শ্রীলঙ্কা যা দেয়নি, ওয়েস্ট ইন্ডিজকে তা দিতে চায় বিসিবি

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজ
Vinkmag ad

জানুয়ারিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বাংলাদেশ সফর নানা দিক থেকেই বেশ গুরুত্বপূর্ণ বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবির) জন্য। করোনা পরবর্তী সময়ে প্রথমবার কোন বিদেশি দলকে আতিথেয়তা দেওয়ার পাশাপাশি টাইগার ক্রিকেটাররাও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তন করবে এই সিরিজ দিয়ে।

যে কারণে সিরিজটি যথাযথভাবে আয়োজনে এখন থেকেই পরিকল্পনা শুরু দেশের ক্রিকেট নিয়ন্ত্রক সংস্থার। ইতোমধ্যে বায়ো-বাবল নির্দেশনাও তৈরির কাজ চলছে, খুব শীঘ্রয়ই ক্রীড়া মন্ত্রণালয় হয়ে তা অনুমোদনের জন্য পাঠানো হবে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে।

করোনা পরবর্তী সময়ে প্রথম দেশ হিসেবে ওয়েস্ট ইন্ডিজই বিদেশ (ইংল্যান্ড) সফরে যায়। বাংলাদেশে আসার আগে নিউজিল্যান্ড সফরেও যাওয়ার কথা রয়েছে তাদের। করোনা বাধা দূরে সরিয়ে এখনো পর্যন্ত সফলভাবে চারটি সিরিজ আয়োজন করে ইংল্যান্ড যেখানে অন্য কোন দেশে গড়ায়নি এই সময়ে কোন আন্তর্জাতিক ম্যাচ। যদিও চলতি মাসের শেষ দিকে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজ আয়োজন করতে যাচ্ছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)।

নিউ নরমালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরিয়ে দৃষ্টান্ত সৃষ্টি করেছে দ্য ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। তাদের তৈরি করা বায়ো-বাবল গাইডলাইনই অনুসরণ করছে দেশগুলো। সিপিএল, আইপিএলের মত ফ্র্যাঞ্চাইজি ভিত্তিক টুর্নামেন্টেও ইসিবির প্রোটোকলকেই রোল মডেল ধরা হয়েছিল। দেশের মাটিতে সিরিজ আয়োজনে বিসিবিও একই পথে হাঁটছে।

জাতীয় দৈনিক ‘সমকাল’ কে বিসিবির প্রধান চিকিৎসক দেবাশীষ চৌধুরী বলেন, ‘ইংল্যান্ড এবং আইপিএলের বায়ো-বাবল মডেল ধরে বিসিবি একটি গাইডলাইন তৈরি করছে, যেখানে কোয়ারেন্টাইনে উইন্ডিজ দলের জন্য অনুশীলন সুবিধা রাখা হচ্ছে। এখন যারাই খেলায় ফিরছে কোয়ারেন্টাইন ব্যবস্থা একই রকম হচ্ছে। এ ছাড়াও যে জিনিসগুলো থাকা অত্যাবশ্যক সেগুলো তো থাকবেই। বিসিবির গাইডলাইন স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় অনুমোদন দিলে পরবর্তী পদক্ষেপ নেবে বোর্ড।’

প্রতিবেদন অনুসারে ইংল্যান্ডের মত বাংলাদেশও ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষে পূর্ণাঙ্গ সিরিজটি দুটো ভেন্যুতে সীমাবদ্ধ রাখবে। ঢাকার মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সাথে দ্বিতীয় ভেন্যু হতে পারে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়াম কিংবা সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম।

বাংলাদেশের শ্রীলঙ্কা সফর স্থগিত হয় মূলত কোয়ারেন্টাইন ইস্যুতে লঙ্কান বোর্ড ও বিসিবির মতানৈক্য না হওয়াতে। ওয়েস্ট ইন্ডিজকে অবশ্য ‘ফ্লেক্সিবল কোয়ারেন্টাইন’ দিতে চায় বিসিবি।

বাংলাদেশে পৌঁছে ৭ দিনের কোয়ারেন্টাইন চলাকালীন অনুশীলনও করতে পারবে ক্যারিবিয়ানরা। করোনা টেস্টে নেগেটিভ হয়ে বায়ো-বাবলে প্রবেশ করে আরও দুই দফা করোনা টেস্টে নেগেটিভ হলেই মিলবে স্বাভাবিক কার্যক্রমের ছাড়পত্র।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

এলপিএলের পূর্নাঙ্গ সূচি ও স্কোয়াড

Read Next

রফিক-উল হকের মৃত্যুতে বিসিবি সভাপতি ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর শোক

Total
38
Share