বিয়ে নিয়ে বিতর্ক, মুখ খুললেন নাসির-তামিমা

বিয়ে নিয়ে বিতর্ক, মুখ খুললেন নাসির-তামিমা

২০১১ সালের আগস্টে বাংলাদেশের হয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেক হয় নাসির হোসেনের। অফ স্পিনিং এই অলরাউন্ডার দ্রুতই জয় করে নেনে সমর্থকদের মন, পান ফিনিশারের তকমা। তবে ব্যক্তিগত জীবনে কয়েক দফায় ভিন্ন ভিন্ন ইস্যুতে সমালোচিত হন তিনি। যার সর্বশেষটি শুরু হয় নাসিরের বৈবাহিক জীবন শুরু হবার পর থেকে।

বেশ ঘটা করেই ১৪ ফেব্রুয়ারি বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন নাসির হোসেন। পেশায় কেবিন ক্রু স্ত্রী তামিমা ও নাসিরের কাবিন, গায়ে হলুদের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়। এরপরেই বাধে বিপত্তি।

রাকিব নামের একজন দাবি করেন তামিমা এখনো তার স্ত্রী, তাদের সংসারে এক সন্তান রয়েছে। আইন না মেনে নাসিরের সাথে তার বিয়ে হয়েছে।

এতদিন এই বিষয়ে কোন মন্তব্য না করলেও আজ স্ত্রী ও আইনজীবীকে সাথে নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন নাসির হোসেন। সেখানে নিজেদের অবস্থান পরিষ্কার করার পাশাপাশি উত্তর দেন সাংবাদিকদের প্রশ্নের।

নাসিরের স্ত্রী তামিমা জানান, রাকিবের সাথে তার বিয়ে হওয়া ও তাদের সন্তান থাকা ছাড়া রাকিবের তরফ থেকে আসা আর কোন কথার কোন ভিত্তি নেই। তিনি জানান, ২০১৬ সালে তাদের ডিভোর্সের প্রক্রিয়া শুরু হয়ে ২০১৭ তে সম্পন্ন হয়।

No description available.

নাসির জানান তামিমার বাচ্চা আছে, তার ডিভোর্স হয়েছে এসব জেনেশুনেই তিনি তামিমাকে বিয়ে করেছেন। ৪ বছর ধরে তিনি তামিমাকে চেনেন বলে জানান তিনি। শুরুতে বন্ধুত্ব, পরে ভালোবাসার সম্পর্ক পরিণতি পায় বিয়ের মাধ্যমে।

নাসির বলেন তামিমা এখন তার স্ত্রী, তিনি চান না কেউ তার বৌ এর দিকে আঙ্গুল তুলে কথা বলুক।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব না ছড়াতে অনুরোধ করেন নাসির, প্রয়োজনে তিনি আইনগত ব্যবস্থা নিবেন বলে জানান।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

আইসিসিকে প্রশ্ন ছুঁড়ে দিলেন শহীদ আফ্রিদি

Read Next

রোটেশন পলিসিতে বিরক্ত মাইকেল ভন

Total
3
Share