অচিরেই চেনা রূপে ফিরছেন সাকিব, বলছেন আফতাব-সুজন

সাকিবকে ফেরালেন মুগ্ধ

নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে দীর্ঘ বিরতির পর বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপ দিয়ে মাঠে ফিরেছেন সাকিব আল হাসান। জেমকন খুলনার হয়ে ব্যাট হাতে ঠিক চেনা ছন্দে নেই, রান করেছেন চার ম্যাচ ৪১! বল হাতে অবশ্য প্রতি ম্যাচেই অবদান রেখেছেন। ৪ ম্যাচে উইকেট মাত্র দুটি, তবে প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের রান করাতে আঁটকেছেন ভালোভাবে। সাকিব বলেই দ্রুত ব্যাট হাতে কামব্যাক করবে বলে বিশ্বাস দলটির ব্যাটিং কোচ আফতাব আহমেদের।

আফতাব আহমেদ আশাবাদী শেষ চার ম্যাচের ঘাটতি পুশিয়ে দিবে সাকিব। বাকি চার ম্যাচে ব্যাট হাতে চেনা রূপে দেখা যাবে সাকিবকে এমনটাই বিশ্বাস জেমকন খুলনা ব্যাটিং কোচের। মূলত দীর্ঘ বিরতির কারণেই সমস্যাটা হয়েছে বলেও জানান আফতাব। অন্যদিকে বেক্সিমকো ঢাকার কোচ খালেদ মাহমুদ সুজনও জানিয়েছেন সারা বছরের পারফর্মার সাকিবকে শীঘ্রয়ই দেখা আবে পুরোনো ছন্দে।

মিরপুরে বৃহস্পতিবার গণমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে খালেদ মাহমুদ সুজন সাকিব প্রসঙ্গে বলেন, ‘সাকিব অনেকদিন পর ক্রিকেটে ফিরলো। সাকিব তো সাকিবই। নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার। এখনো ব্যাট হাতে সাকিবকে সেভাবে দেখিনি। বল হাতেতো ওর যেটা স্বভাবসুলভ সেটা করছে। প্রতি ম্যাচেই ভালো বল করছে।’

‘ব্যাট হাতেতো ওর কাছে প্রত্যাশাটা সবারই অনেক বেশি। আমি বিশ্বাস করি সে ভালো খেলোয়াড়। সারাবছরেরই সে পারফর্মার সত্যি কথা বলতে গেলে। সে কামব্যাক করবে। হয়তো সময় নিচ্ছে। অনেকদিন পর বলে হ্যান্ড বাই কর্ডিনেশনের ব্যাপারটা থাকছে। আমি মনে করি সে কামব্যাক করবে।’

এদিকে সাকিবের জেমকন খুলনার ব্যাটিং কোচ আফতাব আহমেদ বলেন, ‘একটা ছেলে যখন এক বছর পর আসে তখ এসেই সবকিছু কাভার করা কঠিন। কোন সন্দেহ নেই, সবাই জানেন সে বিশ্বের এক নম্বর অলরাউন্ডার। সে যে কোন সময় কামব্যাক করবে। কিন্তু সে ভালো শেপে আছে। প্রথম দুই ম্যাচ থেকে এখন বেটার শেপে আছে। ইন শা আল্লাহ পরের চার ম্যাচে ভালো কিছু দেখবেন আশা করছি।’

জেমকন খুলনার অবশ্য কেবল সাকিব নয় টপ অর্ডারই ব্যর্থ হয়েছে নিয়মিত। সাকিবের মত বাকিদের ব্যর্থ হওয়ার পেছনেও একই কারোন জানালেন আফতাব আহমেদ, ‘একটা কথাই বারবার বলবো গ্যাপের সময়টায় অনেকের প্রস্তুতি ভালো হয়েছে অনেকের ভালো হয়নি। এখন এসে কাভার করাটা কঠিন হয়ে যাচ্ছে তাদের জন্য। তার উপর প্রথম দুই ম্যাচে খারাপ করার পর তাদের উপর একটা চাপ তৈরি হয়েছে। এটা কামব্যাক করাটা কঠিন হয়ে যায়।’

তবে পরের ম্যাচগুলোতে ভালো কিছু ব্যাপারে আহাবাদী জেমকন খুলনার ব্যাতিং কোচ, ‘কিন্তু এখন তারা খুবই ভালো অনুশীলন করছে। আমি আশা করি যে চারটা ম্যাচে রান হয়নি, বাকি চারটা ম্যাচে ভালো রিকভার করবে। একটা বছর আমাদের গ্যাপ ছিল, সেখান থেকে এসে শতভাগ পাওয়াটা খুবই কঠিন। তারপরও ওরা যথেষ্ট চেষ্টা করতেছে এবং ম্যাচে ফিরেছে। আমার মনে হয় ৪ টা ম্যাচে আমরা একটা শেপে আছি এবং বাকি ৪ টা ম্যাচে হয়তো আরও বেটার রেজাল্ট হবে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

ড্রাফটে না থাকলেও যেভাবে মাশরাফিকে নিতে চাচ্ছে খুলনা

Read Next

বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপ শেষ শফিউলের

Total
2
Share