উচ্ছ্বসিত মিরাজ কোন লক্ষ্য স্থির করেন না

হাসান মিরাজ বোলিং

ঢাকা টেস্টের তৃতীয় দিন বাংলাদেশের চতুর্থ বোলার হিসেবে টেস্টে ১০০ উইকেটের মাইলফলক স্পর্শ করেছেন মেহেদী হাসান মিরাজ। মিরাজই দেশের দ্রুততম ও কনিষ্ঠতম বোলার হিসেবে এই মাইলফলক ছুঁয়েছেন। তার আগে এমন কীর্তি গড়া তিনজনই বাঁহাতি স্পিনার। একমাত্র ডানহাতি অফ স্পিনার হিসেবে মিরাজ ১০০ উইকেট শিকারের পর আনন্দিত। ক্যারিয়ার শেষে কোথায় থামতে চান সে লক্ষ্য স্থির করতে চান না, যতদিন খেলবেন ভালো ক্রিকেট খেলতে চান।

এই টাইগার অফ স্পিনার ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজ শুরুর আগে অপেক্ষায় ছিলেন ২২ ম্যাচে ৯০ উইকেট নিয়ে। চট্টগ্রামে প্রথম টেস্টেই মাইলফলক স্পর্শের পথে ছিলেন। শেষ পর্যন্ত না পারলেও দুই ইনিংস মিলিয়ে ৮ উইকেট শিকার করে এগিয়ে যান অনেকটাই।

২৩ ম্যাচে ৯৮ উইকেট নিয়ে ঢাকা টেস্ট শুরু করা মিরাজ এই ম্যাচেই উইকেটের সেঞ্চুরি পূর্ণ করবেন অনেকটা অনুমেয়ই ছিল। কিন্তু প্রথম ইনিংসে মাত্র এক উইকেট নেওয়াতে অপেক্ষা বাড়ে দ্বিতীয় ইনিংস পর্যন্ত।

১১৩ রানের লিড নিয়ে নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করে ক্যারিবিয়ানরা। প্রথম ইনিংসে সাবলীল ব্যাটিং করা ওয়েস্ট ইন্ডিজ দ্বিতীয় ইনিংসে কিছুটা হলেও ধুকছেন বাংলাদেশি স্পিনারদের সামলাতে গিয়ে। ২০ রানেই তারা হারায় প্রথম দুই উইকেট।

তিন নম্বরে নামা শেইন মোসলেকে স্লিপে দাঁড়ানো মোহাম্মদ মিঠুনের ক্যাচে পরিণত করে নিজের শততম টেস্ট উইকেট শিকার করেন মিরাজ। বাংলাদেশের চতুর্থ বোলার হিসেবে এই কীর্তি গড়েছেন এই অফ স্পিনার। মিরাজ সহ চারজনই স্পিনার। বাকি তিনজন হলেন মোহাম্মদ রফিক, সাকিব আল হাসান ও তাইজুল ইসলাম।

তবে মিরাজ একটা জায়গায় সবার চেয়ে এগিয়ে। বাংলাদেশের হয়ে দ্রুততম ১০০ উইকেট তারই। ২৪ টেস্টেই এই মাইলফলক স্পর্শ করেন মিরাজ। যেখানে মোহাম্মদ রফিকের ৩৩, সাকিবের ২৮ ও তাইজুলের লেগেছিল ২৫ ম্যাচ। ২৩ বছর বয়সী মিরাজ এই কীর্তি গড়ার ক্ষেত্রে দেশের মধ্যে কনিষ্ঠতমও বটে।

দিনশেষে সংবাদ সম্মেলনে মিরাজ এই মাইলফলক নিয়ে বলেন, ‘একশো উইকেট পেয়েছি, খুব ভালো লাগছে। আলহামদুল্লিাহ, তারা বাঁহাতি স্পিনার হিসেবে পেয়েছে। আমি ডানহাতি অফস্পিনার হিসেবে দ্রুততম একশো উইকেট পেয়েছি, এটা আমাকে আরও ভালো করতে অনুপ্রেরণা যোগাবে। আমি চেষ্টা করবো, দেশের হয়ে আরও উইকেট নেওয়ার জন্য। যা আমার ক্যারিয়ারের জন্য অনেক ভালো হবে।’

লক্ষ্য সম্পর্কে জানাতে গিয়ে এই অলরাউন্ডার বলেন, ‘ভবিষ্যতের কথাতো কেউ বলতে পারে না। তবে আমার স্বপ্ন ক্যারিয়ারটাকে অনেক দূর নিয়ে যেতে। কত উইকেট থামতো, কত রান করবো এটাতো আগে থেকে বলা সম্ভব নয়। কখনো লক্ষ্য স্থির করলে আমার জন্য চাপ হয়ে যায়। চলছে, চলবে। যতদিন ক্রিকেট খেলবো, ভালো কিছুই হবে ইন শা আল্লাহ।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

শেষ বিকালে তাইজুল-মিরাজদের স্পিন ঝলক

Read Next

বোনারকে চ্যালেঞ্জ মানছেন মিরাজ

Total
3
Share