মায়ের্স-বোনারের রেকর্ড গড়া জুটি, টাইগার শিবিরে হতাশা

মায়ের্স-বোনারের রেকর্ড গড়া জুটি, টাইগার শিবিরে হতাশা
Vinkmag ad

দিনের প্রথম সেশনে ক্যাচ মিস, রিভিউ না নেওয়ার কারণে হতাশায় পোড়া বাংলাদেশকে চা বিরতির আগে স্রেফ নীরব দর্শক বানিয়ে রাখলো দুই অভিষিক্ত ওয়েস্ট ইন্ডিজ ব্যাটসম্যান। ৩৯৫ রানের পাহাড়সম লক্ষ্য তাড়ার পথে কাইল মায়ের্স ও ক্রুমাহ বোনার গড়ছেন রেকর্ড। আগেরদিন জয়ের আভাস পাওয়া বাংলাদেশ এখন ম্যাচ বাঁচাতেই মরিয়া।

চা বিরতির আগে মায়ের্স অপেক্ষায় ছিলেন সেঞ্চুরির (৯১*) বোনারের অপেক্ষা ছিল ফিফটির (৪৩*)। দুজনেই চা বিরতির পর পেয়েছেন সেঞ্চুরি ও ফিফটি। ক্রিকেট ইতিহাসের ১০৯ তম ব্যাটসম্যান হিসেবে মায়ের্স অভিষেক ম্যাচে দেখা পেলেন সেঞ্চুরির ।

গত ১০ বছরে এই বাঁহাতিই ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে এই কীর্তি গড়লেন। ২০১১ সালে ভারতের বিপক্ষে অভিষেক ম্যাচেই সেঞ্চুরি হাঁকান ক্যারিবিয়ান ব্যাটসম্যান কার্ক এডওয়ার্ড, খেলেছেন ১১০ রানের ইনিংস।

চা বিরতির আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ২৬৬ রান। মায়ের্স-বোনার জুটি অবিচ্ছেদ্য আছে ২০৭ রানে। যে পথে দুজনে গড়েছেন দুই অভিষিক্ত ব্যাটসম্যানের সর্বোচ্চ জুটির রেকর্ড। আগের সর্বোচ্চ ছিল ১৩৪, বাংলাদেশের বিপক্ষে করাচি টেস্টে এই জুটি বাঁধেন দুই পাকিস্তানি অভিষিক্ত ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ হাফিজ ও ইয়াসির হামিদ।

১৭৮ বলে নিজের অভিষেক সেঞ্চুরি ছোঁয়ার মাধ্যমে মায়ের্স রেকর্ড গড়েছেন আরও একটি। সবমিলিয়ে ৮ম ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের তৃতীয় ব্যাটসম্যান হিসেবে অভিষেক ম্যাচের চতুর্থ ইনিংসে সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন।

তবে সব ছাপিয়ে দলকে বিপর্যয় থেকে টেনে তুলতে মায়ের্স-বোনার যে জুটি গড়েছেন তা নিঃসন্দেহে টেস্ট ক্রিকেটের সৌন্দর্যকে বাড়িয়ে দেয়। টানা ৭৩.৪ ওভার উইকেট বিহীন বাংলাদেশি বোলাররা। ২১৩ বলে ১৩ চার ১ ছক্কায় মায়ের্স অপরাজিত আছেন ১১৭ রানে। ২৪২ বল খেলে সেঞ্চুরির অপেক্ষায় বোনারও। ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান অপরাজিত ৭৯ রানে। জয়ের জন্য শেষ সেশনে হাতে ৭ উইকেট নিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রয়োজন ১২৯ রান।

প্রথম সেশনের মত খুব বেশি সুযগ না দিলেও চা বিরতির আগে শেষ ওভারের তৃতীয় বলে বোনারের দেওয়া স্টাম্পিংয়ের সুযোগ মিস করেন লিটোন দাস। উইকেট রক্ষক এই ব্যাটসম্যান অবশ্য বেশ কিছুক্ষণ ধরেই ভুগছিলেন অ্যাঙ্কেল ইনজুরিতে। নাইম হাসানের বলে এই সুযোগটি কাজে লাগাতে পারলে বোনার ফিরতেন ৭৯ রানেই।

সংক্ষিপ্ত স্কোর (৫ম দিন ২য় সেশন শেষে):

বাংলাদেশ ৪৩০ও ২২৩/৮ (ইনিংস ঘোষণা)

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২৫৯ ও ২৬৬/৩ (৯৭), ব্র্যাথওয়েট ২০, ক্যাম্পবেল ২৩, মোসলে ১২, বোনার ৭৯*, মায়ের্স ১১৭*; মিরাজ ৩০-৩-৯২-৩

৩২ ওভারে ওয়েস্ট ইন্ডিজের দরকার ১২৯ রান, বাংলাদেশের ৭ উইকেট।

চট্টগ্রাম থেকে, ক্রিকেট৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

চলে গেলেন অভিষেকেই রেকর্ড গড়া ব্রুস টেইলর

Read Next

বাংলাদেশকে মাটিতে নামিয়ে চট্টগ্রামে মহাকাব্য লিখলেন কাইল মায়ের্স

Total
4
Share