অনুতপ্ত শাহাদাত করলেন সাজা কমানোর আবেদন

অনুতপ্ত শাহাদাত করলেন সাজা কমানোর আবেদন
Vinkmag ad

পাঁচ বছরের নিষেধাজ্ঞায় থাকা পেসার শাহাদাত হোসেন রাজীব বোর্ডের কাছে সাজার মেয়াদ কমানোর আবেদন করেছেন। ক্রিকেট থেকে দূরে থাকায় রুটি রুজি নিয়ে সংকটে পড়তে হয়েছে এই পেসারকে। পাশাপাশি অসুস্থ মায়ের চিকিৎসা ব্যয় চালিয়ে নিতে ক্রিকেট খেলাটা বড্ড জরুরি বলে দাবি শাহাদাতের।

বেশ সম্ভাবনা নিয়ে বাংলাদেশ দলে আবির্ভাব ডানহাতি এই পেসারের। চোটে পড়ে মাশরাফি বিন মর্তুজা যখন টেস্ট ক্রিকেটকে অলিখিতভাবে বিদায় বলে দেন তখন শাহাদাতেই স্বপ্ন দেখেছিল কোটি ভক্ত। লর্ডসে পাঁচ উইকেট তুলে নিয়ে নাম লেখান অনার্স বোর্ডে। সাদা পোশাকে রঙিন শুরু পেলেও ব্যক্তিগত জীবনে শৃঙ্খলা ছেড়ে একসময় হতে থাকেন ধূসর।

সময়ের সাথে সাথে নানা বিতর্কে ক্যারিয়ারে কালিমা লাগান। সর্বশেষে নিষিদ্ধও হয়েছেন বিতর্কিত কান্ডে। ২০১৯ সালে জাতীয় লিগের ম্যাচ চলাকালীন খুলনার শেখ আবু নাসের স্টেডিয়ামে সতীর্থ আরাফাত সানি জুনিয়রের গায়ে মাঠেই হাত তোলেন। এরপরই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) তাকে পাঁচ বছরের জন্য সব ধরণের ক্রিকেট থেকে বহিষ্কার করে।

নিষেধাজ্ঞার সময়টায় বিসিবির কোন অবকাঠামো ব্যবহারের সুযোগ পাবেন না শাহাদাত। কিন্তু গতকাল (২৭ ফেব্রুয়ারি) নিজের অজান্তেই মিরপুরে নেটে বল করতে আসেন নুরুল হোসেন সোহানকে। কিন্তু বিষয়টি নজরে আসতেই মিরপুরের কিউরেটর গামিনি ডি সিলভা ডেকে নিয়ে শাহাদাতকে জানিয়ে দেন তিনি কোন কার্যক্রমই চালাতে পারবেন না বিসিবির অবকাঠামো ব্যবহার করে।

এদিকে নিজের শাস্তির মেয়াদ কমানোর আবেদন করা প্রসঙ্গে ৩৪ বছর বয়সী এই পেসার ক্রিকেট ওয়েবসাইট ‘ক্রিকবাজকে’ বলেন, ‘আমি আমার সাজা কমানোর জন্য বোর্ডের কাছে আবেদন করেছি, এখন বাকিটা তাদের উপর। আমার ক্যান্সার আক্রান্ত মায়ের চিকিৎসা ব্যয় চালিয়ে নিতে আবারও প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে ফেরা জরুরি হয়ে পড়েছে।’

‘ক্রিকেট ছাড়া আমি কোন কিছু পারিনা যে সেটা করবো। আমি আমার ভুলের জন্য অনুতপ্ত, এবং কথা দিচ্ছি ভবিষ্যতে যদি বোর্ড এমন কোন অভিযোগ পেয়ে থাকে আমি আমার চেহারা দেখাবোনা।’

এদিকে মিরপুরে ভুল করে নেটে বল করা প্রসঙ্গে বাংলাদেশের হয়ে ৩৮ টেস্ট, ৫১ ওয়ানডে ও ৬ টি-টোয়েন্টি খেলা শাহাদাত বলেন, ‘আমি জানতাম না যে বল করতে পারবনা। আমি সেখানে নেট বোলার হিসেবে বল করছিলাম, হঠাত প্রধান কিউরেটর গামিনি এসে আমাকে ওখান থেকে চলে যেতে বলল। এটা শুনে আমি চোখের পানি আটকাতে পারিনি। কারণ সেখানে আরও অনেক নেট বোলার ছিল যারা এখনো বড় কোন টুর্নামেন্টেই খেলেনি, যেখানে আমি লর্ডসের অনার্স বোর্ডে নিজের নাম লিখিয়েছি।’

২০১৫ সালে সর্বশেষ বাংলাদেশের জার্সি গায়ে খেলেছেন শাহাদাত। ৩৮ টেস্টের ক্যারিয়ারে উইকেট সংখ্যা ৭২, যা বাংলাদেশি পেসারদের মধ্যে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ। ৫১ ওয়ানডেতে উইকেট ৪৭ টি, ৬ টি-টোয়েন্টিতে ৪ টি।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

তানভীরের ‘১৩’, ইনিংস ব্যবধানে জিতল বাংলাদেশ ইমার্জিং দল

Read Next

নারী ক্রিকেটারের সাথে বাদানুবাদ, বার্নসকে ইসিবির ভর্ৎসনা

Total
3
Share