ডেভন কনওয়েকে ফেরানোর পথ খুঁজছে বাংলাদেশ

ডেভন কনওয়েকে ফেরানোর পথ খুঁজছে বাংলাদেশ

ফরম্যাট বদলালেও নিউজিল্যান্ডে এখনো ভাগ্য বদলায়নি বাংলাদেশের। তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজে ধবলধোলাই হওয়ার পর হ্যামিল্টনে প্রথম টি-টোয়েন্টিতেও হেরেছে টাইগাররা। ২১১ রানের লক্ষ্য তাড়ায় আরও একবার মুখ থুবড়ে পড়েছে বাংলাদেশের ব্যাটিং লাইনআপ। ৬৬ রানে হারা ম্যাচে অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের কাঠগড়ায় ব্যাটসম্যানরাই। অন্যদিকে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যান ডেভন কনওয়েকে ফেরানোর পথ খুঁজছে বাংলাদেশ।

টস জিতে আগে ব্যাট করা নিউজিল্যান্ড পেয়েছে ৩ উইকেটে ২১০ রানের সংগ্রহ। ডেভন কনওয়ের অপরাজিত ৯২ রানের সাথে অভিষিক্ত উইল ইয়াংয়ের ৫৩ রানে ভর করে হ্যামিল্টনের সেডন পার্কে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সংগ্রহ। ৩০ রানে ২ উইকেট নেওয়া অভিষিক্ত নাসুম আহমেদ বল হাতে ছিলেন দারুণ ছন্দে। শরিফুল ইসলাম বাউন্ডারিতে কনওয়ের (তখন ৪৭) ক্যাচটা ঠিকঠাক নিতে পারলে ফিগারটা হতে পারতো আরও সুন্দর।

তবে লক্ষ্য তাড়ায় নেমে ৫৯ রানেই ৬ উইকেট হারায় বাংলাদেশ। আফিফ হোসেন ও মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনের ৬৩ রানের জুটি না হলে সেডন পার্কের রান ফোয়ারার উইকেটেও আরও বড় হার সঙ্গী হতে পারতো।

ম্যাচ শেষ পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে টাইগার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ বলেন, ‘বোলাররা যথেষ্ট ভালো করেছে। নাসুম অভিষেকে দারুণ করেছে। তবে আবারও ব্যাটিংয়ে নিজেদের সর্বনাশ ডেকে এনেছি আমরা, গুচ্ছাকারে উইকেট হারালে, আমার মনে হয় এভাবে করলে হবে না, দ্বিতীয় ম্যাচে ফিরে আসতে হবে।’

কিউই ব্যাটসম্যান ডেভন কনওয়ে আছেন দুর্দান্ত ফর্মে। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে দারুণ এক টি-টোয়েন্টি সিরিজ কাটানোর পর বাংলাদেশের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজেও ছিলেন বেশ ধারাবাহিক। অভিষেক ওয়ানডে সিরিজে দুই ম্যাচে ব্যাট করার সুযোগ পেয়ে করেছেন ৭৬ ও ১২৬। আজ প্রথম টি-টোয়েন্টিতে অপরাজিত ছিলেন ৯২ রানে। বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ বলছেন কনওয়েকে আঁটকানোর পথ বের করতে হবে।

তিনি বলেন, ‘সে (কনওয়ে) দারুণ ফর্মে আছে, আমার জানামতে গত ৬-৭ ম্যাচে ৫-৬টি ফিফটি করেছে সে। তবে আমরা সুযোগ পেয়েছিলাম তাকে আউট করার, নতুন ব্যাটসম্যান আনার, তবে তাকে আটকানোর উপায় বের করতে হবে।’

উইকেট অনুযায়ী ১৯০ রান তাড়া করার মত লক্ষ্য হতে পারতো বলে মত টাইগার অধিনায়কের, ‘১৯০ হলে তাড়া করার মতো ছিল, তবে একটু পিচ্ছিল ফিল্ডিং, একটু বেশি বাউন্ডারি হজম করেছি। তবে যেটা বললাম, ব্যাটিং ইউনিটকে ক্লিক করতে হবে।’

ইশ সোধির জোড়ায় জোড়ায় উইকেট নেওয়া বেশ ভুগিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাটসম্যানদের। ম্যাচে ২৮ রান খরচায় নিয়েছেন ৪ উইকেট। নিজের তৃতীয় ওভারে জাগিয়েছেন হ্যাটট্রিক সম্ভাবনাও। সোধির তারিফ করে বাংলাদেশ কাপ্তান জানালেন পরের ম্যাচে নিজেদের তুলে ধরতে হবে।

মাহমুদউল্লাহ বলেন, ‘আসলে ইশ (সোধি) অভিজ্ঞ, সে কন্ডিশনকে কাজে লাগায় দারুণভাবে। এখানে বল একটু গ্রিপ করছিল। তবে আসলে একই ভুল বারবার করলে হবে না আমাদের, দ্বিতীয় ম্যাচে নিজেদের একটু তুলে ধরতে হবে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

পাকিস্তান বলছে ‘হবে’, ভারত বলছে ‘ভিত্তিহীন’

Read Next

আইপিএল খেলতে ভারতে পৌঁছেছেন সাকিব

Total
1
Share