জাতীয় দলের খেলোয়াড়দের পেতে দুই স্লটে ডিপিএল

আবাহনী চ্যাম্পিয়ন ডিপিএল
Vinkmag ad

জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের নিয়ে ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগ (ডিপিএল) দলগুলো স্কোয়াড তৈরি করে। ফলে জাতীয় দলের ব্যস্ততা থাকেনা এমন সময়েই আয়োজন হয়ে আসছে দেশের ঐতিহ্যবাহী এই টুর্নামেন্ট। তবে গতবছরের স্থগিত ডিপিএল এবার আয়োজন করতে গিয়েই বিপাকে বিসিবি। মূলত চলতি বছর জাতীয় দলের ফাঁকা সময় কম বলেই বিপত্তি। আগের আসরের ডিপিএল বলে জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের নিয়েই ডিপিএল আয়োজন করতে হবে এবার।

ফলে ফাঁকা সময় খুঁজে বের করতে গিয়ে বেশ বিপাকে দেশের ক্রিকেট নিয়ন্ত্রক সংস্থা। আগামী কয়েকবছরের জন্য ঘরোয়া ক্রিকেটের খসড়া সূচি তৈরি করেছে বিসিবি। যেখানে চলতি বছরের ডিপিএলের জন্য রাখা হয়েছে তিনটি স্লট। এর যেকোন দুইটিতে আলাদা আলদা সময়ে গড়াতে পারে ডিপিএল। যাতে তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদদের পেতে পারে দলগুলো।

তবে এই সংস্কৃতি থেকে বের হওয়ার চেষ্টাও করছে বিসিবি। বিশ্বের অন্যান্য দেশের মত জাতীয় দলের খেলাকে এক পাশে রেখে যথারীতি নিজেদের ঘরোয়া ক্রিকেট চালিয়ে যাওয়ার পথে হাঁটতে পারে দেশের ক্রিকেট নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

আজ (১৩ মার্চ) মিরপুরে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে বিসিবি পরিচালক ইসমাইল হায়দার মল্লিক বলেন,

‘দেখুন ক্যালেন্ডার মিটিংয়ে আমরা পাঁচ বছরের জন্য ক্যালেন্ডার ফিক্স করছি। সেখানে এসব (জাতীয় দলের খেলোয়াড়দের জন্য টুর্নামেন্ট আঁটকে থাকা) কথা এসেছে। বাংলাদেশের ক্রিকেটের যে পরিমাণে ব্যস্ত সফর ও সিরিজ আছে ভবিষ্যতে, তাতে অনেক সময়ই জাতীয় দলের খেলোয়াড়রা এনসিএল, বিসিএল বা ঢাকা লিগে অংশ নিতে পারবে না। এটা মাথায় রেখে করা হচ্ছে।’

তবে এবার গতবছরের স্থগিত ডিপিএল আয়োজন হবে বলেই পরিবর্তন সম্ভব হচ্ছেনা বলে জানালেন বিসিবির এই পরিচালক,

‘এবার মে মাসে ঢাকা লিগের স্লট দেয়া হচ্ছে…দলবদল তো আগেই হয়ে গেছে। এ জিনিসটা এবার আমাদের মাথায় আছে।’

‘জাতীয় দলের খেলোয়াড়সহ যেহেতু দলবদল হয়েছে, আমরা সেইম ট্রান্সফার উইন্ডো মাথায় রেখে এবার কনসিডারেশন করছি। সে কারণে জাতীয় দলের খেলোয়াড়রা অ্যাভেইলেভেল থাকে তখনই হবে। এজন্য যদি দুই ভাগে করতে হয় তাহলে দুই ভাগেই করতে হবে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলের সাবেক কোচ নিয়োগ পেলেন আইপিএলে

Read Next

কুইন্সটাউন স্বর্গে জেট বোটিং আর বানজি জাম্পে টাইগারদের একদিন

Total
5
Share