দক্ষিণ আফ্রিকায় ফিরছেন অ্যাবট, নেই অনুশোচনা

দক্ষিণ আফ্রিকায় ফিরছেন অ্যাবট, নেই অনুশোচনা

২০১৭ সালে ইংলিশ কাউন্টি দল হ্যাম্পশায়ারের সাথে চার বছরের কলপ্যাক চুক্তি করা দক্ষিণ আফ্রিকাণ পেসার কাইল অ্যাবট চলতি বছর নিজ দেশের ক্রিকেটে ফেরার অপেক্ষায়। ৯ জানুয়ারি থেকে শুরু হতে যাওয়া দক্ষিণ আফ্রিকার ঘরোয়া ওয়ানডে লিগে খেলবেন টাইটানের হয়ে।

দক্ষিণ আফ্রিকার যেসব ক্রিকেটার বিদেশি খেলোয়াড় হিসেবে কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপে অংশ নেন তারা বর্তমানে যুক্তরাজ্য কিংবা ইউরোপীয় ইউনিয়নের অংশ না হওয়ায় দেশে ফেরার অনুমতি পাচ্ছেন। ফলে বাতিল হচ্ছে সব ধরণের কলপ্যাক চুক্তি। এর আগে নিয়মানুসারে কলপ্যাক চুক্তিতে আবদ্ধ হলে চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ার আগ পর্যন্ত নিজ দেশে ফেরার অনুমতি ছিল না।

আর কলপ্যাক চুক্তি বাতিল হওয়ার পর প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে নিজ দেশের ঘরোয়া ক্রিকেট শুরু করতে যাচ্ছেন অ্যাবট। তবে তার মত যেসব ক্রিকেটার নিজ দেশের হয়ে খেলার ইচ্ছেকে দূরে সরিয়ে যুক্তরাজ্যে পাড়ি জমিয়েছিল তাদের জন্য বর্তমান পরিস্থিতি সাংঘর্ষিক মানসিকতা হয়ে সামনে আসবে।

সংবাদমাধ্যমকে কলপ্যাক চুক্তির অবসান সম্পর্কে বলতে গিয়ে ৩৩ বছর বয়সী অ্যাবট জানান, ‘কলপ্যাক চুক্তি বাতিল হওয়ায় অনেক লোকের জন্য দরজা বন্ধ হয়ে গেল। এটা দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটারদের ধরে রাখার ক্ষেত্রে ভালো হল। ঘরোয়া ক্রিকেটে যত বেশি অভিজ্ঞতা ও কম জল ঢালা হবে ততই ভালো।’

তবে কলপ্যাক চুক্তি করে নিজ দেশ ছেড়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত কঠিন ছিল সেটা তুলে ধরে অ্যাবট যোগ করেন, ‘লোকে অনুধাবন করতে পারেনা এমন একটা সিদ্ধান্ত নেওয়া আমদের জন্য কখনোই সহজ ছিলনা। লোকে অনেক কথাই বলবে। একদিকে দক্ষিণ আফ্রিকানরা আমাদের যাওয়া চায়না, অন্যদিকে ইংলিশরাও আমাদের সেখানে দেখতে চায়না।’

কলপ্যাক চুক্তি নিয়ে কোন অনুশোচনা নেই উল্লেখ করে দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ১১ টেস্ট, ২৮ ওয়ানডে ও ২১ টি-টোয়েন্টি খেলা ডানহাতি এই পেসার বলেন, ‘দিনশেষে এটা নিখুঁত ক্যারিয়ারের সিদ্ধান্ত ছিল। আর আমি যা করেছি তার জন্য আমার কোন অনুশোচনা নেই।’

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

যেকারণে বাংলাদেশ সফরে আসেননি নিকোলাস পুরান

Read Next

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকে বিসিসিআইয়ের চিঠি

Total
3
Share