। পড়তে পেরেছেন নিতিশ রানা, শুবমান গিলদের মানসিকতা।

চেন্নাইয়ের এমএ চিদাম্বরম স্টেডিয়ামে মুম্বাইয়ের দেওয়া ১৫৩ রানের লক্ষ্য তাড়ায় নেমে উদ্বোধনী জুটিতেই ৭২ রান তুলে ফেলে কোলকাতার দুই ওপেনার শুবমান গিল ও নিতিশ রানা। ২৪ বলে ৫ চার ১ ছক্কায় ৩৩ রান করা গিলকে কাইরন পোলার্ডের ক্যাচ বানিয়ে আঘাতের শুরু রাহুল চাহারের।

নতুন ব্যাটসম্যান রাহুল ত্রিপাঠি (৫) চাহারের স্পিন বুঝতে না পেরে ক্যাচ দিয়েছেন উইকেটের পেছনে কুইন্টন ডি কককে। অধিনায়ক এউইন মরগানও (৭) চাহারকে উড়িয়ে মারতে গিয়ে ক্যাচ দিয়েছেন মারকো জ্যানসেনকে। নিজের করা প্রথম তিন ওভারেই একটি করে উইকেট নেওয়া তরুণ এই লেগ স্পিনার চতুর্থ ওভারে ফেরান কোলকাতার হয়ে ম্যাচে সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক নিতিশ রানাকেও। দুর্দান্ত এক ফ্লিপারে ফাঁদে ফেলে স্টাম্পিং হতে বাধ্য করেন ৫৭ রানের ইনিংস খেলা রানাকে।

টানা দুই ফিফটি তুলে নেওয়া রানের ব্যাটে অনেকটা নিশ্চিত জয়ের পথেই হাঁটছিল কোলকাতা নাইট রাইডার্স। কোলকাতার হারানো প্রথম চার উইকেটের সবকটিই রাহুল চাহারের শিকার। ৪ ওভারে খরচ করেছেন মাত্র ২৭ রান। রানার বিদায়ের সময়ও জয় ছিল বেশ সম্ভব সমীকরণে, ৩০ বলে হাতে ৬ উইকেট নিয়ে ৩১ রান।

চাহারের গড়ে দেওয়া ভীতকে কাজে লাগিয়ে ক্রুনাল পান্ডিয়া (৪-০-১৩-১), জাসপ্রীত বুমরাহ (৪-০-২৮-০) ও ট্রেন্ট বোল্ট (৪-০-২৭-২) ১৪২ রানেই আটকে দেয় এউইন মরাগানের দলকে। দল জেতাতে ব্যর্থ হয়েছেন আন্দ্রে রাসেল (৯), দীনেশ কার্তিকরা (৮*)। শেষ দুই ওভারে প্রয়োজ ছিল ১৯, বুমরাহর করা ১৯ তম ওভারে আসে মাত্র ৪ রান। বোল্টের করা শেষ ওভারে জিততে হলে প্রয়োজন ছিল ১৫, রাসেল, প্যাট কামিন্সের উইকেট হারিয়ে কোলকাতা নিতে পারে মাত্র ৪ রান।

১০ রানে দলকে জয় এনে দেওয়ার পথে ম্যাচ সেরার পুরষ্কার জেতা রাহুল চাহার জানালেন দলের কাছ থেকে পাওয়া সমর্থনের কথা। গিলকে ভালো ব্যাটসম্যান আখ্যা দিলেও তার সামর্থ্যের পরিধি সম্পর্কে জানতেন বলছেন ২১ বছর বয়সী এই লেগ স্পিনার। রাহুল ত্রিপাঠির উইকেট উপভোগ করেছেন এই লেগ স্পিনার।

চাহার বলেন, ‘তাদের অমন ভালো শুরুর পর আসলেই চাপ ছিল আর যা একজন স্পিনারকেই লাগাম দিতে হয়েছিল। আমি ত্রিপাঠির উইকেটটি বেশি উপভোগ করেছি। দুই তিন বছর ধরে আইপিএল খেলছি বলে আমি আমার সামর্থ্যের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী ছিলাম।’

‘আমি জানি গিল অনেক ভালো ব্যাটসম্যান আর আমি এটাও জানি আমাকে সে টানা বাউন্ডারি হাঁকাতে পারবেনা। আমি ৯০ কি.মি. গতিতে স্পিন করতে পারি যা আমার মূল শক্তি। নিতিশ রানা সম্পর্কেও আমার ভালো ধারণা ছিল, সে ডাউন দ্য ট্র্যাকে আসার চেষ্টা করছিল তাই স্পেলের শেষ বলটি (স্টাম্পিং করা ডেলিভারিটি) আমি তাকে ফ্লিপার দিয়েছি। ‘

‘মাঝে মাঝে আমি আত্মবিশ্বাস হারাচ্ছিলাম তবে রোহিত (শর্মা) আমাকে আত্মবিশ্বাস দিয়ে যাচ্ছিল। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স অফ সিজনেও তার খেলোয়াড়দের যত্ন নেয় আর এ কারণেই এটি বিশেষ একটি ফ্র্যাঞ্চাইজি।’

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

তীরে এসে তরী ডুবল কোলকাতার

Read Next

শাহরুখের টুইট, রাসেলের প্রতিক্রিয়া

Total
1
Share