সাকিবের ফেরা নিয়ে তিন অধিনায়কের ভাবনা

ফেরা নিয়ে তিন অধিনায়কের ভাবনা

করোনা পরবর্তী সময়ে দেশের ক্রিকেটে জাঁকজমকপূর্ণ টুর্নামেন্ট বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপ মাঠে গড়াচ্ছে আগামীকাল থেকে। এই টুর্নামেন্ট দিয়ে মাঠের ক্রিকেটে ফিরছেন সাকিব আল হাসান। যে কারণে তার দিকে থাকছে বাড়তি নজর। প্রথম দিনেই দ্বিতীয় ম্যাচে সাকিবের জেমকন খুলনা মুখোমুখি হবে ফরচুন বরিশালের। সাকিবের ফেরার দিনটিকে বাংলাদেশ ক্রিকেটের জন্যই গুরুত্বপূর্ণ দিন বলে অবিহিত করছেন ফরচুন বরিশাল অধিনায়ক তামিম ইকবাল।

তামিম ছাড়াও এদিন সাকিবের ফেরা প্রসঙ্গে কথা বলেছেন তার দল জেমকন খুলনার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও বেক্সিমকো ঢাকার অধিনায়ক মুশফিকুর রহিমও। তারাও উচ্ছ্বসিত বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের মাঠে ফেরার অপেক্ষায়।

আজ (২৩ নভেম্বর) মিরপুরে ম্যাচ পূর্ববর্তী দিন অনুশীলনের ফাঁকে গণমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে তামিম ইকবাল জানান সাকিব ফেরায় দারুণ খুশি তিনি। তামিম বলেন, ‘আমি নিশ্চিত ওর (সাকিব আল হাসান) জন্য অনেক বড় দিন। কারণ প্রায় এক বছর পর সে মাঠে ফিরছে। ওর জন্য বড় দিন, বাংলাদেশ ক্রিকেটের জন্য একটা গুরুত্বপুর্ণ দিন। কারণ, ওর ক্যালিবারের মত প্লেয়ার ফেরত আসছে।’

তবে প্রতিপক্ষ হিসেবে সাকিব যেন দলে খুব একটা প্রভাব ফেলতে না পারে সে চেষ্টাই করবে ফরচুন বরিশাল। তামি যোগ করেন, ‘আমি নিশ্চিত ওর ভক্তরা ওকে দেখার জন্য মুখিয়ে থাকবে। যেহেতু আমার জন্য এটা একটা খেলা, আমি চেষ্টা করবো ও যত কম প্রভাব যাতে ফেলতে পারে। দিনশেষে আমি খুশি যে ফিরছে, আমি নিশ্চিত আগামীকাল থেকে সে শক্তভাবেই সামনের দিকে এগিয়ে যাবে’

এদিকে প্রথমদিন সাকিব আল হাসানের প্রতিপক্ষ না হলেও সাকিবের ফেরা নিয়ে উচ্ছ্বসিত বেক্সিমকো ঢাকার অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। অনুশীলন শেষে তিনি জানান সাকিবকে আবারও মাঠের লড়াই দেখতে বিশ্ব ক্রিকেটই তাকিয়ে আছে।

মুশফিক বলেন, ‘এটা তো অবশ্যই বড় একটা বিষয়। কেবল আমি না আমার মনে হয় পুরো বিশ্ব ক্রিকেটই অপেক্ষা করছে। সে (সাকিব আল হাসান) নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার এবং আমাদের নাম্বার ওয়ান প্লেয়ার।’

তবে প্রতিপক্ষ হিসেবে মুশফিকেরও চাওয়া যেন তাদে বিপক্ষে জ্বলে না উঠে সাকিব। সাকিবের ফেরাটা টুর্নামেন্টের বড় প্রাপ্তি উল্লেখ করে মুশফিক যোগ করেন তরুণদের শেখার জন্য দারুণ সুযোগ।

মিস্টার ডিপেন্ডেবল খ্যাত মুশফিক বলেন, ‘আশা করছি আমাদের সঙ্গে ছাড়া যাতে অন্য সবার সঙ্গে ভালো খেলে। কোনো সমস্যা নাই। আমার কাছে মনে হয় শুধু আমি না এটা পুরো টুর্নামেন্টের জন্যই বড় একটা পাওয়া। তার সঙ্গে এবং বিপক্ষে যারা খেলবে তরুণ, তারা অনেক কিছু শিখতে পারবে।’

‘আমার মনে হয় এটা ভবিষ্যতেও খুব কাজে দিবে। যেহেতু এবার কোনো বিদেশি খেলোয়াড় নেই অনেক যারা লোকাল প্লেয়ার আছে তাদের জন্য এটা ভালো সুযোগ তার সঙ্গে শেয়ার করা এবং অনেক কিছু শেখার।’

এদিকে সাকিবের জেমকন খুলনার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদতো মনে করেন প্রথম দিন থেকেই জ্বলে উঠবে বিশ্ব সেরা অলরাউন্ডার। রিয়াদ বলেন, ‘আমি সবসময় একটা জিনিস বিশ্বাস করি- সাকিবের যে ক্যালিবার, যে ক্যাপাবিলিটি, আমার মনে হয়না যে ওটার কোন প্রশ্ন থাকবে ওর অ্যাচিভমেন্ট, ওর পারফরম্যান্সের ক্ষেত্রে।’

‘আমি বিশ্বাস করি ও প্রথম ম্যাচেই নিজেকে মেলে ধরতে পারবে। ঐ রাস্টিনেসও আমি দেখছি না, আমার মনে হয় যে ও খুব উদগ্রীব খেলার জন্য, আর মুখিয়ে আছে ভালো খেলার ব্যাপারে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

সাইফউদ্দিনের ইনজুরির আপডেট দিলেন শান্ত

Read Next

মুশফিক জানালেন কেন অধিনায়ক হয়েছেন

Total
38
Share