দ্বিতীয় সেশনেই ম্যাচে ফিরল বাংলাদেশ

দ্বিতীয় সেশনেই ম্যাচে ফিরল বাংলাদেশ

চট্টগ্রামের মত মিরপুর টেস্টেও স্পিনেই আধিক্যতা দেখিয়েছে বাংলাদেশ। তবে প্রথম দিনের প্রথম দুই সেশনে টাইগারদের সাফল্যের প্রায় পুরোটাই পেসারদের হাত ধরে। দিনের প্রথম সেশনটা ওয়েস্ট ইন্ডিজের হলেও রাহির জোড়া আঘাতের সাথে সৌম্য সরকারের এক উইকেটে দ্বিতীয় সেশনটা বাংলাদেশেরই।

১ উইকেটে ৮৪ রান নিয়ে লাঞ্চে যাওয়া ক্যারিবিয়ানরা চা বিরতিতে যায় ৪ উইকেটে ১৪৬ রান নিয়ে। আগের ম্যাচে রেকর্ড গড়া ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকানো কাইল মায়ের্স এদিন করতে পারেননি ৫ রানের বেশি। ফিফটির আগেই থেমেছেন অধিনায়ক ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েটও। ৩০ রানে এনক্রুমাহ বোনার ও ১৮ রানে অপরাজিত আছেন জার্মেইন ব্ল্যাকউড।

দিনের প্রথম সেশনে উইকেট শূন্য থাকলেও দারুণ বোলিংয়ে নজর কাড়েন রাহি। তবে প্রাপ্য উইকেটটা পেতে লাঞ্চের পর বেশিক্ষণ অপেক্ষা করতে হয়নি তাকে। সেশনে নিজের তৃতীয় ওভারেই শট খেলাতে বাধ্য করেন শেইন মোসলেকে। টানা কয়েকটি বলই অফ স্টাম্পের বাইরে থেকে হালকা ইনসুইং করান। আউট হওয়া বলে মোসলে অফ স্টাম্পের বেশ বাইরের বল খেলতে গিয়ে ব্যাট থেকে স্টাম্পে নিয়ে আসেন। বোল্ড হওয়ার আগে করতে পারেন ৭ রান।

ইনিংসের ৩৮ তম ওভারে বল হাতে আক্রমণে আসেন খন্ডকালীন পেসার সৌম্য সরকার। একাদশে তার অন্তর্ভূক্তি নিয়ে কম জল ঘোলা না হলেও সাফল্য পেতে খুব বেশি সময় নেননি।

সাকিব আল হাসানের বদলি হিসেবে খেলতে নামা সৌম্য দারুণ খেলতে থাকা প্রতিপক্ষ অধিনায়ককে সাঝঘরের পথ দেখান। স্লিপে দাঁড়ানো নাজমুল হোসেন শান্তর হাতে ক্যাচ দেওয়ায় মিস করতে হয়েছে ফিফটি। ১২২ বল খেলে ৪ চারের সাহায্যে করেন ৪৭ রান।

নতুন ব্যাটসম্যান হিসেবে ক্রিজে আসা আগের ম্যাচের রেকর্ড বয় কাইল মায়ের্সকে বেশিক্ষণ টিকতে দেননি ম্যাচে এখনো পর্যন্ত টাইগারদের সেরা বোলার রাহি। ফুল লেংথে পড়া তার ডেলিভারিটি বেশ ভালোভাবেই ড্রাইভ খেলার চেষ্টা এই বাঁহাতির। তবে বব্যাটে বলের সংযোগটা ঠিকঠাক না হওয়াতে ধরা পড়েন ওয়াইড স্লিপে। ১৮ বল খেলে ৫ রানেই ইতি ঘটে তার ইনিংসের।

২৯ রানের ব্যবধানে ৩ উইকেট হারানো ওয়েস্ট ইন্ডিজ অবশ্য বিপর্যয় কাটানোর আশার আলো দেখছে এনক্রুমাহ বোনার ও জার্মেইন ব্ল্যাকউডের ব্যাটে। চা বিরতির আগে দুজনের অবিচ্ছেদ্য জুটি ২২ রানের। আগের ম্যাচে ৮৬ রান করে মায়ের্সকে দারুণ সঙ্গ দেওয়া বোনার অপরাজিত আছেন ৩০ রানে, ব্ল্যাকউড ১৮ রানে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর (১ম দিন, ২য় সেশন শেষে):

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১৪৬/৪ (৫৮), ব্র্যাথওয়েট ৪৭, ক্যাম্পবেল ৩৬, মোসলে ৭, বোনার ৩০*, মায়ের্স ৫, ব্ল্যাকউড ১৮*; রাহি ১৫-৫-৩২-২, তাইজুল ১৯-৪-৪১-১, সৌম্য ৭-১-২৩-১।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

ওয়েস্ট ইন্ডিজের দারুণ শুরু

Read Next

যে কারণে একাদশে সুযোগ হয়নি বিকল্প ওপেনার সাইফ হাসানের

Total
22
Share