বিসিবির সাথে ইভ্যালির ‘ফ্রিকুয়েন্সি’ এর মিল

বিসিবির সাথে ইভ্যালির 'ফ্রিকুয়েন্সি' এর মিল

আগামী মাস থেকে শুরু হতে যাওয়া বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার সিরিজে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের টিম স্পন্সর হয়েছে ইভ্যালি, দলের কিট স্পন্সর হিসাবে থাকবে ইফুড। ইভ্যালির সাথে বিসিবির পথচলা শুরু, যেটা লম্বা সময় টেনে নিয়ে যেতে চায় প্রতিষ্ঠানটি।

বাংলাদেশ দলের টিম স্পন্সর ঘোষণার জন্য বিসিবির মিডিয়া সেন্টারে আজ এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরী, বিসিবির ফাইন্যান্স অ্যান্ড অ্যাকাউন্টস ইনচার্জ আব্দুল মান্নান সরকার। ইভ্যালির পক্ষে উপস্থিত ছিলেন ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ রাসেল, প্রধান মার্কেটিং অফিসার আরিফ আর হুসাইন ও চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিন।

ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী মোহাম্মদ রাসেল বলেন, ‘প্রথমেই ধন্যবাদ জানাচ্ছি বিসিবির প্রধান নির্বাহী ও অন্যান্য যারা উপস্থিত আছেন। যারা সাংবাদিক আছেন, সত্যি কথা বলতে আমি এই প্রথম একসাথে এত সাংবাদিক দেখছি, বেশ এক্সাইটেড ফিল করছি। আপনারা জানেন যে, ইভ্যালি শুরু থেকেই নানা ভাবে ক্রিকেটের সাথে সম্পৃক্ত ছিল। ভারত বা অন্য দেশগুলোতে দেখবেন টিম স্পন্সর টেকনোলজিক্যাল কোন সেক্টর থেকে এসেছে। আমাদের একটা স্বপ্ন ছিল।’

নতুন প্রতিষ্ঠান হিসাবে ইভ্যালির সাথে যুক্ত হবার সুযোগ করে দেওয়ায় বিসিবিকে ধন্যবাদ জানান তিনি। বলেন সমর্থন পেলে বিদেশেও একটা অবস্থান তৈরি করতে পারবে ইভ্যালি।

‘আমরা যে জায়গা থেকে বেশি এক্সাইটেড তা হল বাংলাদেশ জাতীয় দলের সিরিজের মত প্রেস্টিজিয়াস ইভেন্টে টিম স্পন্সর হয়ে থাকতে পারা। আমরা যারা স্টার্ট আপ ফাউন্ডার তাদের জন্য এটা একটা ইন্সপাইরেশন। আমরা দেশের ই কমার্স মার্কেটে এখন লিড দিচ্ছি, আপনাদের (বিসিবির মত কর্পোরেট প্রতিষ্ঠান) সমর্থন পেলে বিদেশের মার্কেটেও অবস্থান তৈরি করতে পারব।’

বাংলাদেশ নিউজিল্যান্ড সফরে যেয়ে দারুণ কিছু করবে বলে বিশ্বাস রাসেলের। আশা করেন বাংলাদেশ সব ম্যাচেই জিতবে। সবসময় বিসিবির সাথে থাকার আশ্বাস দেন তিনি।

‘বাংলাদেশ দলকে শুভকামনা জানাচ্ছি। আমরা আশা করব নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সবকটি ম্যাচই আমরা জিতব। আমি ক্রিকেট প্রেমী, আমাদেরকে বিসিবির বলতে হবে না ইভ্যালিকে পাশে থাকতে। দীর্ঘমেয়াদী ভাবে সাথে থাকা সম্ভব হবে কিনা জানি না তবে আমরা সবসময়ই পাশে থাকব। ই কমার্স সাইট ইভ্যালি ও ফুড ডেলিভারি প্রতিষ্ঠান ইফুড দুই নিয়েই আমরা পাশে থাকবো।’

ইভ্যালির প্রধান মার্কেটিং অফিসার আরিফ আর হুসাইন বলেন, ‘আমি আমাদের সিইও’র কথা ধরেই বলি। আমরা আমাদের লোকাল এন্ট্রাপেনোর বলি বা স্টার্ট আপই বলি, আমার মনে হয় আমরা সবচেয়ে কণিষ্ঠতম কর্পোরেট যারা বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সাথে জড়িত হবার সুযোগ পেয়েছে। সেজন্য আমি ধন্যবাদ দিতে চাই বিসিবির সিইও থেকে শুরু করে সকল কর্মকর্তাদের।’

বিসিবির সাথে ইভ্যালির ফ্রিকুয়েন্সির মিল দেখেন আরিফ আর হুসাইন। সিইও’র সাথে সুর মিলিয়ে সিএমও ও বললেন বিসিবির সাথে থাকবে ইভ্যালি।

‘সিএমও (প্রধান মার্কেটিং অফিসার) হিসাবে আমার আসলে আজকে বলা উচিত মার্কেটিং পারস্পেক্টিভ নিয়ে কথা। কিন্তু বিশ্বাস করেন মার্কেটিং পারস্পেক্টিভ নিয়ে এখানে বলার কিছুই নেই, বরং আছে মনস্তাত্ত্বিক পারস্পেক্টিভ নিয়ে কথা বলার। আমাদের ইভ্যালির মোটো হচ্ছে, ‘বিলিভ ইন ইউ’। আমরা নিজেকে বিশ্বাস করতে বলি। বিশ্বাস করতে বলি আমাদের নিজেদের মধ্যে একটা টাইগার, ক্ষিপ্রতা লুকিয়ে আছে- ‘বিলি ইন দ্য টাইগার ইন ইন ইউ’। এখানেই বিসিবির সাথে আমাদের ফ্রিকুয়েন্সির মিলটা। এর বিন্দুমাত্র বেশি কিছু না। এটা একটা পথচলার শুরু হল, তবে এটা চলমান রাখতে আমাদের অফিস থেকে কোন কার্পন্যতা করা হবে না। আনুষ্ঠানিকভাবে না পারলেও অনানুষ্ঠানিকভাবে সারাজীবন বিসিবির সাথে থাকার চেষ্টা করব।’

‘করোনা পরিস্থিতির পর এই প্রথম বাংলাদেশ দল কোন বিদেশ সফরে যাচ্ছে। আমরা আশা করব বাংলাদেশ দারুণ একটা ফল নিয়ে আসবে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

বাংলাদেশের টিম স্পন্সর ইভ্যালি, কিট স্পন্সর ইফুড

Read Next

গুঞ্জনের আগুনে পানি ঢাললেন বিসিবি সভাপতি

Total
13
Share