যেকারণে কঠোর হতে পারছে না বিসিবি

বাংলাদেশ- ওয়েস্ট ইন্ডিজ
Vinkmag ad

জানুয়ারিতে পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ সফর করার কথা ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের। তবে সফর সংক্ষিপ্ত করতে ফরম্যাটভিত্তিক আলাদা দল আনার ঝামেলা কমাতে টি-টোয়েন্টি সিরিজটি বাদ দিতে চায় ক্যারিবিয়ানরা। কমতে পারে তিন টেস্টের একটিও। তবে বৈশ্বিক বর্তমান পরিস্থিতি আমলে নিয়ে ক্যারিবিয়ায়নদের চাওয়াই মেনে নিচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

করোনা পরবর্তী আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরার ক্ষেত্রে ওয়েস্ট ইন্ডিজ রেখেছে সক্রিয় ভূমিকা। গত জুলাইয়ে ইংল্যান্ড সফরে গিয়ে টেস্ট সিরিজ খেলার মাধ্যমে প্রত্যাবর্তন হয়েছিল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের। বর্তমানে নিউজিল্যান্ডে সফরে টেস্ট সিরিজ চলা ক্যারিবিয়ানরা বাংলাদেশ সফরে এসে ভূমিকা রাখবে টাইগার ক্রিকেটারদের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট প্রত্যাবর্তনেও। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরা জরুরী বলেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের চাওয়া মেনে সিরিজে কাটছাঁট করতেও রাজি বিসিবি।

বিসিবি পরিচালক খালেদ মাহমুদ সুজন গণমাধ্যমকে এ প্রসঙ্গে বলেন, ‘টি-টোয়েন্টি আমরা মনে হয় খেলছিনা। কারণ ওয়েস্ট ইন্ডিজ খেলতে চাচ্ছে না, ওরা সফরটা সংক্ষিপ্ত করতে চাচ্ছে। ওদের টি-টোয়েন্টি দল যেহেতু একদম ভিন্ন সেহেতু আলাদা করে উড়িয়ে আনা… হয়তোবা এসব সমস্যা থাকতে পারে। কিন্তু ওয়েস্ট ইন্ডিজ আসছে এটাই আমাদের জন্য বড় ব্যাপার হবে।’

‘একটা টেস্ট ম্যাচও কমে যেতে পারে। আসলে বিশ্বজুড়ে পরিস্থিতিটা এমন যে কিছু ক্ষেত্রে আমরা কঠোরও হতে পারছিনা। আপনারা জানেন লম্বা সময় কোয়ারেন্টাইনে থাকাটা মানসিকভাবে কতটা কঠিন ক্রিকেটারদের জন্য।’

‘এটা সহজ নয়। মাঠে তারা খেলছে কিন্তু সারাদিন মাঠে আর হোটেলে বন্দী এই জীবনটা আসলে কারও জন্যই সুখকর না। তারপরও ওয়েস্ট ইন্ডিজ আসুক, দুইটা হোক তিনটা হোক টেস্ট খেলুক। আমাদের ছেলেরা টেস্ট ক্রিকেটে ফিরবে এটাই বড় জিনিস।’ যোগ করেন খালেদ মাহমুদ সুজন।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

দক্ষিণ আফ্রিকার টেস্ট দলে ‘৩’ নতুন মুখ, অধিনায়ক ডি কক

Read Next

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ইংল্যান্ডের টেস্ট স্কোয়াড ঘোষণা

Total
3
Share